corona virus btn
corona virus btn
Loading

কেউ কাজ দিচ্ছিল না, পেশার লড়াই ছিল চরমে!‌ পুলিশকে এই দিকটাও দেখতে নির্দেশ মন্ত্রীর

কেউ কাজ দিচ্ছিল না, পেশার লড়াই ছিল চরমে!‌ পুলিশকে এই দিকটাও দেখতে নির্দেশ মন্ত্রীর

রবিবার সকালে মুম্বইয়ের বান্দ্রা এলাকায় তাঁর নিজস্ব ফ্ল্যাটে গলায় ফাঁস দেওয়া অবস্থায় অভিনেতার ঝুলন্ত দেহ উদ্ধার করে পুলিশ

  • Share this:

#‌মুম্বই:‌ পেশাগত লড়াইয়ের মধ্যে পড়েই কি প্রাণ গেল সুশান্ত সিং রাজপুতের?‌ সরাসরি কোনও প্রমাণ না পাওয়া গেলেও বিভিন্ন মাধ্যম থেকে এই বিষয়ে খবর উঠে আসছে বারবার। আর অনেকেই বলছেন, নিজের পেশায় ক্রমে পায়ের তলার মাটি সরে যাচ্ছিল সুশান্তের। যার পিছনে কাজ করছে বলিউড ইন্ডাস্ট্রির একচোখামো। এবার সেই অভিযোগেরই তদন্ত করে দেখতে বলছেন খোদ মহারাষ্ট্রের মন্ত্রী।

তিনি একটি ট্যুইট করে বলেছেন, ‘ময়নাতদন্তের রিপোর্ট বলছে, গলায় ফাঁস লাগিয়ে আত্মহত্যা করেছেন অভিনেতা। কিন্তু সংবাদমাধ্যমের রিপোর্ট থেকে জানা গিয়েছে, পেশাগত দ্বন্দ্বের কারণে অবসাদে ভুগছিলেন তিনি। এই দিকটাও খতিয়ে দেখবে মুম্বই পুলিশ।’

বিহারের ছেলে সুশান্ত সিং অভিনয় জগতে পা রাখেন ছোট পর্দা থেকেই ৷ তাঁর অভিনীত কিস দেশ মে হ্যায় মেরা দিল, পবিত্র রিস্তা-থেকে ঘরে ঘরে সবাই চিনতে শুরু করেন সুশান্ত সিং রাজপুতকে৷ ‘কই পো চে’ ছবি থেকেই বলিউডের নায়কের পরিচয় পান সুশান্ত সিং রাজপুত ৷ বড় পর্দায় তাঁর শেষ ছবি ‘ছিছোড়ে’ ৷ তবে নেটফ্লিক্সের ছবি ‘ড্রাইভ’-এ তাঁকে দেখা গিয়েছিল শেষবার ৷ এছাড়াও বহু বিজ্ঞাপনের মুখ ছিলেন সুশান্ত সিং রাজপুত ৷

রবিবার সকালে মুম্বইয়ের বান্দ্রা এলাকায় তাঁর নিজস্ব ফ্ল্যাটে গলায় ফাঁস দেওয়া অবস্থায় অভিনেতার ঝুলন্ত দেহ উদ্ধার করে পুলিশ ৷ পুলিশের প্রাথমিক অনুমান ছিল, এটি আত্মহত্যার ঘটনা ৷ পরে ময়নাতদন্তের রিপোর্টে দেখা যায়, আত্মহত্যাই করেছেন সুশান্ত ৷

Published by: Uddalak Bhattacharya
First published: June 16, 2020, 5:35 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर