করোনা ভাইরাস

corona virus btn
corona virus btn
Loading

TRA Research: লকডাউনে আর্থিক দিক থেকে সবচেয়ে কম দুশ্চিন্তায় কলকাতার মানুষ, বলছে সমীক্ষার রিপোর্ট

TRA Research: লকডাউনে আর্থিক দিক থেকে সবচেয়ে কম দুশ্চিন্তায় কলকাতার মানুষ, বলছে সমীক্ষার রিপোর্ট
Representational Image

ব্যবসায় লাভের মুখ দেখছে না অধিকাংশ সংস্থাই ৷ অনেকেই চাকরি হারিয়েছেন এর মধ্যে ৷ তাই স্বাস্থ্যের পাশাপাশি আর্থিক দিক থেকেও কম-বেশি দুশ্চিন্তায় প্রত্যেকেই ৷

  • Share this:

#কলকাতা: টানা তিন মাস যেন থমকে গিয়েছে গোটা দেশ। করোনার জেরে ঘরবন্দি জীবন ঘিরে রেখেছে অন্ধকার। লকডাউন শেষে ‘আনলক’ শুরু হলেও পরিস্থিতি স্বাভাবিক হয়নি ৷ সবাই আতঙ্কের মধ্যেই কাজে বেরোচ্ছেন ৷ স্কুল-কলেজ এখনও সবই বন্ধ ৷ ব্যবসায় লাভের মুখ দেখছে না অধিকাংশ সংস্থাই ৷ অনেকেই চাকরি হারিয়েছেন এর মধ্যে ৷ তাই স্বাস্থ্যের পাশাপাশি আর্থিক দিক থেকেও কম-বেশি দুশ্চিন্তায় প্রত্যেকেই ৷

সম্প্রতি TRA Research নামের একটি ব্র্যান্ড অ্যানালিটিকস সংস্থা একটি ‘হোয়াইটপেপার’ প্রকাশ করেছে ৷ গোটা দেশে লকডাউনের সময় কেমন থেকেছেন দেশবাসী ৷ তাদের মানসিক অবস্থা এখন কী রকম ৷ এই রিপোর্টে তারই একটা আন্দাজ পাওয়া গিয়েছে ৷ দেশের ছোট-বড় মিলিয়ে মোট ১৬টা শহরে গত ২৩ মার্চ থেকে ২১ মে পর্যন্ত সমীক্ষা চালানো হয়েছিল ৷ তাতে স্বাস্থ্য সমস্যা, আর্থিক সমস্যা এবং পরিবারকে নিয়ে দুশ্চিন্তা সব কিছুকেই তুলে ধরা হয়েছে এই রিপোর্টে ৷

সমীক্ষার রিপোর্টে দেখা যাচ্ছে, Mental Wellbeing Index (MWBI) অনুযায়ী রাজধানী দিল্লি এবং গুয়াহাটির মানুষরা এই সময় মানসিক দিক থেকে সবচেয়ে বেশি দুশ্চিন্তায় থেকেছেন ৷ করোনার জেরে নিজেদের ভবিষ্যত নিয়ে দুশ্চিন্তায় মাঝেমধ্যেই অসহায় বোধ করেছেন বহু মানুষ ৷ মানসিক দিকে থেকে অনেকটাই ভেঙে পড়েছেন তাঁরা ৷ মানসিক সুস্থতার সূচকের দিক থেকে ভাল জায়গায় রয়েছেন হায়দরাবাদ, ইনদওর এবং চণ্ডীগড়ের মানুষরা ৷ তবে এ ব্যাপারে দক্ষিণ ভারতের চেন্নাই, কোচির মতো শহরে অনেকাংশেরই খারাপ অবস্থা ৷ লকডাউনে মানসিক দুশ্চিন্তার দিক থেকে বাকিদের তুলনায় সবচেয়ে ভাল অবস্থায় থেকেছেন কলকাতার মানুষ ৷ পূর্ব ভারতের শুধুমাত্র কলকাতা এবং গুয়াহাটি এই দুই শহরেই সমীক্ষা চালানো হয়েছিল ৷ Mental Wellbeing Index (MWBI)-এর বিচারে কলকাতার স্কোর ৯৫ শতাংশ ৷ এবং গুয়াহাটির ৪৯ শতাংশ ৷ অর্থাৎ এর থেকেই বোঝা যাচ্ছে দুশ্চিন্তা হলেও লকডাউনে এই শহরের মানুষ মানসিক বা আর্থিক দিক থেকে পুরোপুরি ভেঙে পড়েননি ৷

Published by: Siddhartha Sarkar
First published: June 27, 2020, 2:46 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर