corona virus btn
corona virus btn
Loading

বন্দরেই স্বাস্থ্য়পরীক্ষা, করোনা ঠেকাতে এবার তৈরি কলকাতা-হলদিয়াও

বন্দরেই স্বাস্থ্য়পরীক্ষা, করোনা ঠেকাতে এবার তৈরি কলকাতা-হলদিয়াও

ভারতের ইতিহাসে থ্যালাসেমিয়া থেকে আরম্ভ করে এইডস, সব বন্দর এলাকা থেকেই ছড়িয়েছে দেশের অভ্যন্তরে। যার জন্য বন্দরে এখন কড়া সতর্কতা।

  • Share this:

#কলকাতা: বিমানবন্দরের পর এবার করোনা ভাইরাস রুখতে সতর্কতা কলকাতা বন্দরেও ৷ কলকাতার পাশাপাশি হলদিয়া বন্দরেও সতর্কতা জারি করেছে বন্দর কর্তৃপক্ষ ৷

এরাজ্য়ের সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ ও ব্য়স্ত বন্দর কলকাতা ও হলদিয়া৷ প্রতিদিন গড়ে ১০-১২টি জাহাজ ঢোকে বন্দরগুলিতে৷ যারমধ্য়ে থাকে চিন ও দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়ার দেশগুলি থেকে আসা জাহাজও৷ ফলে আগেভাগেই বাড়তি সতর্কতা নিচ্ছে বন্দর কর্তৃপক্ষ৷

কলকাতা বন্দরে জাহাজ নোঙরের জায়গাতেই অস্থায়ী হেল্থ ক্য়াম্প তৈরি করা হয়েছে৷ রয়েছে অ্য়াম্বুলান্স ও চিকিৎসার প্রয়োজনীয় যন্ত্রপাতি৷  কলকাতা বন্দরের চেয়ারম্যান বিনীত কুমার জানান, যাঁরা বিদেশ থেকে আসছেন, তাঁদের জ্বর-সর্দি-কাশি বা ফুসফুসে কোনও সমস্য়া থাকলে, নিজে থেকেই বন্দরে উপস্থিত চিকিৎসকদের জানাতে হবে৷ যদি কোনও সমস্য়া ধরা পড়ে, তাহলে সঙ্গে সঙ্গে অ্য়াম্বুলান্সে করে বেলেঘাটা আইডিতে ভরতি করা হবে৷ করোনা মোকাবিলায় এরাজ্য়ের নোডাল হাসপাতাল বেলেঘাটা আইডি৷

বিনীত কুমার জানান, কলকাতা বন্দরে এখনও পর্যন্ত ১৫৭ জন নাবিকের স্বাস্থ্য় পরীক্ষা করা হয়েছে। যারমধ্য়ে অনেকেই চিনা জাহাজের নাবিক৷ তবে কারও শরীরে করোনার উপসর্গ মেলেনি বলেই দাবি বন্দর কর্তৃপক্ষের। মালয়েশিয়া থেকে আসা একটি জাহাজের নাবিকের শরীরের তাপমাত্রা বেশি ছিল। সঙ্গে সঙ্গে তাঁর স্বাস্থ্য় পরীক্ষা করেন চিকিৎসকরা৷  আধঘণ্টার মধ্য়েই অবশ্য় তাঁর শরীরের তাপমাত্রা নেমে আসে৷ জানা যায়, জাহাজের ইঞ্জিন রুমে কাজ করার জন্য়ই ওই নাবিকের শরীরের তাপমাত্রা বেড়ে গিয়েছিল৷

করোনাভাইরাস ঠেকাতে ইতিমধ্য়েই কলকাতা বিমানবন্দরে বাড়তি সতর্কতা নেওয়া হয়েছে৷ বিদেশ থেকে আসা যাত্রীদের থার্মাল স্ক্য়ানারের মাধ্য়মে পরীক্ষা করা হচ্ছে৷ করোনা ঠেকাতে বিমানবন্দরের পর এবার একই পথে হাঁটছে কলকাতা-হলদিয়া বন্দরও৷

Shanku Santra

Published by: Siddhartha Sarkar
First published: January 30, 2020, 5:31 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर