Corona 2nd wave: ভারতে নতুন প্রজাতি ছড়িয়েছে ধর্মীয় সমাবেশ থেকেই, মেনে নিল ICMR

এই স্ট্রেন বিদেশীদের দেহ থেকে ভারতীয়দের শরীরে সংক্রমিত হয়েছিল প্রথমে । এরপর জমায়েতের মাধ্যমে তা ভয়ঙ্কর রূপে ছড়িয়ে পড়ে সকলের মধ্যে ।

এই স্ট্রেন বিদেশীদের দেহ থেকে ভারতীয়দের শরীরে সংক্রমিত হয়েছিল প্রথমে । এরপর জমায়েতের মাধ্যমে তা ভয়ঙ্কর রূপে ছড়িয়ে পড়ে সকলের মধ্যে ।

  • Share this:

    #নয়াদিল্লি: অবশেষে মেনে নিল ICMR । ভারতে করোনা ভাইরাসের দ্বিতীয় ঢেউ আছড়ে পড়ার প্রধান ও অন্যতম কারণ হল ধর্মীয় জমায়েত বা রাজনৈতিক সমাবেশের মতো বিশাল সংখ্যক মানুষের ভিড় । বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা ( WHO) আগেই ভারতে করোনা ভাইরাসের বাড়বাড়ন্তের কারণ হিসাবে এই জমায়েতকে দায়ী করেছিল । এ বার সেই তত্ত্বেই শিলমোহর দিল ইন্ডিয়ান কাউন্সিল ফর মেডিক্যাল রিসার্চ (ICMR)-এর বিজ্ঞানীরা । ICMR-এর নিজস্ব একটি সমীক্ষায় এই তথ্য উঠে এসেছে ।

    ICMR-এর গবেষণায় উঠে এসেছে, করোনার নতুন এই স্ট্রেন ছড়িয়ে পড়েছে মূলত পরিযায়ী শ্রমিকদের যাতায়াত ও ধর্মীয় অনুষ্ঠানগুলি থেকে । ভারতে সর্বপ্রথম করোনার B.1.617 স্ট্রেনটি চিহ্নিত হয়েছিল গত বছরের অক্টোবর মাসে । এই স্ট্রেন বিদেশীদের দেহ থেকে ভারতীয়দের শরীরে সংক্রমিত হয়েছিল প্রথমে । এরপর জমায়েতের মাধ্যমে তা ভয়ঙ্কর রূপে ছড়িয়ে পড়ে সকলের মধ্যে । আগে করোনার B.1.617 স্ট্রেনটিকে গোটা বিশ্বের জন্য বিপদজ্জনক ঘোষণা করেছিল হু । অতি সক্রিয় সংক্রমণের ক্ষমতা সম্পন্ন B.1.351 এবং E484Q করোনার ডবল মিউট্যান্ট স্ট্রেনটি এরপর ভারতে পাওয়া যায় । যা আরও মারাত্মক হয়ে ওঠে বিপুল জমায়েতের মাধ্যমে তা হাজার হাজার মানুষের মধ্যে ছড়িয়ে পড়ায় ।

    স্বাভাবিকভাবেই প্রশ্ন উঠছে, পরিযায়ী সমস্যাই হোক, আর ধর্মীয় সমাবেশের অনুমতি দেওয়াই হোক, এ সবের দায় কি কেন্দ্রীয় সরকার এড়াতে পারে?

    Published by:Simli Raha
    First published: