Covid Bengal : ফাইনাল ইয়ার MBBS পড়ুয়া ও নার্সদের করোনা মোকাবিলায় কাজে লাগাতে উদ্যোগ নিল নবান্ন!

করোনা মোকাবিলায় ফাইনাল ইয়ার MBBS পড়ুয়া ও নার্স.. প্রতীকী চিত্র

জেলার স্বাস্থ্য আধিকারিকদের সঙ্গে একটি রিভিউ বৈঠক করেন মুখ্য সচিব (Chief Secretary) আলাপন বন্দ্যোপাধ্যায়। ফাইনাল ইয়ারের এমবিবিএস ছাত্র-ছাত্রী (MBBS Students) এবং নার্সদের করোনা মোকাবিলার কাজে লাগানোর প্রক্রিয়ায় আরও একধাপ এগোল রাজ্য।

  • Share this:

#কলকাতা : গোটা দেশের মতোই করোনা পরিস্থিতি (Corona Virus) এখনও সঙ্কটজনক রাজ্যে। সামাল দিতে দফায় দফায় চলছে প্রশাসনিক স্তরের বৈঠক। সবরকমভাবে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে মরিয়া রাজ্য সরকার। বৃহস্পতিবারও প্রত্যেকটি জেলার স্বাস্থ্য আধিকারিকদের সঙ্গে একটি রিভিউ বৈঠক করেন মুখ্য সচিব (Chief Secretary) আলাপন বন্দ্যোপাধ্যায়। ফাইনাল ইয়ারের এমবিবিএস ছাত্র-ছাত্রী (MBBS Students) এবং নার্সদের করোনা মোকাবিলার কাজে লাগানোর প্রক্রিয়ায় আরও একধাপ এগোল রাজ্য।

ফাইনাল ইয়ারের এমবিবিএস এবং নার্সদের করোনা মোকাবিলার কাজে লাগানো হবে। ইতিমধ্যেই মুখ্যসচিব ঘোষণা করেছিলেন, রাজ্যের কোরোনাভাইরাস অতিমারীর এই সঙ্কটজনক পরিস্থিতিতে চিকিৎসকদের পাশাপাশি মেডিক্যাল ও নার্সিং এর পড়ুয়াদেরও কাজে লাগানো হবে। আজ সেই বিষয় নিয়ে আলোচনা করা হয়। মোট ২৪৫০ জন ফাইনাল ইয়ারের এমবিবিএস পড়ুয়া ও প্রায় ২০০০ জন নার্সকে কাজে লাগানোর সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে এদিনের বৈঠকে। জেলা স্বাস্থ্য আধিকারিকদের সঙ্গে রিভিউ বৈঠকের পর মুখ্যসচিব এমনটাই জানান বলে নবান্ন সূত্রে খবর।

অন্যদিকে কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয়ের অধীনস্থ গোয়েনকা হাসপাতালকে অস্থায়ী কোভিড হাসপাতাল করার জন্য বৃহস্পতিবার একটি প্রস্তাব দেয় রাজ্যের স্বাস্থ্য দফতর। তাদের সেই প্রস্তাবে সম্মতি দেয় বিশ্ববিদ্যালয়। আজ বিশ্ববিদ্যালয় সিন্ডিকেট বৈঠক হয় সেই বৈঠকেই এই প্রস্তাবটি অনুমোদন দেওয়া হয়।

এদিকে, করোনা সংক্রমণ কমার কোনও লক্ষণ নেই এই রাজ্যে। বরং প্রতিদিনই বাড়ছে আক্রান্তের সংখ্যা। তৈরী হচ্ছে নয়া রেকর্ড। বৃহস্পতিবারও রাজ্যে করোনা সংক্রমণে নতুন রেকর্ড হল। ২০ হাজার ছাড়িয়ে ২১ হাজারের দিকে আরও কিছুটা এগোল দৈনিক সংক্রমণের সংখ্যা। তবে এদিন মৃত্যুর সংখ্যা ছিল অপেক্ষাকৃত কম। রাজ্যে দৈনিক সুস্থতাও ১৯ হাজারের ওপরে। এদিন রাজ্যে মৃত্যু হয়েছে ১২৯ জনের। যার মধ্যে কলকাতায় ৩৯ জন ও উত্তর ২৪ পরগনায় ২৫ জনের মৃত্যু হয়েছে করোনায়। যার ফলে রাজ্যে করোনায় মোট মৃত্যু হয়েছে ১২,৮৫৭।

বুধবার সকাল ৯টা থেকে বৃহস্পতিবার সকাল ৯টা পর্যন্ত মেলা তথ্যের ভিত্তিতে স্বাস্থ্য দফতরের বুলেটিন অনুসারে বৃহস্পতিবার রাজ্যে ২০,৮৩৯ জন করোনা আক্রান্ত হয়েছেন। উত্তর ২৪ পরগনায় সংক্রমণ ৪,০০০ পার করেছে। সেখানে এদিন সংক্রমিতের সংখ্যা ৪,১৩১। কলকাতায় সংক্রমণ ৪,০০০ এর কাছাকাছি। নতুন সংক্রমণের ফলে রাজ্যে মোট করোনা রোগীর সংখ্যা বেড়ে হয়েছে ১০,৭৩,৭১৭।

Published by:Sanjukta Sarkar
First published: