• Home
  • »
  • News
  • »
  • business
  • »
  • MUKESH AMBANI ON COVID PANDEMIC GREATER HAPPINESS THAN OUR BUSINESS PERFORMANCE IS RELIANCES HUMANITARIAN EFFORTS SS

Reliance AGM: করোনাকালে দেশের জন্য, পৃথিবীর কল্যাণে কাজ করছে রিলায়েন্স, প্রত্যেক কর্মীর পাশে রয়েছে সংস্থা: মুকেশ

Reliance AGM: RIL-এর প্রত্যেক সদস্য করোনার বিরুদ্ধে লড়েছে ৷ আশার থেকে বেশি লাভ করেছে রিলায়েন্স ৷ ভয়ঙ্কর পরিস্থিতির মধ্যে দিয়ে যাচ্ছি আমরা ৷ এজিএমে বললেন মুকেশ আম্বানি ৷

Reliance AGM: RIL-এর প্রত্যেক সদস্য করোনার বিরুদ্ধে লড়েছে ৷ আশার থেকে বেশি লাভ করেছে রিলায়েন্স ৷ ভয়ঙ্কর পরিস্থিতির মধ্যে দিয়ে যাচ্ছি আমরা ৷ এজিএমে বললেন মুকেশ আম্বানি ৷

  • Share this:

    মুম্বই: আজ, বৃহস্পতিবার রিলায়েন্সের ৪৪ তম বার্ষিক সাধারণ সভায় (এজিএম) বক্তব্য রাখেন সংস্থার চেয়ারম্যান মুকেশ আম্বানি (Mukesh Ambani) ৷ দপুর ২টোয় শুরু হয় বৈঠক ৷ করোনাকালে গত বছরের মতো এবছরও ভার্চুয়ালি অনুষ্ঠিত হয় রিলায়েন্সের এজিএম ৷ করোনাকালে দেশের প্রত্যেক সংস্থাকেই অনেক কঠিন সময়ের মধ্যে দিয়ে যেতে হচ্ছে ৷ রিলায়েন্সের ক্ষেত্রেও পরিস্থিতি তেমনিই ৷ তবে সব সমস্যার মধ্যেই একসঙ্গে একজোট হয়ে লড়াই চালিয়ে যাচ্ছে রিলায়েন্স ইন্ডাস্ট্রিজ ৷ এমনটাই এদিন জানান মুকেশ আম্বানি ৷

    এদিন এজিএমে বক্তব্য রাখতে গিয়ে মুকেশ আম্বানি প্রথমেই জানান, এই অতিমারির কঠিন পরিস্থিতিতে যেভাবে রিলায়েন্স কাজ চালিয়ে গিয়েছে, তা অনেক বেশি তৃপ্তিদায়ক ৷ করোনাকালে পুরোটা সময়েই দেশের কথা ভেবেই একটা নির্দিষ্ট উদ্দেশ্য নিয়ে কাজ করে গিয়েছে রিলায়েন্স ৷ সংস্থার সব কর্মীরাই প্রত্যক্ষ বা পরোক্ষ ভাবে এই কাজের সঙ্গে যুক্ত ৷ করোনার বিরুদ্ধে সবাই মিলে লড়াই করেছি আমরা ৷ আর রিলায়েন্সের গুডউইল অ্যাম্বাসাডর হিসেবে আমি এইটুকু বলতে পারি, সবার এই মিলিত প্রচেষ্টা সংস্থার প্রতিষ্ঠাতা শ্রী ধীরুভাই আম্বানিকে আজ গর্বিত করেছে ৷ ‘CARE’ এবং ‘EMPATHY’- এই দুই-ই হল রিলায়েন্সের লক্ষ্য ৷

    মুকেশ আম্বানি এদিন আরও জানান, দেশের জন্য, পৃথিবীর কল্যাণে কাজ করছে রিলায়েন্স ৷ প্রত্যেক কর্মীর পাশে রয়েছে সংস্থা ৷ RIL-এর প্রত্যেক সদস্য করোনার বিরুদ্ধে লড়েছে ৷ আশার থেকে বেশি লাভ করেছে রিলায়েন্স ৷ ভয়ঙ্কর পরিস্থিতির মধ্যে দিয়ে যাচ্ছি আমরা ৷’’ করোনায় মৃতদের প্রতি শ্রদ্ধাজ্ঞাপনের জন্য এদিন এজিএম শুরুর আগে ১ মিনিট নীরবতা পালন করা হয় ৷

    Published by:Siddhartha Sarkar
    First published: