Home /News /business /

ব্যাঙ্কের জন্য লাগু হতে চলেছে নতুন নিয়ম, দেখে নিন আপনার অ্যাকাউন্টের টাকার কী হবে?

ব্যাঙ্কের জন্য লাগু হতে চলেছে নতুন নিয়ম, দেখে নিন আপনার অ্যাকাউন্টের টাকার কী হবে?

আরবিআই-এর পর্যবেক্ষণে না থাকার কারণেই মহারাষ্ট্রের PMC ব্যাঙ্কে এত বড় ঘোটালা হয় বলে মনে করা হচ্ছে ৷

  • Share this:

    #নয়াদিল্লি: বর্তমানে রিজার্ভ ব্যাঙ্কের সরাসরি পর্যবেক্ষণে থাকে না সরকারি কো-অপারেটিভ ব্যাঙ্কগুলি ৷ তবে ২৪ জুন কেন্দ্রীয় মন্ত্রিসভার বৈঠকে এই বিষয়ে বড় সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে ৷ প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির নেতৃত্বে হওয়া ক্যাবিনেট বৈঠকে সিদ্ধান্ত নেওয়া হয় যে এবার থেকে রিজার্ভ ব্যাঙ্কের অধীনে থাকবে কো-অপারেটিভ ব্যাঙ্কগুলি ৷ প্রকাশ জাভড়েকর জানিয়েছেন, scheduled ব্যাঙ্কগুলিকে যেভাবে রিজার্ভ ব্যাঙ্ক রেগুলেট করে থাকে এবার থেকে কো-অপারেটিভ ব্যাঙ্কের উপরও একই ভাবে নজর রাখা হবে ৷ দেশে ১৪৮২ Urban Cooperative bank ও ৫৮ টি Multi State Cooperative ব্যাঙ্ক রয়েছে ৷ এবার এই ১৫৪০ টি সহকারি ব্যাঙ্ক আরবিআই-এর রেগুলেশনে চলে এসেছে ৷

    আরবিআই-এর পর্যবেক্ষণে না থাকার কারণেই মহারাষ্ট্রের PMC ব্যাঙ্কে এত বড় দুর্নীতি হয় বলে মনে করা হচ্ছে ৷ এতদিন পর্যন্ত কো-অপারেটিভ ব্যাঙ্কের দায়িত্ব দেওয়া হয়েছিল RBI এর কোঅপারেটিভ সুপারভাইজারি টিমকে ৷ কিন্তু সাধারণত কোঅপারেটিভ ব্যাঙ্ক ছোট অঙ্কের লোন দিয়ে থাকে ৷ এর জেরে এই সেকশন কম সক্রিয় থাকে ৷ ফলে একাধিকবার দুর্নীতির কথা জানতেই পাওয়া যায় না ৷ ছোট কোঅপারেটিভ ব্যাঙ্কের অডিট ১৮ মাসে একবার হয়ে থাকে ৷ কিন্তু PMC-এর মতো বড় ব্যাঙ্কের অডিট বছরে একবার হয়ে থাকে ৷

    বিশেষজ্ঞদের মতে এর জেরে গ্রাহকদের সুবিধা হতে চলেছে ৷ এবার কোনও ব্যাঙ্ক ডিফল্ট করলে ব্যাঙ্কে জমা গ্রাহকদের ৫ লক্ষ পর্যন্ত টাকা সুরক্ষিত থাকবে ৷ কারণ পয়লা ফেব্রুয়ারি বাজেট পেশ করার সময় অর্থমন্ত্রী এই টাকার অঙ্ক ১ লক্ষ থেকে বাড়িয়ে ৫ লক্ষ টাকা করেছেন ৷ অর্থাৎ, কোনও ব্যাঙ্ক ডুবে গেলে গ্রাহকদের যত টাকাই জমা থাক, তাঁরা ৫ লক্ষের বেশি টাকা পাবেন না ৷ একই ব্যাঙ্কের সমস্ত ব্রাঞ্চের টাকা ও সুদ মিলিয়ে মাত্র ৫ লক্ষ টাকা দেওয়া হবে ৷

    কোঅপারেটিভ ব্যাঙ্ক আরবিআই-এর পর্যবেক্ষণে আসলে সুবিধা হবে গ্রাহকদের ৷ প্রথমত, তাঁরা নিশ্চিত থাকতে পারবে যে তাঁদের টাকা সুরক্ষিত রয়েছে ৷ রিজার্ভ ব্যাঙ্ক ঠিক করবে এই ব্যাঙ্কের টাকা কোন ক্ষেত্রে ব্যবহার করা হবে ৷ রিজার্ভ ব্যাঙ্কের অধিনে থাকায় তার নিয়ম মেনে চলতে হবে ৷ পাশাপাশি এই ব্যাঙ্কগুলিকেও তাদের কিছু টাকা রির্জাভ ব্যাঙ্কের কাছে রাখতে হবে ৷ এর জেরে ব্যাঙ্ক বন্ধ হয়ে যাওয়ার আশঙ্কা অনেকটাই কমে যাবে ৷ সরকারের এই সিদ্ধান্তে দেশের নাগরিকদের কো-অপারেটিভ ব্যাঙ্কের উপর বিশ্বাস আরও বাড়বে ৷

    Published by:Dolon Chattopadhyay
    First published:

    Tags: Cooperative Banks, RBI, RBI Supervision, Reserve Bank of India

    পরবর্তী খবর