পুরনো নোট আছে আপনার কাছে? এখানে বিক্রি করলেই কেল্লাফতে! বাড়ি বসেই উপার্জন করুন হাজার হাজার টাকা

৫ টাকার ওই নোট থেকে ৩০,০০০ টাকা পর্যন্ত উপার্জন করতে হলে সেই নোটটিতে বিশেষ কিছু বৈশিষ্ট্য থাকতে হবে।

৫ টাকার ওই নোট থেকে ৩০,০০০ টাকা পর্যন্ত উপার্জন করতে হলে সেই নোটটিতে বিশেষ কিছু বৈশিষ্ট্য থাকতে হবে।

  • Share this:

#নয়াদিল্লি: অনেকেরই শখ থাকে পুরনো কয়েন বা নোট জমানোর। কথায় আছে পুরনো চাল ভাতে বাড়ে। এবার ঠিক সে ভাবেই পুরনো নোট দামে বাড়ছে। আপনার কাছে যদি ৫ বছরের পুরনো নোট থাকে তবে এবার আপনি ঘরে বসেই পেয়ে যেতে পারেন ৩০,০০০ টাকা।

এটা শুনতে খুব অবিশ্বাস্য মনে হলেও এটা সত্যি যে, আপনার পিগি ব্যাঙ্কে বা মানিব্যাগে যদি পুরানো ৫ টাকার নোট থাকে তবে আপনি কোথাও না গিয়ে কয়েক মিনিটের মধ্যে ৩০,০০০ টাকা উপার্জন করে ফেলতে পারেন। আপনার পুরনো এবং বিরল ৫ টাকার নোটের সেরা রেটগুলি জানতে আপনি ভিজিট করতে পারেন- অ্যান্টিক এবং কালেক্টবেল- এই দুটি ওয়েবসাইট।

তবে, ৫ টাকার ওই নোট থেকে ৩০,০০০ টাকা পর্যন্ত উপার্জন করতে হলে সেই নোটটিতে বিশেষ কিছু বৈশিষ্ট্য থাকতে হবে। নোটটিতে ট্র্যাক্টরের ছবি থাকাতে হবে। রিজার্ভ ব্যাঙ্ক অফ ইন্ডিয়া (RBI) দ্বারা জারি করা নোটটি খুব বিরল বলে মনে করা হয় যদি এটিতে ৭৮৬ নম্বরটি লেখা থাকে।

উল্লিখিত বৈশিষ্ট্যগুলি সহ যদি আপনার কাছে পাঁচ টাকার নোট থাকে তবে আপনি কেবল coinbazzar.com –এ গিয়ে সেটিকে অনলাইনে বিক্রি করতে পারেন। এই প্ল্যাটফর্মটি পুরানো নোটের বিনিময়ে বহুগুণে অর্থ উপার্জনের সুযোগ দিচ্ছে।

পুরনো পাঁচ টাকার নোটটি coinbazzar.com–এ কী ভাবে বিক্রি করবেন:

স্টেপ ১:  coinbazzar.com ওয়েবসাইট ভিজিট করুন।

স্টেপ ২: বিক্রেতা হিসাবে নিজে রেজিস্ট্রেশন করুন।

স্টেপ৩: আপনার নোটের ছবিটি ক্লিক করুন এবং প্ল্যাটফর্মে এটি আপলোড করুন। নোট বিক্রির জন্য আপনার বিজ্ঞাপন প্ল্যাটফর্মে প্রদর্শিত হবে।

স্টেপ ৪: আগ্রহী ব্যক্তিরা আপনার বিজ্ঞাপনটি দেখার পরে আপনার সঙ্গে যোগাযোগ করবে। আপনি তাঁদের সঙ্গে কথা বলতে পারেন এবং নোটটি বিক্রি করতে পারেন।

এছাড়াও কয়েনবাজার প্ল্যাটফর্মে, আপনি পুরনো ১ টাকার নোট বিক্রি করে ৪৫,০০০ টাকা পর্যন্ত পেতে পারেন। সেক্ষেত্রে নোটটিতে ১৯৫৭ সালের তৎকালীন এইচ. এম. প্যাটেলের (HM Patel) সাক্ষর থাকতে হবে এবং নোটের সিরিয়াল নম্বর ১২৩৪৫৬ হতে হবে।

Published by:Siddhartha Sarkar
First published: