Home /News /business /
Business Loan: ব্যবসায় অনেক কাজে লাগে বিজনেস লোন, দেখে নিন কী কী সুবিধা মেলে!

Business Loan: ব্যবসায় অনেক কাজে লাগে বিজনেস লোন, দেখে নিন কী কী সুবিধা মেলে!

ব্যবসার জন্য ঋণ নিলে অনেক সুবিধে৷ প্রতীকী ছবি

ব্যবসার জন্য ঋণ নিলে অনেক সুবিধে৷ প্রতীকী ছবি

সব ঠিকঠাক থাকলে বিজনেস লোন নেওয়ার সময় গ্রাহক বিশেষভাবে উপকৃত হন (Busibess Loan)।

  • Share this:

#নয়াদিল্লি: দেশের তরুণ প্রজন্ম ব্যবসার দিকে ঝুঁকছে। তৈরি হচ্ছে নিত্য নতুন স্টার্ট আপ। তবে শুধু তরুণ প্রজন্মই নয়, সমাজে এমন বহু মানুষ রয়েছেন যাঁরা নিজেদের মতো করে কিছু করতে চান। কিন্তু বাধ সাধে অর্থ। কোথা থেকে টাকা আসবে? কে বিনিয়োগ করবে? এই চিন্তা মনের মধ্যে ঘুরতে থাকে।

ব্যবসা বড় করার জন্যও টাকার দরকার। উৎপাদন বাড়ানোর জন্য নতুন মেশিন কিনতে বা নতুন ইউনিট খুলতে অর্থ এবং লোকবল দুইই প্রয়োজন। এক্ষেত্রে ব্যবসায়ীদের কাছে পুঁজি বৃদ্ধির আদর্শ উপায় হল বিজনেস লোন। ব্যবসা সংক্রান্ত আরও নানা প্রয়োজনে প্রি-অ্যাপ্রুভড ব্যবসায়িক লোন (Business Loan) পাওয়া যেতে পারে।

আরও পড়ুন: মাত্র ৪০০০ টাকা দিয়ে এই ব্যবসা শুরু করে প্রতি মাসে আয় করবেন ৮০,০০০ টাকা!

তবে যে কোনও ব্যবসায়িক লোনের জন্য আবেদন করার আগে সুদের হার, লোনের মেয়াদ, প্রসেসিং ফি এবং লোন নম্বর, ন্যূনতম আইটিআর শর্ত, কোম্পানির লেনদেন এবং ওভার ড্রাফটের সুবিধার মতো প্রোডাক্টের বৈশিষ্ট্য ভালোভাবে জেনে নেওয়া প্রয়োজন। ঋণদানকারী প্রতিষ্ঠানগুলি ব্যবসায়িক লোন দেওয়ার ক্ষেত্রে এই সমস্ত ছোট ছোট বিষয়ের উপরে বিশেষ গুরুত্ব দিয়ে থাকে। ফলে সব ঠিকঠাক থাকলে ব্যবসায়িক লোন নেওয়ার সময় গ্রাহক বিশেষভাবে উপকৃত হন।

ব্যবসায়িক লোনের সুবিধা

প্রতিযোগিতার যুগে ব্যবসাকে টিকিয়ে রাখতে নিত্যনতুন উদ্ভাবন প্রয়োজন। সেটাই ব্যবসাকে লাভজনক করে তোলে। কিন্তু দরকার অর্থ। সেই প্রয়োজন মেটায় ঋণ। ব্যবসায়িক ঋণে যেমন আর্থিক চাহিদা মেটে তেমনই ট্যাক্সেও নানা সুবিধা পাওয়া যায়। স্বল্প এবং দীর্ঘমেয়াদি, উভয় প্রয়োজনই এতে মেটে।

আরও পড়ুন: ৫০ হাজার টাকায় শুরু করুন এই ব্যবসা, প্রতি মাসে আয় করবেন ১ কোটি টাকা......

ব্যবসার বিস্তার

লোন পেলে নগদ ঢেলে ব্যবসা বাড়ানো যায়। সঙ্গে করা যায় মার্কেটিং। পণ্যকে সাধারণ মানুষের কাছে পৌঁছে দিতে দরকার বিজ্ঞাপন। ঋণ নিয়ে মার্কেটিংয়ের কাজ করা যায় খুব সহজেই। তাছাড়া বিজনেস লোনের মাধ্যমে কার্যকরী মূলধনের চাহিদাও মেটানো যায়।

নিজের নিয়ন্ত্রণে থাকে

অনেকেই পুঁজির চাহিদা মেটাতে অংশিদারিতে যান। এতে হয়ত এককালীন পুঁজির চাহিদা মেটে। কিন্তু ব্যবসায়িক সিদ্ধান্ত গ্রহণে তাঁদের হস্তক্ষেপ বাড়ার সম্ভাবনা থাকে। তাছাড়া লাভের ভাগও শেয়ারহোল্ডারকে দিতে হয়। অন্য দিকে, ব্যাঙ্ক বা এনবিএফসি মারফত ঋণ নিয়ে তা ব্যবসায় ঢাললে শুধু নিয়ন্ত্রণ নয়, লাভের অংশও একজনের হাতেই থাকবে।

ক্রেডিট স্কোর ভালো রাখতে হবে

গ্রাহকের ক্রেডিট স্কোর, ব্যবসায়িক অভিজ্ঞতা, বার্ষিক লেনদেনের অঙ্ক এবং ঋণগ্রাহক সুরক্ষিত নাকি অসুরক্ষিত ঋণ নিচ্ছেন, তার উপরে সুদের হার নির্ভর করে। তাই ঋণ সময়মতো পরিশোধ করা জরুরি। তাতে ক্রেডিট স্কোর ভালো থাকবে। ভবিষ্যতে প্রয়োজন হলে কম সুদে ঋণ পাওয়া যাবে।

First published:

Tags: Business, Business Loan, Loan

পরবর্তী খবর