• Home
  • »
  • News
  • »
  • astrology
  • »
  • DATE HISTORY SIGNIFICANCE PUJA VIDHI AND MUHURAT OF DURGA ASHTAMI TC DC

মাসিক দুর্গাষ্টমী: আজকের তিথিতেই কায়াধারণ করেছিলে দেবী, কোন পূজাপদ্ধতিতে প্রসন্ন করবেন তাঁকে?

মাসিক দুর্গাষ্টমী: আজকের তিথিতেই কায়াধারণ করেছিলে দেবী, কোন পূজাপদ্ধতিতে প্রসন্ন করবেন তাঁকে?

দুর্গমাসুরকে বধ করেছিলেন বলেই তাঁর নাম দুর্গা, কাত্যায়নের আশ্রমে জন্ম বলে তাঁর আরেক নাম কাত্যায়নী।

  • Share this:

#কলকাতা: অষ্টমী তিথিটি প্রকৃতপক্ষে দেবী দুর্গার আরাধনার জন্য শাস্ত্রে সর্বাধিক পুণ্যদায়ক বলে নির্দেশ করা হয়েছে। হিন্দুধর্মে বিশেষ বিশেষ দেব বা দেবীর উপাসনার জন্য নির্দিষ্ট কিছু তিথি থাকে, বলা হয় যে এই সকল তিথিগুলো তাঁদের অতীব প্রিয়। যেমন সিদ্ধিদাতা গণেশের প্রিয় চতুর্থী তিথি, বিষ্ণুর প্রিয় একাদশী তিথি, শিবের প্রিয় চতুর্দশী তিথি। তেমনই দেবী দুর্গার বিশেষ প্রিয় তিথিটি হল অষ্টমী। সেই জন্য চৈত্রে এবং শরতে যেমন নবরাত্রির সময়ে অষ্টমী তিথিটি মহাষ্টমী নামে পরিচিতি পেয়েছে, তেমনই রয়েছে প্রতি মাসের শুক্লপক্ষের অষ্টমী তিথিতে মাসিক দুর্গাষ্টমী ব্রত পালনের প্রথা। বলা হয়, এই শুক্লপক্ষের অষ্টমী তিথিতেই দেবতাদের সম্মিলিত তেজোপুঞ্জ থেকে কায়াধারণ করেছিলেন দেবী।

পুরাণ মতে, দুর্গার এই জন্মকথার সঙ্গে জড়িয়ে রয়েছে মহিষাসুর, মতান্তরে দুর্গমাসুরের নাম। এই অসুর দেবতাদের স্বর্গলোক থেকে বিতাড়িত করলে তার অত্যাচার থেকে সৃষ্টিকে রক্ষার জন্য দেবতারা শরণাপন্ন হয়েছিলেন ত্রিমূর্তি অর্থাৎ ব্রহ্মা, বিষ্ণু এবং শিবের। অতঃ পর এই তিন মহাশক্তি এবং অন্য দেবতাদের সম্মিলিত তেজোরাশি থেকে কাত্যায়ন ঋষির আশ্রমে আবির্ভূতা হয়েছিলেন দেবী, দুর্গমাসুরকে বধ করেছিলেন বলেই তাঁর নাম দুর্গা, কাত্যায়নের আশ্রমে জন্ম বলে তাঁর আরেক নাম কাত্যায়নী।

১৭ জুলাই ভোর ৪টে ৩৪ মিনিট থেকে শুরু হচ্ছে অষ্টমী তিথি, থাকবে ১৮ জুলাই রাত ২টো ৪১ মিনিট পর্যন্ত। তাই ব্রত উদযাপিত হবে ১৭ জুলাই। দেখে নেওয়া যাক কী ভাবে তা উদযাপন করতে হবে।

১. সকালে স্নান সেরে শুদ্ধ হয়ে নিতে হবে। ২. এর পর দেবী দুর্গার ছবির সামনে একটি বড় প্রদীপ জ্বেলে দিতে হবে যাতে তা পুরো অষ্টমী তিথি জ্বলতে থাকে। ৩. দেবীকে নিবেদন করতে হবে গোলাপি বা লাল ফুল, কলা, নারকেল, মিষ্টান্ন। ৪. এই ব্রত উদযাপনের দিন বাড়ি থেকে কোথাও বেরোনো যাবে না। ৫. সম্ভব হলে নির্জলা উপবাস, অন্যথায় ফল খেয়ে থাকতে হবে। ৬. এই তিথিতে শ্রীশ্রীচণ্ডী পাঠ এবং শ্রবণ বিশেষ ফলদায়ক।

Published by:Dolon Chattopadhyay
First published: