জন্মবার্ষিকী, তবু জুটল না একটা মালাও, অনাদরে ঈশ্বরচন্দ্র

Bangla Editor | News18 Bangla | 10:46:56 AM IST Sep 27, 2018

বিদ্যাসাগরের জন্মবার্ষিকীতে বিতর্কে বর্ধমান বিশ্ববিদ্যালয়। রাজ্যজুড়ে নানা জায়গায় বিদ্যাসাগরের জন্মদিন পালন হলেও বর্ধমান বিশ্ববিদ্যালয়ের বিদ্যাসাগর ভবনেই উপেক্ষিত বর্ণপরিচয়ের স্রষ্টা। ক্যাম্পাসে বিদ্যাসাগরের মূর্তিতে জন্মবার্ষিকীতে মালা দেওয়া দূরে থাক, ঝুলও পরিষ্কার হয় না নিয়মিত। ২৬শে সেপ্টেম্বর। ১৮২০ সালের এদিনই বীরসিংহ গ্রামে জন্মেছিলেন তিনি। বিদ্যাসাগরের জন্মবার্ষিকীর দিনই বিতর্কে বর্ধমান বিশ্ববিদ্যালয়। বর্ধমান বিশ্ববিদ্যালয়ের বিদ্যাসাগর ভবন। দামী পাথরে মোড়ে বিশাল ঝা চকচকে ভবন। অথচ বাঙালিকে যিনি অশিক্ষার অন্ধকার থেকে বার করেছিলেন, তিনিই জন্মবার্ষিকীতে পড়ে উপেক্ষার অন্ধকারে।
বর্ধমান বিশ্ববিদ্যালয়ের দূরশিক্ষা ভবনের সব কাজ এই বিদ্যাসাগর ভবনের ক্যাম্পাস থেকেই হয়। ভবনের সামনেই বিদ্যাসাগরের আবক্ষ মূর্তি। মূর্তির নীচে লেখা জন্ম-মৃত্যুর সন-তারিখও। অথচ বেলা গড়িয়ে গেলেও সেই মূর্তিতে দেওয়া হয়নি একটি মালাও। বিদ্যাসাগরের মূর্তিতে ঝুল পরিষ্কারেরও বোধহয় সময় পায়নি বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ। বিদ্যাসাগরের প্রতি বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষের এই উদাসীনতায় লজ্জিত পড়ুয়ারাও। বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষের সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে কোনও প্রতিক্রিয়া দিতে চাননি তাঁরা। বাঙালিকে জ্ঞানের আলো দেওয়া মানুষটাই আজ তাঁর প্রিয় শিক্ষাঙ্গনে পড়ে রইলেন অযত্নে, অবহেলায়।

লেটেস্ট ভিডিও