corona virus btn
corona virus btn
Loading

প্রবল জলোচ্ছ্বাসে মাঝ সমুদ্রে আটকে কয়েক হাজার ট্রলার

প্রবল জলোচ্ছ্বাসে মাঝ সমুদ্রে আটকে কয়েক হাজার ট্রলার
নিজস্ব চিত্র

জারি ছিল সতর্কতা ৷ ছিল কড়া নজরদারিও ৷ কিন্তু পেশার তাগিদে সমুদ্রে যেতে তো হবেই ! আর তাতেই গভীর সমুদ্রে ইলিশ ধরতে গিয়ে বিপাকে পড়লেন মৎস্যজীবীরা ৷

  • Share this:

#কাকদ্বীপ, দক্ষিণ চব্বিশ পরগণা: জারি ছিল সতর্কতা ৷ ছিল কড়া নজরদারিও ৷ কিন্তু পেশার তাগিদে সমুদ্রে যেতে তো হবেই ! আর তাতেই গভীর সমুদ্রে ইলিশ ধরতে গিয়ে বিপাকে পড়লেন মৎস্যজীবীরা ৷ প্রবল জলোচ্ছ্বাসে মাঝ সমুদ্রে আটকে কয়েক হাজার ট্রলার ৷

আরও পড়ুন: আগামী ৪৮ ঘণ্টায় তাপপ্রবাহে পুড়বে কলকাতা-সহ দক্ষিণবঙ্গ

প্রশাসনের কড়া নজরদারি এড়িয়ে কাকদ্বীপ থেকে কন্যামাতা ট্রলারে চেপে ১৬ জন মৎস্যজীবী মাঝ সমুদ্রে যান ৷ বুধবার সন্ধেতে কেঁদো দ্বীপের দক্ষিণে মাছ ধরার সময় শুরু হয় তুমুল ঝড় বৃষ্টি ৷ ঝড়ের দাপটে ঢেউয়ের ঝাপটায় উল্টে যায় ট্রলার ৷ শুধুমাত্র কন্যামাতাই নয় ৷ সরকারি নিষেধাজ্ঞাকে বুড়ো আঙুল দেখিয়ে এমন ভাবেই ট্রলারে চেপে মাছ ধরতে যান মৎস্যজীবীরা ৷ কাকদ্বীপ ও বকখালি সংলগ্ন বেশরভাগ মৎস্যজীবীই আপাতত মাঝ সমুদ্রে আটকে পড়েছেন ৷ ভরা কোটালের জেরে প্রবল জলোচ্ছ্বাসের কারণে মাঝ সমুদ্রেই আটকে পড়েছে হাজারের বেশি ট্রলার ৷

আবহাওয়া প্রতিকূল থাকায় সমুদ্রে যেতে ফের নতুন করে নিষেধাজ্ঞা জারি করা হল ম‍ৎস্যজীবীদের উপর ৷ সমুদ্রে যেতে নিষেধাজ্ঞায় চিন্তায় মৎস্যজীবীরা ৷ ২ মাস পর গতকাল সমুদ্রে যাওয়ার অনুমতি মেলে ৷ ২৪ ঘণ্টার মধ্যে ফের নিষেধাজ্ঞা জারি ৷

First published: June 16, 2018, 4:51 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर