বর্ধমান স্টেশনের ভেঙে পড়া বিল্ডিংয়ের সামনে শুরু সেলফি তোলার হিড়িক

বর্ধমান স্টেশনের ভেঙে পড়া বিল্ডিংয়ের সামনে শুরু সেলফি তোলার হিড়িক
  • Share this:

Saradindu Ghosh #বর্ধমান: বর্ধমান রেল স্টেশনের ভেঙে পড়া বিল্ডিংয়ের সামনে সেলফি তোলার হিড়িক। ভেঙে পড়া পোর্টিকো সহ বিল্ডিংকে ব্যাক গ্রাউন্ডে রেখে সেলফি উঠছে পটাপট। সেই হিড়িকে গা ভাসিয়েছেন টিন এজার থেকে মাঝবয়সী সকলেই।

নিত্যযাত্রীরা বলছেন, রেলের উদাসীনতার কারনেই ভেঙে পড়ল ইতিহাস প্রাচীন এই বিল্ডিং। শনিবার রাত আটটার পর বিল্ডিং ধসে পড়ার ঘটনা ঘটে। শনিবার রাত থেকেই সংবাদ মাধ্যম, সোসাল মিডিয়ায় সেই ছবি, ভিডিও দেখছেন নিত্যযাত্রীরা। সোমবার কর্মসূত্রে বর্ধমান স্টেশনে ঢোকা বেরনোর পথে তাঁরা ভেঙে পড়া বিল্ডিং স্বচক্ষে দেখলেন। বেশিরভাগেই মত, রেলের গাফিলতিতেই ভেঙে পড়ল বিল্ডিং।

চন্দননগরের বাসিন্দা অরুন মুখোপাধ্যায় নিত্য রেল যাত্রী। সপ্তাহে পাঁচটি দিন বর্ধমানে যাতায়াত করতে হয়। তিনি জানালেন, শুক্রবারও দেখেছি পোর্টিকোর থামে বাঁশের কাঠামোর ওপর দাঁড়িয়ে রাজমিস্ত্রিরা হাতুড়ির ঘা মারছিল। স্টাইল বসানোর জন্য থামের গা মেসিন দিয়ে কাটা হচ্ছিল। অপরিকল্পিতভাবে সেসব কাজ হওয়ার জন্যই হয়তো বিল্ডিং ধসে পড়েছে।

2542_IMG-20200106-WA0003

গুসকরার বাসিন্দা অমিয় হাজরা বললেন, বিল্ডিং মেরামতিতে রেলের গাফিলতি স্পষ্ট। রঙ করে টাইলস বসিয়ে সৌন্দর্যায়ন করা হচ্ছিল। অথচ প্রাচীন বিল্ডিংয়ের ভেতর যে ফোঁপড়া হয়ে গিয়েছিল তা কেন টের পেলেন না রেলের ইঞ্জিনিয়াররা?

বিল্ডিংয়ের বর্তমান প্রকৃত অবস্থা কি জানতে ইতিমধ্যেই খড়গপুর আইআইটির তিন বিশেষজ্ঞকে দায়িত্ব দিয়েছে রেল। এছাড়াও বিল্ডিং হুড়মুড়িয়ে ভেঙে পড়ার কারণ অনুসন্ধানে তিন সদস্যের তদন্ত কমিটি গড়া হয়েছে। কিন্তু বিল্ডিংয়ের প্রকৃত অবস্থা জানার আগেই এক নম্বর প্লাটফর্মে ট্রেন চলাচল শুরু হয়ে যাওয়ায় নিরাপত্তা নিয়ে প্রশ্ন তুলেছেন যাত্রীরা। তাঁরা বলছেন, পুরনো বিল্ডিংয়ের ওপরই এক নম্বর প্লাটফর্ম। সেই বিল্ডিংয়ের সামনের অংশ ভেঙে পড়লে পেছনের অংশ ভেঙে পড়বে না সে নিশ্চয়তা কোথায়। সেই আশংকা সত্যি হলে এক নম্বর প্লাটফর্মে বহু যাত্রীর প্রানহানি ঘটে যেতে পারে।

2542_IMG-20200106-WA0002

রেল কর্তৃপক্ষ অবশ্য জানিয়েছে, এক নম্বর প্লাটফর্মে এই মুহূর্তে বিপদের কোনও সম্ভাবনা নেই। মূল প্রবেশ দ্বার বন্ধ রাখা হলেও অন্য দুটি রাস্তা দিয়ে এক নম্বর প্লাটফর্মে ঢোকা বের হওয়া যাচ্ছে। যাত্রী ভিড় সামাল দিতে বাড়তি পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।

এদিন ভেঙে পড়া পোর্টিকো সহ বিল্ডিংয়ের সামনের ব্যারিকেড ছোট করা হয়েছে। মূল প্রবেশ দ্বারের ডানপাশ দিয়ে টিকিট কাউন্টারে ঢোকার রাস্তা খুলে দেওয়া হয়েছে। সহজেই এখন যাত্রীরা সেই পথ দিয়ে ভেঙে পড়া বিল্ডিংয়ের কাছে যেতে পারছেন। মোবাইল ক্যামেরায় সেই বিল্ডিংয়ের ছবি তুলছেন অনেকেই।

First published: January 6, 2020, 2:12 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर