রাজ্যের জন্য Corona Vaccine-এর দাম বেশি কেন! যুক্তি দিল Serum Institute

রাজ্যের জন্য Corona Vaccine-এর দাম বেশি কেন! যুক্তি দিল Serum Institute

প্রশ্ন উঠছে, বিপদের সময় সারা দেশে ভ্যাকসিনের দাম কেন সমান হবে না!

প্রশ্ন উঠছে, বিপদের সময় সারা দেশে ভ্যাকসিনের দাম কেন সমান হবে না!

  • Share this:

    #নয়াদিল্লি: Covishield vaccine-এর খোলা বাজারে দামের তারতম্য নিয়ে ইতিমধ্যে প্রশ্ন উঠতে শুরু করেছে। কেন্দ্রের জন্য দাম কম। কিন্তু রাজ্যকে সেই একই ভ্যাকসিন কিনতে হবে দ্বিগুণেরও বেশি দাম দিয়ে। আবার বেসরকারি হাসপাতাল বা নার্সিংহোমের ক্ষেত্রে ভ্যাকসিনের দাম তিনগুণেরও বেশি। এমন দ্বিচারিতা কেন! সিরাম ইনস্টিটিউট অফ ইন্ডিয়ার তরফে জানানো হয়েছিল, Covishield vaccine কেন্দ্র পাবে ১৫০ টাকায়। কিন্তু রাজ্য ও বেসরকারি হাসপাতালের ক্ষেত্রে এই ভ্যাকসিনের দাম হবে যথাক্রমে ৪০০ ও ৬০০ টাকা। তার পর থেকেই প্রশ্ন উঠছে, বিপদের সময় সারা দেশে ভ্যাকসিনের দাম কেন সমান হবে না! এবার নিজেদের পক্ষে যুক্তি সাজাল সিরাম ইনস্টিটিউট।

    পয়লা মে থেকে দেশজুড়ে ১৮ বছরের বেশি বয়সী সবাইতে টিকা দেওয়া হবে। এরই মধ্যে সিরাম-এর তরফে জানানো হয়েছে, ভ্যাকসিনের দাম নিয়ে ভারতের বাজার ও আন্তর্জাতিক স্তরে যে তুলনা হচ্ছে তা অর্থহীন। সিরামের দাবি, কোভিশিল্ড এখনও পর্যন্ত খোলা বাজারে বিক্রি হওয়া সব থেকে সস্তা ভ্যাকসিন। সংস্থার তরফে এক বিবৃতিতে বলা হয়েছে, সীমিত সংখ্যায় ভ্যাকসিন বেসরকারি হাসপাতালগুলিকে ৬০০ টাকা করে দেওয়া হবে। কোভিডের মতো প্রাণঘাতী ভাইরাসের সংক্রমণ রোধে ব্যবহৃত ভ্যাকসিন হিসাবে কোভিশিল্ডের দাম তুলনামূলক কম। প্রথম থেকেই টিকার দাম খুব কম রাখা হয়েছিল। কারণ এই ভ্যাকসিনের উত্পাদনের জন্য অনেক দেশ অ্যাডভান্স ফান্ডিং করেছিল।

    সিরাম-এর সিইও আদার পুনাওয়ালা জানিয়েছেন, পাঁচ দশক ধরে ভ্যাকসিন উত্পাদন করছে তাঁর সংস্থা। কখনওই টিকার দাম মাত্রাতিরিক্ত রাখা হয়নি। আন্তর্জাতিক ও ভারতীয় বাজারের নিরিখে কোভিশিল্ডের দামের তুলনা ভিত্তিহীন বলেও দাবি করেছেন তিনি। শুরু থেকেই এই ভ্যাকসিনের দাম নুন্যতম রাখা হয়েছিল বলে দাবি করেছেন আদার পুনাওয়ালা।

    তিনি জানিয়েচেন, প্রতিরক্ষা কর্মসূচি হিসাবে ভ্যাকসিন উত্পাদন শুরু হয়েছিল। তাই শুরু থেকেই ভ্যাকসিনের দাম কম ছিল।
    Published by:Suman Majumder
    First published:

    লেটেস্ট খবর