কৃষকদের সমর্থনে গ্রেটার শেয়ার করা 'টুলকিট'-এর ঘটনায় গ্রেফতার ২১ বছরের তরুণী

কৃষকদের সমর্থনে গ্রেটার শেয়ার করা 'টুলকিট'-এর ঘটনায় গ্রেফতার ২১ বছরের তরুণী
কৃষকদের সমর্থনে টুইটার একটি টুলকিট শেয়ার করেছিলেন আন্তর্জাতিক পরিবেশকর্মী গ্রেটা থুনবার্গ। সেই টুলকিট প্রচারের সঙ্গে যুক্ত ২১ বছরের এক তরুণী পরিবেশকর্মীকে গ্রেফতার করল দিল্লি পুলিশ। তরুণীর নাম দিশা রবি।

কৃষকদের সমর্থনে টুইটার একটি টুলকিট শেয়ার করেছিলেন আন্তর্জাতিক পরিবেশকর্মী গ্রেটা থুনবার্গ। সেই টুলকিট প্রচারের সঙ্গে যুক্ত ২১ বছরের এক তরুণী পরিবেশকর্মীকে গ্রেফতার করল দিল্লি পুলিশ। তরুণীর নাম দিশা রবি।

  • Share this:

    #বেঙ্গালুরু: কৃষকদের সমর্থনে টুইটার একটি টুলকিট শেয়ার করেছিলেন আন্তর্জাতিক পরিবেশকর্মী গ্রেটা থুনবার্গ। সেই টুলকিট প্রচারের সঙ্গে যুক্ত ২১ বছরের এক তরুণী পরিবেশকর্মীকে গ্রেফতার করল দিল্লি পুলিশ। তরুণীর নাম দিশা রবি। 'ফ্রাইডে ফর ফিউচার' নামক ক্যাম্পেন যাঁরা শুরু করেছিলেন তাঁদের মধ্যে তিনি একজন। অভিযোগ গ্রেটার শেয়ার করা টুলকিটটি দিশা এডিট করেছিলেন কৃষক আন্দোলনের সমর্থনে কথা বলার জন্য।

    ২১ বছরের দিশা বেঙ্গালুরুর অন্যতম কলেজ মাউন্ট কারমেল কলেজের পড়ুয়া। বেঙ্গালুরু থেকেই তাঁকে গ্রেফতার করা হয়। দিল্লি পুলিশের অভিযোগ ছিল পোয়েটিক জাস্টিস ফাউন্ডেশন নামে একটি গ্রুপ এই টুলকিট তৈরি করেছিল। এই গ্রুপটি নাকি আসলে কয়েকজন খালিস্তানিদের নিয়ে তৈরি।

    গত ৪ ফেব্রুয়ারি গ্রেটা থুনবার্গ এই টুলকিট শেয়ার করায় দিল্লি পুলিশ তাঁর বিরুদ্ধেও অভিযোগ দায়ের করে। ২৬ জানুয়ারি কৃষক ও পুলিশদের মধ্যে রাজধানী জুড়ে অশান্তি তৈরি হয়। এর পরেই আন্তর্জাতিক ব্যক্তিত্বরা কৃষকদের সমর্থনে কথা বলেন। তাঁদের মধ্যে একজন গ্রেটা থুনবার্গ। গ্রেটা সহ আরও বেশ কয়েকজন বিদেশি ব্যক্তিত্বের টুইটের পরেই আন্তর্জাতিক স্তরেও প্রভাব ফেলে কৃষক আন্দোলন।


    গ্রেটা টুইট করেন, আমরা ভারতের কৃষকদের সঙ্গে রয়েছি। গ্রেটা সঙ্গে একটি টুলকিট শেয়ার করেন যার দ্বারা আন্দোলনকারীদের সমর্থন করা যাবে বলে জানান তিনি। এর পরেই ভারতের কেন্দ্রীয় সরকার নড়েচড়ে বসে। কড়া বার্তা দিয়ে বিবৃতি প্রকাশ করে কেন্দ্রীয় সরকার। বিবৃতিতে বলা হয়, বিষয়টি সম্পর্কে পুরোপুরি বোঝাপড়া তৈরি করে এবং সবকিছু যাচাই করেই মন্তব্য করা উচিত। কারণ সেলেব্রিটিদের দ্বারা চাঞ্চল্যকর সোশ্যাল মিডিয়া পোস্ট ও হ্যাশট্যাগ দিয়ে উত্তেজনা তৈরি করা মোটেই দায়িত্বপূর্ণ ও কাজ নয়। এতে ভুল বার্তা ছড়াবে।

    Published by:Swaralipi Dasgupta
    First published: