corona virus btn
corona virus btn
Loading

ধর্মঘটে সচল থাকবে পরিবহণ ব্যবস্থা

ধর্মঘটে সচল থাকবে পরিবহণ ব্যবস্থা

বিমা থাকছে প্রায় ১ কোটি ৩ লক্ষ টাকার। থাকবে পর্যাপ্ত নিরাপত্তা ব্যবস্থা। বেসরকারি পরিবহণ সংগঠন গুলিকে আশ্বাস রাজ্যের।

  • Share this:

Abir Ghoshal

#কলকাতা: ধর্মঘটের দিনে অফিসে পরিবহণের জন্য না আসতে পারার কারণ মানবে না রাজ্য সরকার। বুধবার গোটা রাজ্য জুড়েই বাস, ট্যাক্সি, অটো মিলবে বলে জানিয়ে দিল রাজ্য সরকার। এছাড়া অতিরিক্ত ৫০০ সরকারি বাস থাকবে বলে জানানো হয়েছে।

সোমবারই রাজ্য পরিবহণ দফতর বৈঠক করেছে বেসরকারি বাস-মিনিবাস, ট্যাক্সি, অ্যাপ ক্যাব এবং অটো ইউনিয়নগুলির সঙ্গে। সেখানে তাদের প্রত্যেককে রাস্তায় যানবাহন নামানোর নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। যথাযথ নিরাপত্তা ব্যবস্থা থাকবে বলে জানানো হয়েছে পরিবহণ দফতরের তরফ থেকে।

ধর্মঘটের দিন বাস, অটো ও ট্যাক্সি পরিষেবা সচল রাখতে বৈঠক করল রাজ্য পরিবহণ দফতর। ধর্মঘট মোকাবিলায় সোমবারই সমস্ত বেসরকারি বাস মালিক অ্যাসোসিয়েশনকে ডেকে কথা বলা হয়েছে।যদিও তাদের তরফ থেকে পরিবহণ দফতরকে জানানো হয়েছে যদি অশান্তির কারণে তাদের গাড়ির কোনও ক্ষতি হয় তার দায় কে নেবে? রাজ্য সরকারের তরফ থেকে তাদের জানিয়ে দেওয়া হয়েছে, ধর্মঘটের দিন অশান্তির আশঙ্কায় ১ কোটি ৩ লক্ষ টাকা বিমা করানো হয়েছে। এছাড়া রাস্তায় পর্যাপ্ত পুলিশ থাকবে।

অন্যদিকে তিন সরকারি পরিবহণ নিগমও তাদের হাতে থাকা সমস্ত বাস রাস্তায় নামাবে। পশ্চিমবঙ্গ রাজ্য পরিবহণ নিগম হাওড়া, ধর্মতলা ও শ্যামবাজার থেকে বিশেষ বাস চালাবে। বাসের সংখ্যা বাড়ানো হচ্ছে বেহালা ও খিদিরপুর থেকে। বেশি করে বাস চালানো হবে হাওড়া থেকে যাদবপুরের মধ্যেও। পরিবহণ নিগমের হাতে থাকা যে সমস্ত বাস রক্ষণাবেক্ষণের জন্য প্রতিদিন ডিপোতে থাকে সেগুলিকেও রাস্তায় নামানো হচ্ছে।

শিয়ালদহ ও হাওড়া স্টেশনেও থাকবে ট্যাক্সি। যদিও এ আই টি ইউ সি ও সিটু তাদের ট্যাক্সি নামাবে না বলে জানিয়ে দিয়েছে। যদিও রাজ্যের দাবি তাতে অসুবিধা হবে না। কারণ হাওড়া স্টেশন চত্বরে তাদের বাস পর্যাপ্ত থাকবে ভোর পাঁচটা থেকে।

রাজ্য পরিবহণ নিগম চালাবে ১১৫০ টি বাস। সাধারণ দিনে তারা বাস চালায় ৯০০টি। দক্ষিণবঙ্গ রাষ্ট্রীয় পরিবহণ নিগম চালাবে ৮২৬টি বাস।সাধারণ দিনে তারা চালায় ৬৯২ টি বাস। উত্তরবঙ্গ পরিবহণ নিগম বাস চালাবে ৬৫৫টি। সাধারণ দিনে চলে ৬০৫টি বাস। সমস্ত বাস যা রাস্তায় নামবে তা বিমার আওতায় আনা হয়েছে। সর্বাধিক ৬ লক্ষ টাকা পর্যন্ত তারা বিমা পাবেন।

এছাড়া রাজ্য পরিবহণ নিগম তৈরি করছে একটা কন্ট্রোল রুম। যার নম্বর হচ্ছে যে কোনও সহায়তার জন্য-

ম্যাঙ্গো লেন ০৩৩২২৬২৫৪০৯ কসবা - ০৩৩২৪৪২০২৭৮ বেলতলা - ০৩৩২৪৭৫১৬২১ এছাড়া থাকছে ১৮০০ ৩৪৫৫ ১৯২ যেকোনও সমস্যায় হোয়াটসঅ্যাপ করা যাবে ৮৯০২০১৭১৯১ নম্বরে

শহরের বিভিন্ন প্রান্তে থাকবে অ্যাপ ক্যাবও। অ্যাপ ক্যাব যাতে সারচার্জ বেশি না নেয় তার দিকে নজরও রাখবে রাজ্য সরকার। অটো ইউনিয়নের তরফ থেকে অবশ্য জানিয়ে দেওয়া হয়েছে শহরে তাদের সমস্ত অটোই রাস্তায় নামবে।

রেলের তরফ থেকেও জানানো হয়েছে ট্রেন পরিষেবা ব্যবস্থা যাতে সচল থাকে সেদিকে তারা নজর দিচ্ছেন। শেওড়াফুলি, বালি, মেমারি, বারুইপুর, বালিগঞ্জ, নৈহাটি, বেলঘডিয়া-সহ বেশ কয়েকটি স্টেশনে থাকবে টাওয়ার ভ্যান। একই সঙ্গে বিভিন্ন স্টেশনে মোতায়েন রাখা হচ্ছে আর পি এফ। বিশেষ করে নজর রাখা হচ্ছে শিয়ালদহ দক্ষিণ শাখায়।

Published by: Siddhartha Sarkar
First published: January 7, 2020, 1:41 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर