• Home
  • »
  • News
  • »
  • kolkata
  • »
  • PRACHI CINEMA HALL STARTS A NEW JOURNEY WITH A COMPLETE MAKEOVER ARC

Prachi Cinema Hall : সাবেকিয়ানার আমেজে নতুন রূপে আবার যাত্রা শুরু করল সত্তরোর্ধ্ব প্রাচী প্রেক্ষাগৃহ

নতুন রূপে ধরা দিল সত্তরোর্ধ্ব এই প্রেক্ষাগৃহ

কলকাতার সিঙ্গলস্ক্রিন প্রেক্ষাগৃহের গত কিছু বছরের চেনা ছবিট পাল্টে দিল ‘প্রাচী’ (Prachi Cinema Hall)

  • Share this:

    কলকাতা : একে একে নিভিছে দেউটি-কলকাতার সিঙ্গলস্ক্রিন প্রেক্ষাগৃহের গত কিছু বছরের চেনা ছবিট পাল্টে দিল ‘প্রাচী’ (Prachi Cinema Hall) ৷ মধ্য কলকাতায় শিয়ালদা স্টেশনের কাছে আইকনিক এই প্রেক্ষাগৃহ নতুন জীবন লাভ করল ৷ নতুন রূপে ধরা দিল সত্তরোর্ধ্ব এই প্রেক্ষাগৃহ ৷

    শত প্রতিকূলতাতেও ‘প্রাচী’ বন্ধ করবেন না ৷ বিক্রিও করবেন না৷  বদ্ধ পরিকর ছিলেন কর্ণধার বিদিশা বসু ৷ কথা রেখেছেন তিনি ৷ মাল্টিপ্লেক্সের দাপটের মাঝে প্রাচী স্বমহিমায় থাকল নিজের জায়গাতেই ৷

    ঘূর্ণিঝড় আমফানে ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছিল প্রাচী ৷ তার উপর অতিমারি তো ছিলই ৷ দর্শকশূন্য দ্বিতীয় তরঙ্গের লকডাউনেই প্রাচী প্রেক্ষাগৃহ সংস্কার করা হয় ৷ পুজোর আগেই খুলে গেল হলের দরজা ৷

    ১৯৪৮ সালে, এক বছর বয়সি স্বাধীন ভারতে প্রাচী যাত্রা শুরু করেছিল ৷ বিদিশার ঠাকুরদা জিতেন্দ্র বসুর হাত ধরে ৷ একাধিক মাইলফলক ছবির মুক্তির সাক্ষী এই প্রেক্ষাগৃহকে সময়ের সঙ্গে তাল মিলিয়ে যুগোপযোগী সাজে সাজালেন জিতেন্দ্রর উত্তরসূরি, বিদিশা ৷

    নতুন প্রাচী-র সিঁড়িতে লাল গালিচা ৷ আসনে আরামদায়ক গদি ৷ প্রতি আসনে প্রেক্ষাগৃহের ছাপ ৷ আধুনিকতার মোড়কে নতুন রূপের প্রাচী শীতাতপ নিয়ন্ত্রিত ৷

    ‘মুখোশ’ ও ‘বেলবটম’ নিয়ে নতুন উড়ান শুরু করল প্রাচী ৷ পরের সপ্তাহে যোগ হবে ‘চেহরে’ ৷ কোভিডবিধি মেনে আপাতত দৈনিক চারটি শো প্রদর্শিত হবে ৷ ছবি প্রদর্শনের সময় সকাল ১১.৩০, দুপুর ২, বিকেল ৪.৩০ এবং সন্ধ্যা ৬.৪৫ ৷ তবে প্রতি সপ্তাহে এই সময় পরিবর্তন হবে ৷ বাংলায় ছাপানো টিকিট যে প্রেক্ষাগৃহের বৈশিষ্ট্য ছিল, সেখানে এখন মোবাইলেই অনলাইন টিকিট দেখিয়ে ঢুকতে পারবেন দর্শকরা ৷

    প্রাচী-র নতুন যাত্রায় উচ্ছ্বসিত পরিচালক শিবপ্রসাদ মুখোপাধ্যায় ৷ প্রেক্ষাগৃহের নতুন রূপের ছবি শেয়ার করে তিনি ধন্যবাদ জানিয়েছেন বিদিশা বসুকে ৷ প্রাচী-তে সকলকে আমন্ত্রণ জানিয়েছেন শিবপ্রসাদ ৷

    সাত দশকের প্রাচীন এই বৈগ্রাহিক প্রেক্ষাগৃহ সাবেকিয়ানার আমেজ বজায় রেখেই সেজেছে নব কলেবরে ৷ সিঙ্গলস্ক্রিনের মরা গাঙে জোয়ার আনল প্রাচী, মনে করছেন চলচ্চিত্রপ্রেমী তথা নেটিজেনরা ৷

    Published by:Arpita Roy Chowdhury
    First published: