কলকাতা

corona virus btn
corona virus btn
Loading

মেট্রোর ই-পাসে এখন আরও বড় ছাড়! সপ্তাহান্তে পাস ছাড়াই করা যাবে যাতায়াত

মেট্রোর ই-পাসে এখন আরও বড় ছাড়! সপ্তাহান্তে পাস ছাড়াই করা যাবে যাতায়াত

মেট্রো জানিয়েছে ধীরে ধীরে ই-পাস ব্যবস্থা সপ্তাহে বাকি দিনেও ধাপে ধাপে প্রত্যাহার হবে।

  • Share this:

ABIR GHOSHAL

#কলকাতা: ক’দিন আগেই রবিবার ই-পাস ছাড়া যাতায়াতে ছাড় দিয়েছিল মেট্রো কর্তৃপক্ষ। এ বার সেই আওতায় আনা হল শনিবারকেও। শনিবারও মেট্রোয় যাতায়াতের ক্ষেত্রে সারাদিন কোনও ই-পাস লাগবে না বলে মঙ্গলবারই এই মর্মে নির্দেশিকা দিল মেট্রো কর্তৃপক্ষ। উল্লেখ্য, অফিস টাইম বাদে অন্যসময় ই-পাস বন্ধ করার পরিকল্পনা করছে মেট্রো কর্তৃপক্ষ। তবে স্মার্ট কার্ড বাধ্যতামূলক। ক’দিন আগেই মেট্রো কর্তৃপক্ষ বিজ্ঞপ্তি জারি করে জানায়, সোম থেকে শনিবার সকাল সাড়ে আটটা থেকে ১১টা এবং বিকেল ৫টা থেকে আটটা পর্যন্ত ই-পাস লাগবে। বাকি সময় কোনও ই-পাস লাগবে না। রবিবার সারাদিনের জন্য ই-পাসে ছাড় দেওয়া হয়। এ বার শনিবারও পুরো দিনের জন্য ছাড় দেওয়া হল।

লকডাউনে বন্ধ থাকার পর গত ১৪ সেপ্টেম্বর থেকে কলকাতায় চালু হয় মেট্রো পরিষেবা। আনলক পর্বে মেট্রোরেল চালুর হতেই ই-পাসের মাধ্যমে আগে থেকে সিট বুক করে যাত্রীদের যাতায়াতের ব্যবস্থা করেছিল মেট্রো কর্তৃপক্ষ। কিন্তু অনেকেই স্মার্টফোন ব্যবহার করেন না, করলেও তা থেকে কী ভাবে টিকিট বুক করবেন, বুঝতে সমস্যা হয়। নিত্যযাত্রীদের তরফে এমন নানা সমস্যার কথা জানতে পেরে যাতায়াতের পদ্ধতি ধাপে ধাপে সরল করে মেট্রো কর্তৃপক্ষ। প্রথমে বয়ষ্ক, তারপর মহিলা ও শিশুদের জন্য ই-পাস তুলে দেওয়া হয়। এ বার ধীরে ধীরে সেই আওতায় আসছেন সাধারণ যাত্রীরাও।

মেট্রো কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে, রবিবার ১৯ ডিসেম্বর থেকে বাড়ছে ট্রেনের সংখ্যা। আগে সারাদিনে ৬৮টি ট্রেন চলত, এখন ১০২টি ট্রেন পাওয়া যাবে। ২০ মিনিটের বদলে ১৫ মিনিট অন্তর মিলবে মেট্রো। এ ছাড়া মেট্রোর সময়ও বদলাচ্ছে। রবিবার সকাল ১০টার বদলে সকাল ৯টা থেকে পাওয়া যাবে নোয়াপাড়া ও কবি সুভাষ থেকে। নোয়াপাড়া থেকে শেষ ট্রেন রাত ৮.৫৩র পরিবর্তে পাওয়া যাবে রাত ৯.২৫এ। দমদম ও কবি সুভাষ থেকে রাত ৯টার পরিবর্তে পাওয়া যাবে রাত ৯.৩০এ। মেট্রো জানিয়েছে ধীরে ধীরে ই-পাস ব্যবস্থা সপ্তাহে বাকি দিনেও ধাপে ধাপে প্রত্যাহার হবে।

Published by: Simli Raha
First published: December 17, 2020, 7:21 AM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर