Home /News /kolkata /
Cloudphysician: ভার্চুয়াল আইসিইউ কেয়ার; প্রযুক্তি আর অভিজ্ঞ চিকিৎসকের তত্ত্বাবধানে রোগীর পরিষেবায় বদ্ধপরিকর শহর

Cloudphysician: ভার্চুয়াল আইসিইউ কেয়ার; প্রযুক্তি আর অভিজ্ঞ চিকিৎসকের তত্ত্বাবধানে রোগীর পরিষেবায় বদ্ধপরিকর শহর

এই সংগঠন দেশের নানা রাজ্যে ইতিমধ্যেই ভার্চুয়াল আইসিইউ কেয়ারের ক্ষেত্রে নজির গড়েছে। ক্লাউডফিজিসিয়ানের এ ব্যাপারে সহায় তাদের উন্নততর প্রযুক্তি RADAR।

  • Share this:

#কলকাতা: চিকিৎসকরা যতই আপ্রাণ চেষ্টা করুন না কেন, দেশের চিকিৎসা পরিষেবা নিয়ে এখনও যথেষ্ট অভিযোগ কান পাতলেই শোনা যায়। শহর যদি এব্যাপারে পরিষেবার পর্যাপ্ত উদ্যোগের দিকে আঙুল তোলে, তাহলে গ্রাম এবং আরও প্রত্যন্ত এলাকার ছবিটা বেশ আশঙ্কাজনক- সেখানে চিকিৎসা পরিষেবা নামে কিছু নেই বলেই মুখর হন বাসিন্দারা (Cloudphysician)।

সত্যি বলতে কী, এব্যাপারে দায় একতরফা চিকিৎসকদের উপরে চাপিয়ে দেওয়াও যায় না। তাঁরা তাঁদের সাধ্যমতো চেষ্টা করেন ঠিকই, কিন্তু দেশের বিপুল জনসংখ্যার দিকে যদি চোখ রাখা যায়, স্বীকার করতেই হয় যে এক্ষেত্রে মানুষের সামর্থ্য হার মানতে বাধ্য! কেন না, একজন চিকিৎসক তাঁর সবটুকু দিয়ে ২৪ ঘণ্টা পরিশ্রম করে চললেও সব রোগীর পাশে সমান ভাবে থাকা তাঁর পক্ষে সম্ভব নয়, একই কথা প্রযোজ্য় চিকিৎসাখাতের অন্য কর্মীদের ক্ষেত্রেও। কিন্তু এই সমস্যা দূর করতে বদ্ধপরিকর মেডিকা সুপারস্পেশালিটি হাসপাতাল (Medica Superspeciality Hospitals) গ্রুপ। কলকাতার তো বটেই, পাশাপাশি পূর্ব ভারতের এক বিপুল সংখ্যক আশঙ্কাজনক অবস্থায় থাকা রোগী, যাঁদের রাখা হয়েছে ইনটেনসিভ কেয়ার ইউনিট বা আইসিইউ-তে, তাঁদের প্রায় সবার চিকিৎসাই যদি একসঙ্গে করা যায়, তাহলে কেমন হয়?

আরও পড়ুন-পুরুষরা অবাক হবেন নিজের ক্ষমতায়, নারীর লাবণ্য বাড়বে বহু গুণ! দুধ-খেজুরের উপকারিতা জানেন কি?

শুনতে অবাক লাগলেও মেডিকা এই সঙ্কল্পে এবার হাত মিলিয়েছে চিকিৎসা সংগঠন ক্লাউডফিজিসিয়ানের (Cloudphysician) সঙ্গে। এই সংগঠন দেশের নানা রাজ্যে ইতিমধ্যেই ভার্চুয়াল আইসিইউ কেয়ারের ক্ষেত্রে নজির গড়েছে। ক্লাউডফিজিসিয়ানের এ ব্যাপারে সহায় তাদের উন্নততর প্রযুক্তি RADAR। এই প্রযুক্তির সাহায়্যে একজন চিকিৎসক একই সঙ্গে বিপুল সংখ্যক আইসিইউ রোগীর তত্ত্বাবধান করতে পারবেন। এই প্রযুক্তির সাহায্যে তিনি রিয়েল টাইমে অনেক রোগীর ডেটা চেক করতে পারবেন, পাবেন ক্লাউডফিজিসিয়ানের অভিজ্ঞ চিকিৎসাকর্মীদের পরামর্শও।

সেই মতো বিপদের মুহূর্তে শুধু দরকার হবে নির্দেশ পাঠানোর- সেই নির্দেশ মেনে কাজ করলেই আইসিইউ রোগীদের যথাযথ পরিষেবা প্রদান সম্ভব হবে। একথা জোর দিয়ে বলছেন ক্লাউডফিজিসিয়ানের সহপ্রতিষ্ঠাতা ডা. দিলীপ রমণ (Dr. Dileep Raman)। তিনি জানিয়েছেন যে এই ভআর্চুয়াল আইসিইউ পরিষেবার মাধ্যমে ইতিমধ্যেই দেশের ৭০টি হাসপাতালের প্রায় ৪০ হাজার আশঙ্কাজনক রোগীকে মৃত্যুর মুখ থেকে ফিরিয়ে আনা সম্ভব হয়েছে।

আরও পড়ুন-লিঙ্গশৈথিল্যের মোক্ষম প্রতিকার, যৌনজীবনে ঝড় তুলবে স্রেফ একমুঠো বাদাম!

এই পরিষেবা এবার যুক্ত হল মেডিকার সঙ্গে। জানা গিয়েছে যে মেডিকার সবক'টি হাসপাতাল তো বটেই, পাশাপাশি মেডিকার সঙ্গে যুক্ত অন্য বেশ কিছু হাসপাতালও এই পরিষেবার সুবিধা পাবে। সব মিলিয়ে, পূর্ব ভারতের আইসিইউ কেয়ারে এবার এসে পড়েছে প্রযুক্তি আর আশার নতুন আলো। ডা. অবিরল রায় (Dr. Aviral Roy), মেডিকার কনসালটেন্ট-ইন্টেনসিভিস্টের দাবি, ক্লাউডফিজিসিয়ানের RADAR প্রযুক্তি আর তাঁদের অভিজ্ঞতা, দুই সম্বল করে এবার প্রত্যন্ত অঞ্চলেও রোগীর চিকিৎসা সম্ভব হবে, তাঁদের আগের চেয়েও ভাল পরিষেবার আশ্বাস দেওয়া যাবে।

Published by:Siddhartha Sarkar
First published:

Tags: Medica Superspecialty Hospital

পরবর্তী খবর