corona virus btn
corona virus btn
Loading

ট্রাম্প ক্ষমতায় না থাকলে আরও একটা ৯/‌১১ হবে, হুঁশিয়ারি লাদেনের ভাইঝির

ট্রাম্প ক্ষমতায় না থাকলে আরও একটা ৯/‌১১ হবে, হুঁশিয়ারি লাদেনের ভাইঝির

৩৩ বছরের নূর এর আগেও একাধিকবার সংবাদমাধ্যমের সামনে মুখ খুলেছেন। তিনি বলেছেন, ওবামার শাসনকালে বহরে বেড়েছে আইসিস।

  • Share this:

ওসামা বিন লাদেন!‌ আন্তর্জাতিক রাজনীতিতে ত্রাসের সঞ্চার করেছিল শুধুমাত্র একটি বিশাল জঙ্গি হামলার কারণে। ৯/‌১১ ওয়ার্ল্ড ট্রেড সেন্টার ও পেন্টাগনে হামলার পিছনে মূল পরিকল্পক ছিল লাদেন। সেই আতঙ্কের দিনটা আজও ভোলেনি আমেরিকা। সেদিন একের পর হামলায় ধ্বংস হয়ে গিয়েছিল আমেরিকার গর্বের বিশ্ব বাণিজ্য কেন্দ্র। একেবারে মাটিতে মিশিয়ে দিয়েছিল জঙ্গি ওসামা বিন লাদেন ও তার দল। পরে অবশ্য লাদেনকে গুলি করে মারে যৌথ বাহিনী। কিন্তু ওসামা এখনও আমেরিকায় এক ত্রাসের নাম। এবার আমেরিকারে সেই দিনের কথাই মনে করিয়ে দিতে চাইলেন লাদেনের ভাইঝি। তবে তাঁর কথার মূল্য প্রতিপাদ্য ছিল যে মার্কিন প্রশাসন জো বাইডেনের হাতে গেলে ৯/‌১১–এর মতো ঘটনা আবার ঘটতে পারে, তবে ক্ষমতা যদি ট্রাম্পের হাতে থাকে তাহলে তিনিই একমাত্র পারবেন এত বড় মাপের জঙ্গি হামলা থেকে রক্ষা করতে। নভেম্বরের মার্কিন প্রেসিডেন্ট নির্বাচন। তার আগে কৃষ্ণাঙ্গদের প্রতিবাদ থেকে অন্য নানা প্রতিবাদে জর্জরিত হয়ে রয়েছে আমেরিকা। চাপে রয়েছেন বিদায়ী প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পও। করোনা প্রকোপের দৈনিক বৃদ্ধি থেকে শুরু করে দেশের আর্থিক পরিস্থিতি, সবই তাঁর বিরুদ্ধে যাচ্ছে যেন। কিন্তু নূর বিন লাদেন, ওসামার ভাইঝির কথায় যেন পরিস্থিতি কিছুটা ট্রাম্পের দিকে ঘুরে যেতে পারে।

৩৩ বছরের নূর এর আগেও একাধিকবার সংবাদমাধ্যমের সামনে মুখ খুলেছেন। তিনি বলেছেন, ওবামার শাসনকালে বহরে বেড়েছে আইসিস। তারা ইউরোপে এসে একের পর এক হামলা চালিয়েছে। কিন্তু তাঁর বিশ্বাস ট্রাম্প তা হতে দেবেন না। এ বিশ্বাসের কারণও আছে। নূরের মনে হয়, ট্রাম্প সন্ত্রাসবাদকে একেবারে গোড়া একে নির্মূল করেছেন। হামলা চালানোর আগেই ট্রাম্প জঙ্গিদের নিকেশ করেছেন বলে আমেরিকা আগের থেকে এখন অনেক বেশি নিরাপদ। তিনি নিজেও একাধিকবার আমেরিকা গিয়েছেন বলে জানিয়েছেন নূর। তাঁর বক্তব্য, যেদিন থেকে ট্রাম্প প্রেসিডেন্ট পদের জন্য মনোনয়ন জমা করেছেন, সেদিন থেকে তিনি তাঁর সমর্থক। ছোটবেলা থেকে আমেরিকা যাওয়ার অভিজ্ঞতা থাকায় তিনি দেখেছেন, কীভাবে ট্রাম্পের জমানায় পরিস্থিতি পাল্টেছে। তিনি বলেছেন, ‘‌আমি দূর থেকে দেখেও ওঁর কাজকর্মকে শ্রদ্ধ না করে পারি না। আমার মনে হয়, আমেরিকার জন্য এটা খুবই গুরুত্বপূর্ণ হতে চলেছে। শুধু আমেরিকা নয়, গোটা পশ্চিমের সভ্যতার জন্য ট্রাম্পের আবার প্রেসিডেন্ট হওয়া দরকার।

Published by: Uddalak Bhattacharya
First published: September 7, 2020, 9:06 AM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर