Kamala Harris : 'করোনা অতিমারী মুক্তির একমাত্র পথ টিকাকরণ, ভ্যাকসিন নিন' : কমলা হ্যারিস

করোনা অতিমারী নিয়ন্ত্রণ Photo : File Photo

তাঁর ট্যুইটার বার্তায় আমেরিকা বাসীকে ভ্যাকসিন (Coronavirus Vaccine) নেওয়ার আর্জি জানিয়ে ভারতীয় বংশোদ্ভূত কমলা হ্যারিস(Kamala Harris) লেখেন, আমেরিকায় সর্বাধিক মৃত্যু ডেকে এনেছে এই অতিমারী।

  • Share this:

    #ওয়াশিংটন : দুই বিশ্বযুদ্ধ, ভিয়েতনাম ওয়ার এবং ৯/১১ মিলিয়ে যে মৃত্যু সংখ্যা তাকেও ছাড়িয়ে গিয়েছে করোনা অতিমারীতে মৃত্যু। এই মারণ ভাইরাস দমনের একমাত্র পথ টিকাকরণ (Corona Vaccination)। ট্যুইট বার্তায় এমনটাই বললেন আমেরিকার ভাইস প্রেসিডেন্ট কমলা হ্যারিস (US Vice President Kamala Harris)। দেশবাসীকে করোনা ভ্যাকসিন নেওয়ার জন্য এগিয়ে আসার আবেদন করেন কমলা (Kamala Harris)।

    তাঁর ট্যুইটার বার্তায় আমেরিকা বাসীকে ভ্যাকসিন (Coronavirus Vaccine) নেওয়ার আর্জি জানিয়ে ভারতীয় বংশোদ্ভূত কমলা হ্যারিস(Kamala Harris) লেখেন, আমেরিকায় সর্বাধিক মৃত্যু ডেকে এনেছে এই অতিমারী। এই প্রসঙ্গে প্রথম ও দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধ, ভিয়েতনাম যুদ্ধ এমনকি ৯/১১ এর সন্ত্রাসবাদী হামলার প্রসঙ্গ তুলেছেন কমলা। তিনি তাঁর পোস্টে লেখেন এই সব ক্ষেত্রে মার্কিন মাটিতে যে সংখ্যক মৃত্যু হয়েছে তা একত্র করলেও করোনাভাইরাসে মৃত্যু সংখ্যার চেয়ে কম। তবে তা নিয়ন্ত্রণ সম্ভব। কোভিড টিকাকরণই তার একমাত্র উপায়।

    প্রসঙ্গত, বিশ্বে করোনায় ক্ষতিগ্রস্ত দেশের তালিকায় সবার ওপরে থাকা মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে গত ২৪ ঘণ্টায় করোনা আক্রান্ত হয়েছে ১৩ হাজার ৩৬৫ জন এবং মৃত্যু হয়েছে ৩২৯ জনের। এ নিয়ে দেশটিতে মোট আক্রান্তের সংখ্যা ৩ কোটি ৪৪ লাখ ৬৪ হাজার ৯৫৬। যার মধ্যে মৃত্যু হয়েছে ৬ লাখ ১৮ হাজার ৬৮৫ জনের। চিকিৎসাধীন ৪৯ লাখ ৭৪ হাজার ৩৫৭ জন।

    এর পরের স্থানেই অবস্থান করা জনবহুল ভারতে গত কয়েক সপ্তাহ ধরে দৈনিক সংক্রমণের সংখ্যা বিশ্বে সর্বোচ্চ থাকলেও তা এখন নিম্নমুখী। গত ২৪ ঘণ্টায় প্রাণহানি ঘটেছে ৯৬৫ জনের। আগের ২৪ ঘণ্টায় যা ছিল ৯৭৮। এ সময়ে নতুন করে শনাক্ত হয়েছে আরও ৫১ হাজার ২৪৮ জন। যাতে আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৩ কোটি ১ লাখ ৩৩ হাজার ৪১৭ জনে। আর মৃত্যু হয়েছে ৩ লাখ ৯৩ হাজার ৩৩৮ জনের। চিকিৎসাধীন ৬ লাখ ১৯ হাজার ৭৩৯ জন।

    তালিকার তৃতীয়স্থানে থাকা ল্যাটিন আমেরিকার ফুটবলপ্রিয় দেশ ব্রাজিলে গত ২৪ ঘণ্টায় মৃত্যু হয়েছে ২ হাজার ৪২ জনের এবং শনাক্ত হয়েছে ৭২ হাজার ৭০৫ জন। যা নিয়ে দেশটিতে এখন মোট মৃতের সংখ্যা ৫ লাখ ৯ হাজার ২৮২ আর মোট আক্রান্তের সংখ্যা ১ কোটি ৮২ লাখ ৪৩ হাজার ৪৮৩। চিকিৎসাধীন ১২ লাখ ২২ হাজার ৫০০ জন।

    তালিকায় এরপরের স্থানে থাকা ফ্রান্স, তুরস্ক, রাশিয়া, যুক্তরাজ্য ও ইতালিতে সংক্রমণের সংখ্যা ৪০ থেকে ৬০ লাখের মধ্যে থাকলেও তুরস্ক বাদে অপর দেশগুলোতে মৃত্যু লাখ ছাড়িয়েছে। তবে সংক্রমণে ১৫ নম্বরে থাকা মেক্সিকোতে মৃত্যুর সংখ্যা ২ লাখ ৩১ হাজার ৮০০ ছাড়িয়েছে। আর ৩০ নম্বরে উঠে আসা বাংলাদেশে মৃত্যুর সংখ্যা ১৩ হাজার ৮০০ ছাড়িয়েছে।

    Published by:Sanjukta Sarkar
    First published: