এবার কি আরও বড় হামলা, আতঙ্কে ভারত সহ বিশ্ব– News18 Bengali

এবার কি আরও বড় হামলা, আতঙ্কে ভারত সহ বিশ্ব

শুক্রবারের পুনরাবৃত্তিই কি হবে সোমবার

Elina Datta | News18 Bangla
Updated:May 15, 2017 11:11 AM IST
এবার কি আরও বড় হামলা, আতঙ্কে ভারত সহ বিশ্ব
Reuters
Elina Datta | News18 Bangla
Updated:May 15, 2017 11:11 AM IST

#নয়াদিল্লি: শুক্রবারের পুনরাবৃত্তিই কি হবে সোমবার ৷ সপ্তাহের প্রথম কাজের দিনে এই প্রশ্নের উত্তরই খুঁজছে বিশ্ব ৷ শুক্রবার রাতে ভারত সহ বিশ্বের ১০০ টি দেশে যে সাইবার হামলা হয়েছিল, নতুন সপ্তাহের শুরুতেও শঙ্কা মুক্ত নয় বিশ্ব ৷

রানসামওয়ার আতঙ্ক। যেন থমকে দাঁড়িয়েছে অর্ধেক পৃথিবীটাই। ফোন, ইন্টারনেট, ব্যাঙ্কিংয়ের সঙ্গে কার্যত থমকে স্বাস্থ্য পরিষেবাও। মিলছে না ওষুধের তালিকা, চিকিৎসার রেকর্ড, অপারেশনের খুঁটিনাটি। ৭০টিরও বেশি দেশে কম্পিউটার ও ডেটা সেন্টারে হানা দিয়েছে এক অচেনা ম্যালওয়ার বা কম্পিউটার ভাইরাস। এই দেশের অধিকাংশ গোপন তথ্য এখন হ্যাকারদের দখলে। মুক্তিপণ দিলে তবেই ফেরত আসবে অনলাইন নথি। ওপেন চ্যালেঞ্জ হ্যাকারদের।

‘র‍্যানসাম ওয়্যার’ ভাইরাস হানায় ত্রস্ত ভারতও ৷ দেশের নিরাপত্তা জনিত গুরুত্বপূর্ণ তথ্য ও নাগরিকদের ব্যক্তিগত তথ্য চুরি হয়ে যাওয়ার আশঙ্কা করছে কেন্দ্র ৷ কীভাবে এই সাইবার ভাইরাস থেকে মুক্তি পাওয়া যাবে সে পথ খুঁজছে তথ্যপ্রযুক্তি বিশেষজ্ঞরা ৷ কতটা সুরক্ষিত সাইবার সিস্টেম তা জানতে এদিন সকালে RBI ও UIDAI-এর সঙ্গে যোগাযোগ করে তথ্যপ্রযুক্তি মন্ত্রক ৷

শুক্রবার রাতে একসঙ্গে ভারত-সহ সারাবিশ্বের ১০০ দেশে সাইবার হামলা চালায় একদল হ্যাকার ৷ সংবাদ সংস্থা সূত্রে খবর, ইউএস জাতীয় সুরক্ষা এজেন্সির তৈরি হ্যাকিং প্রযুক্তি চুরি করে তাকেই হাতিয়ার করে এই হামলা চালানো হয়েছে ৷

সুইডেন, ব্রিটেন ও ফ্রান্সে প্রথম এই ঘটনা নজরে আসে ৷ সাইবার হামলায় সবচেয়ে বেশি ক্ষতিগ্রস্থ হয় ব্রিটেন ৷ বিপর্যস্ত ইংল্যান্ডের হাসপাতালগুলির পরিষেবা ৷ ওয়েবসাইট থেকে গায়েব রোগীদের ব্যক্তিগত তথ্য ৷ আন্তর্জাতিক শিপিং কোম্পানি FEDExও সাংঘাতিকভাবে ক্ষতিগ্রস্থ ৷

Loading...

খোলা আকাশের দিকে তাকালে মালুম হয়, মানুষ কত তুচ্ছ। হ্যাকার ও ভাইরাস আক্রমণের সামনে একইরকম তুচ্ছ মানুষ। দুনিয়া জোড়া কম্পিউটার ভাইরাস হানায় তা আবারও খুল্লমখুল্লা হয়ে গেল। সবচেয়ে বড়

সাইবার হানায় কাঁপছে বিশ্বের সব দেশ।

ব্রিটেনের হাসপাতাল ও স্বাস্থ্য ব্যবস্থার ৮৩ শতাংশ তথ্য দখল করেছে ভাইরাসরা

অধিকাংশ হাসপাতালেই কম্পিউটার না খোলায় প্রায় বন্ধ চিকিৎসার কাজ

রাশিয়ার নিরাপত্তা মন্ত্রকের যাবতীয় তথ্য এখন হ্যাকারদের দখলে

কাজকর্ম বন্ধ করে হাত গুটিয়ে বসে রুশ স্বরাষ্ট্র বিভাগও

স্পেনের ৯০ শতাংশ টেলিকম সংস্থা ও ব্যাঙ্কে হানা দিয়েছে ভাইরাস

ইতালি, গ্রিস, স্পেন ও পর্তুগালের ব্যাঙ্কিং ও সাইবার সিকিউরিটি সেলেও হানা হ্যাকারদের

রানস্যামওয়ারের মোকাবিলায় এখনও পথ হাতড়াচ্ছে সাইবার সিকিউরিটি সংস্থাগুলো। গ্রাহকদের তথ্য নিরাপত্তার আশ্বাস দিতে পারছে না কোনও সংস্থাই। কেন? উপদেষ্টা সংস্থা আর্নেস্ট অ্যান্ড ইয়ংয়ের স্বীকরোক্তি, এ এমনই এক বিশ্বযুদ্ধ যার জন্য প্রস্তুত ছিলাম না আমরা। আর এই প্রস্তুত না থাকার  পরিণাম মারাত্মক।

অ্যাভাস্টের-এর হিসেবে, প্রথম ঘণ্টায় ৭৫ হাজার কম্পিউটারে ‘হামলা’ করা হয় ৷ ২৪ ঘণ্টার মধ্যে তা ছাড়িয়ে লক্ষাধিক হয়ে যায় ৷ ক্যাসপারেস্কির হিসেবে, ৯৯ টি দেশে ৪৫ হাজার কম্পিউটারে সাইবার হামলা হয়েছে ৷ তার মধ্যে রয়েছে ভারত, চিন, স্পেন, ইতালির মতো দেশের গুরুত্বপূর্ণ সিস্টেম ৷

সাড়ে ৭ কোটি কম্পিউটার অকেজো

সিস্টেম খুললেই কম্পিউটার হ্যাক করার নোটিশ দিচ্ছে হ্যাকাররা

এই কম্পিউটার নয়, এই প্রথম হ্যাকারটা দখল নিচ্ছে ডেটা সেন্টার ও সার্ভারের

আগে কখনও এই ধরণের হ্যাকিংয়ের মুখে পড়েনি দুনিয়া

মার্কিন নিরাপত্তা সংস্থার ব্যবহৃত সফটওয়ারের মাধ্যমে ছড়িয়েছে এই ভাইরাস

এটাই বিশ্বের প্রথম দু-ওয়ে ডিসরাপটিভ ভাইরাস

এই ভাইরাস মুছতে গেলেও চিরতরে নষ্ট হয়ে যেতে পারে কম্পিউটারের রাখা ডেটা

কোড বদলে নতুন করে আক্রমণ করতে ১ সেকেন্ডের কম সময় নেই এই ভাইরাস

যদিও এখনই হেরে যেতে নারাজ সাইবার বিশেষজ্ঞরা। রানস্যামওয়ারের বিরুদ্ধে লড়াইয়ে নেমেছেন দুনিয়ার হাজারেরও বেশি বিশেষজ্ঞ। তাদের পরামর্শ, অবিলম্বে ভালো অ্যান্টি ভাইরাস লাগালে ক্ষতি কিছুটা হলেও সামলানো যাবে। ভবিষ্যতে নতুন করে আক্রান্ত হতে হবে না। তবে যে ক্ষতি হয়ে গিয়েছে তার মেরামত আর সম্ভব নয়।

First published: 10:32:06 AM May 15, 2017
পুরো খবর পড়ুন
Loading...
अगली ख़बर