গুজরাত-হিমাচল জিতে ২৯ রাজ্যের ১৯টাই এখন বিজেপি-র দখলে

গুজরাতে হাড্ডাহাড্ডির লড়াই হলেও হিমাচল প্রদেশ কংগ্রেসের কাছ থেকে ফের ছিনিয়ে নিতে সফল মোদি বাহিনী ৷

Siddhartha Sarkar | News18 Bangla
Updated:Dec 18, 2017 05:14 PM IST
গুজরাত-হিমাচল জিতে ২৯ রাজ্যের ১৯টাই এখন বিজেপি-র দখলে
File photo Bharatiya Janata Party (BJP) president Amit Shah. (Photo: Reuters)
Siddhartha Sarkar | News18 Bangla
Updated:Dec 18, 2017 05:14 PM IST

#নয়াদিল্লি: ২০১৯ লোকসভা নির্বাচনের আগে নিজেদের কেল্লা আরও মজবুত করছে বিজেপি ৷ নোট বাতিল বা জিএসটি কোনও ফ্যাক্টরই যে এখনও গেরুয়া শিবিরকে টলাতে পারেনি, তা সোমবারের পর আরওই স্পষ্ট হল ৷ গুজরাতে হাড্ডাহাড্ডির লড়াই হলেও হিমাচল প্রদেশ কংগ্রেসের কাছ থেকে ফের ছিনিয়ে নিতে সফল মোদি বাহিনী ৷ এর ফলে দেশের মাত্র চার রাজ্যই এখন রইল কংগ্রেসের হাতে ৷ অন্যদিকে ২৯টি রাজ্যের মধ্যে ১৯টা রাজ্যই এখন গেরুয়া শিবিরের দখলে ৷ শেষবার এই নজির গড়েছিল কংগ্রেস ৷ সেটাও ২৪ বছর আগে ৷ তখন তাদের দখলে ছিল দেশের ১৮টি রাজ্য ৷ স্বাধীন ভারতে এই প্রথমবার কোনও একটি রাজনৈতিক দলের হাতে চলে এল দেশের ১৯টা রাজ্য ৷ যা অবশ্যই নতুন রেকর্ড ৷

bjp map of india

এদিন ভোটগণনা শুরু হতেই গুজরাতে হাড্ডাহাড্ডির লড়াই চললেও হিমাচল প্রদেশে বরাবরই দাপট দেখিয়েছে বিজেপি ৷ ম্যাজিক ফিগার ‘৩৫’ পেতে যে গেরুয়া শিবিরের বিশেষ সমস্যা হবে না, তা কিছু সময়ের মধ্যেই পরিষ্কার হয়ে যায় ৷ শেষপর্যন্ত হিমাচলও নিজেদের দখলে রাখতে তাই ব্যর্থ কংগ্রেস ৷ এদিন সময় যতো এগিয়েছে ততোই চওড়া হয়েছে পদ্ম শিবিরের হাসি ৷ প্রধানমন্ত্রীও ‘ভিকট্রি’ চিহ্ন দেখিয়েই সংসদে ঢোকেন ৷ স্বরাষ্ট্র মন্ত্রী রাজনাথ সিং তো বলেই দেন, ‘‘ ভোটে সংখ্যাগরিষ্ঠতা অর্জন করে দুই রাজ্যে সরকার গড়ব আমরাই ৷ ’’

আরও পড়ুন--

বিজেপির জয়ে টুইট করে গুজরাত ও হিমাচলবাসীকে ধন্যবাদ প্রধানমন্ত্রীর

হিমাচল প্রদেশে গত ৯ নভেম্বর মোট ৩৩৭ জন প্রার্থী নির্বাচনে অংশ নেন ৷ পাহাড়ি রাজ্যের মোট ৩৭,৮৩,৫৮০ জন মানুষ ভোট দিয়েছিলেন ৷ এবছর হিমাচলে ভোট পড়েছে ৭৫.২৮ শতাংশ ৷ যা নতুন রেকর্ডও বটে ৷ হিমাচলে কংগ্রেসের যে পরাজয় হচ্ছে, তা অধিকাংশ এক্সিট পোলেই স্পষ্ট হয়ে যায় ৷ ২০১২ সালে শেষ বিধানসভা নির্বাচনে ৬৮টি আসনের মধ্যে কংগ্রেস জিতেছিল ৩৬টি আসনে ৷ বিজেপি-র দখলে ছিল ২৬টি ৷ নির্দল জিতেছিল ৬টি আসনে ৷ এবছর পুরো চিত্রটাই বদলাতে সফল টিম মোদি ৷

First published: 02:54:35 PM Dec 18, 2017
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर