প্রযুক্তি

?>
corona virus btn
corona virus btn
Loading

দুর্দান্ত ব্যাটারি, আকর্ষণীয় ক্যামেরা! মাত্র ১০,৪৯৯ টাকায় তাক লাগাবে Realme-র এই স্মার্টফোন

দুর্দান্ত ব্যাটারি, আকর্ষণীয় ক্যামেরা! মাত্র ১০,৪৯৯ টাকায় তাক লাগাবে Realme-র এই স্মার্টফোন

জেনে নিন Realme Narzo 20-র স্পেসিফিকেশন ও দাম

  • Share this:

Realme Narzo 20 Review: সদ্য বাজারে এল রিয়েলমি নারজো ২০ (Realme Narzo 20)। রিয়েলমির এই মডেল সাধ্যের মধ্যেই আপনার চাহিদা মেটাতে সক্ষম। এর ব্যাটারি লাইফ নিয়ে কখনও ভাবতে হবে না আপনাকে। পাশাপাশি ক্যামেরা পারফর্ম্যান্সও ভালো। এই ফোনের ৪৮ এমপি প্রাইমারি ও ৮ এমপি আল্ট্রা-ওয়াইড ক্যামেরা আপনাকে হতাশ করবে না। সব চেয়ে বড় কথা- মাত্র ১০,৪৪৯ টাকায় পেয়ে যাচ্ছেন এই লেটেস্ট স্মার্টফোন। আসুন দেখে নেওয়া যাক- কেন কিনবেন রিয়েলমি নারজো ২০।

নারজো ২০-র পিছনের দিকটা ম্যাট ফিনিশ। ভিক্টরি ব্লু কালারের এই সেট এবং পিছনের স্কোয়্যার ক্যাম ডিজাইন আপনার নজর কাড়বে। তবে এর ওজন ২০৮ গ্রাম। নারজো ২০-তে মাল্টিটাস্কিং এড়িয়ে যাওয়াই ভালো। তবে গান শুনতে শুনতে অল্পবিস্তর চ্যাটিং বা অন্য কাজ করতেই পারেন। এ ক্ষেত্রে নারজো ২০ প্রো ভার্সনের থেকে প্রায় ৪০ শতাংশ ধীরগতি সম্পন্ন নারজো ২০। এই ফোনের স্ক্রিন ৬.৫ ইঞ্চি, এইচডি প্লাস। এই ফোনে ভিডিও দেখে আপনি খুব একটা হতাশ হবেন না। কারণ ভিজ্যুয়াল এফেক্টস, আই প্রোটেকশন মোডস সহ একাধিক কনফিগারেশন রয়েছে। ডিসপ্লে সেটিংয়ের জন্য ম্যানুয়াল কনফিগারেশনের ব্যবস্থাও রয়েছে।

ব্যাটারি লাইফ

দিনে কয়েক ঘণ্টা গেম খেলে, মেল, ম্যাসেজ চ্যাটিংয়ের পরও দু'দিন পর্যন্ত চার্জ থাকে এই ফোনের ব্যাটারিতে। তবে যদি বেশিক্ষণ গেম খেলেন, ভিডিও চলে, গান শোনেন কিংবা প্রায় সারা দিন নানা ফোন কলে ব্যস্ত থাকেন, তা হলে একটা গোটা দিন চার্জ থাকে ফোনে। সুবিধের ব্যাপার, তাই না? বিশেষ করে যেখানে অন্য ফোনগুলিতে দিনে অন্তত একবার চার্জ দিতেই হয়। রিয়েলমি নারজো ২০-তে ফাস্ট চার্জিং সিস্টেম রয়েছে। ৬০০০ এমএএইচ ব্যাটারি পুরোপুরি চার্জ করতে মাত্র দু'ঘন্টা সময় লাগে। ব্যাটারি লাইফ ঠিকঠাক রাখার জন্য রিয়েলমির নিজস্ব ব্যাটারি অ্যালগরিদম রয়েছে। তাই এই ফোনের ব্যাটারি নিয়ে খুব একটা চিন্তা করতে হবে না।

নারজোর ক্যামেরা

নারজো ২০-র ক্যামেরা পারফর্ম্যান্স বেশ ভালো। এই ফোনের ৪৮ এমপি প্রাইমারি ও ৮ এমপি আল্ট্রা-ওয়াইড ক্যামেরা আপনাকে হতাশ করবে না। কালার কনট্রাস্টও ঠিকঠাক। এই ক্যামেরার ল্যান্ডস্কেপ ও মনুমেন্ট শটও বেশ ভালো। এর ২ এমপি ম্যাক্রো ইউনিট ছবির গুণগত মান বাড়ায়। এই ফোনের ভিডিওগ্রাফিও মন্দ নয়। এর ভিডিওগ্রাফি মোড ৬০ এফপিএস । ভিডিও রিজোলিউশন ১০৮০p/৭২০p এইচডি।

সফ্টওয়্যার ও সিকিওরিটি

রিয়েলমি নারজো ২০ -র পিছনের দিকে ফিঙ্গারপ্রিন্ট সেন্সর রয়েছে। এ ছাড়াও ফেস রিকগনিশন সিস্টেমও রয়েছে। তবে কখনও ফোন আপনার মুখ বরাবর না থাকলে বা আপনার চোখ বন্ধ হয়ে গেলেও ফেস রিকগনিশন কাজ করতে পারে। এ দিক থেকে এটি এই ফোনের একটা সীমাবদ্ধতা। আপনার প্রাইভেসি ও সিকিওরিটি নিয়ে কোথাও যেন একটা প্রশ্ন থেকে যাচ্ছে।

কেন কিনবেন

যদি আপনি ফোনের ব্যাটারি লাইফ নিয়ে কোনও রকম আপোস করতে না চান, তা হলে রিয়েলমি নারজো ২০-কে বেছে নিন। এর ক্যামেরাও ভালো। তা ছাড়া এটি ১০,০০০ টাকার আশপাশেই। এ ক্ষেত্রে ১০,৪৯৯ টাকায় ৪ জিবি র‌্যাম ও ৬৪ জিবি মেমোরির নারজো ২০ প্রো ও ১১,৪৯৯ টাকায় ৪ জিবি র‌্যাম ও ১২৮ জিবি মেমোরির নারজো ২০ প্রো ফোন পাওয়া যাচ্ছে। বাজারে নারজোর প্রতিদ্বন্দ্বিতা করতে পারে রেডমি ৯/৯ প্রাইম, মোটো জি কিংবা ভিভো ইউ ১০। তবে দশ হাজারের আশপাশে ভালো ব্যাটারি লাইফ ও পারফর্ম্যান্সের জন্য কিনতেই পারেন এই রিয়েলমি নারজো ২০।

Published by: Ananya Chakraborty
First published: September 23, 2020, 6:12 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर