বাণিজ্য সম্মেলনের জন্য বিশ্ববঙ্গের লোগো দিয়ে তৈরি অ্যাপ চালু করল রাজ্য সরকার

Elina Datta | News18 Bangla
Updated:Jan 13, 2018 04:48 PM IST
বাণিজ্য সম্মেলনের জন্য বিশ্ববঙ্গের লোগো দিয়ে তৈরি অ্যাপ চালু করল রাজ্য সরকার
Elina Datta | News18 Bangla
Updated:Jan 13, 2018 04:48 PM IST

 #কলকাতা: বিশ্ব বঙ্গ বাণিজ্য সম্মেলনের অ্যাপ চালু করল রাজ্য সরকার। উদ্দেশ্য, সকলের কাছে সম্মেলনের খুঁটিনাটি তুলে ধরা। এবারের সম্মেলনে দেশের তাবড় শিল্পপতিদের পাশাপাশি তিরিশটি দেশের তিনশোজন প্রতিনিধি যোগ দিচ্ছেন। লগ্নি টানতে সরকারের পাখির চোখ কৃষি, খাদ্য প্রক্রিয়াকরণ, স্বাস্থ্য-শিক্ষা, তথ্য-প্রযুক্তি, পর্যটন ও ম্যানুফ্যাকচারিংয়ের মতো ক্ষেত্র। স্লোগান, বেঙ্গল মিনস বিজনেস।

১৬ এবং ১৭ জানুয়ারি, নিউটাউনের কনভেনশন সেন্টারে বসছে চতুর্থ বিশ্ব বঙ্গ বাণিজ্য সম্মেলনের আসর। সম্মেলনের যাবতীয় তথ্য সহজে পেতে এবার অ্যাপ আনল রাজ্য সরকার। বিশ্ব বঙ্গের লোগো দিয়ে অ্যাপটি তৈরি করা হয়েছে। এই অ্যাপেই শিল্পপতিদের জন্য যেমন তথ্য তুলে ধরা হবে তেমনই উৎসাহীরাও জানতে পারবেন লগ্নি থেকে সম্মেলনে আগত শিল্পপতি-বিদেশি অতিথি অভ্যাগতদের খুঁটিনাটি তথ্য।

কী রয়েছে অ্যাপে?

- হোয়াই বেঙ্গল অর্থাৎ কেন শিল্পপতিরা এ রাজ্যে লগ্নি করবেন

- এই সম্মেলনের উদ্দেশ্য কী ? কোন কোন সেক্টরকে গুরুত্ব দিচ্ছে রাজ্য সরকার

- কোন ক্ষেত্রে কী লগ্নি, কত অঙ্কের লগ্নি, কারা লগ্নি করলেন বা করছেন

- প্রতি মুহূর্তে তথ্য আপডেট করা হবে

সম্মেলন শুরুর আগেই লগ্নির প্রস্তাব এসেছে রাজ্যে। ইতিমধ্যেই আদানি গ্রুপ সৌরবিদ্যুতে দশ হাজার কোটি এবং হিন্দুজা গোষ্ঠী গাড়ি শিল্পে কয়েক হাজার কোটি টাকার বিনিয়োগের আশ্বাস দিয়েছে। এবারের সম্মেলনে লগ্নি টানতে সরকারের লক্ষ্য, কেমিক্যালস, পেট্রো কেমিক্যালস, কৃষি, খাদ্য প্রক্রিয়াকরণ, স্বাস্থ্য, শিক্ষা তথ্য প্রযুক্তি, পর্যটন, বস্ত্র ও ম্যানুফ্যাকচারিং-এর মতো ক্ষেত্রগুলি।

বাণিজ্য সম্মেলনের জন্য বিশ্ববঙ্গের লোগো দিয়ে তৈরি অ্যাপ চালু করল রাজ্য সরকার বাণিজ্য সম্মেলনের জন্য বিশ্ববঙ্গের লোগো দিয়ে তৈরি অ্যাপ চালু করল রাজ্য সরকার

গত কয়েক বছরে রাজ্যের সামগ্রিক চেহারায় যথেষ্ট বদল হয়েছে। লগ্নির বিশেষ ক্ষেত্র হয়ে উঠেছে এই রাজ্য। ইতিমধ্যে কেন্দ্রীয় সরকারের তরফেও মিলেছে সেই স্বীকৃতি। এবারের সম্মেলনে লগ্নিকারীদের কাছে সেগুলি সুচারুভাবে তুলে ধরতে চায় রাজ্য সরকার। সরকারের হাতিয়ার,

কেন বাংলায় আসবেন

- ল্যান্ড ব্যাঙ্কে প্রচুর জমি রয়েছে ফলে জমির অভাব হবে না

- স্থায়ী সরকার ও স্বচ্ছ প্রশাসন

- রাজনৈতিক অস্থিরতা নেই

- যোগাযোগ ব্যবস্থার উন্নতি

- বিদ্যুতের অভাব নেই

- ই-টেন্ডার ও ই-গভর্নেন্সে দেশে প্রথম পশ্চিমবঙ্গ

- শিল্পের জন্য আবদনের ২৪ ঘণ্টার মধ্যে ছাড়পত্র

- পর্যাপ্ত কাঁচা মাল ও মানব সম্পদ

সরকারের দাবি এবারের সম্মেলনে কলেবর অনেকটাই বড় হতে চলেছে। দেশিয় শিল্পপতিরা ছাড়াও তিরিশটি দেশের প্রায় তিনশ প্রতিনিধি এবারের সম্মেলনে যোগ দেবেন।

নিউটাউনের কনভেনশন সেন্টারে এবার প্রথম হতে চলেছে বিশ্ব বঙ্গ বাণিজ্য সম্মেলন। এখানকার প্লেনারি হলে হবে সম্মেলনের মূল অনুষ্ঠান। ষোলোই জানুয়ারি সম্মেলনের উদ্বোধন। তার আগের দিন সোমবার সন্ধ্যায় ইকো পার্কে শিল্পপতিদের সম্মানে নৈশভোজের আয়োজন করেছে সরকার। নৈশভোজে উপস্থিত থাকবেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ও।

First published: 04:47:37 PM Jan 13, 2018
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर