WTC Final : ' বেস্ট অব থ্রি ' সঠিক ফর্মুলা বলছেন শাস্ত্রী

সম্মানের লড়াইয়ে তৈরি ভারত বলছেন রবি শাস্ত্রী

শাস্ত্রী মনে করেন গত আড়াই বছর ধরে ধারাবাহিক পারফর্ম করে আসার পর তবেই সেরা দুটো দল এই ফাইনাল খেলার সুযোগ পেয়েছে। তাই একের বদলে বেস্ট অফ থ্রি হলেই সঠিক প্রক্রিয়া হত

  • Share this:

    #মুম্বই: ভারতের টেস্ট ক্রিকেটের ইতিহাসে অতীতে অনেক সম্মানজনক জয় আছে। কিন্তু আইসিসির নতুন টুর্নামেন্ট বিশ্ব টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপ ফাইনাল ভারতের সুদীর্ঘ ক্রিকেট ইতিহাসে একটা নতুন অধ্যায় রচনা করতে চলেছে। টেস্ট ক্রিকেটে বিশ্বকাপের সমান মর্যাদা এই ফাইনালের। ইংল্যান্ডে উড়ে যাওয়ার আগে নতুন বিতর্ক উস্কে দিলেন রবি শাস্ত্রী। কোহলিদের কোচ মনে করেন বিশ্ব টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপ ফাইনাল দুটো দলের কাছেই বিরাট সম্মানের। হয়তো টেস্ট ক্রিকেটের ইতিহাসে সবচেয়ে বড় ম্যাচ। কিন্তু মাত্র একটি ফাইনাল খেলেই এই ট্রফি জিতবে একটা দল, এই প্রক্রিয়াটা মানতে অসুবিধা আছে তাঁর।

    শাস্ত্রী মনে করেন গত আড়াই বছর ধরে ধারাবাহিক পারফর্ম করে আসার পর তবেই সেরা দুটো দল এই ফাইনাল খেলার সুযোগ পেয়েছে। তাই একের বদলে বেস্ট অফ থ্রি হলেই সঠিক প্রক্রিয়া হত। দেশ, বিদেশে পারফর্ম করে আসার সঠিক মূল্য পাওয়া যেত। অস্ট্রেলিয়ায় একদিনের ক্রিকেটে তিনটি ফাইনাল চালু করেছিল। তবে ভারতীয় কোচের কথা আইসিসি শুনবে এমন গ্যারান্টি নেই। শাস্ত্রীর প্রস্তাব মানতে গেলে পাঁচদিনের বদলে প্রায় কুড়ি দিন টুর্নামেন্ট আয়োজন করতে হবে। ক্রিকেট ক্যালেন্ডারে সেটা প্রভাব ফেলতে পারে।

    রবি শাস্ত্রী মনে করেন এই ফাইনাল যেহেতু তিন দিন বা তিন মাসে ঠিক হয়নি, তিন বছর ধরে টানা পারফরম্যান্স দেখানোর পুরস্কার, তাই একটা ফাইনাল সঠিক বিচার নয়। তবে তিনি মনে করেন যেভাবে গত কয়েক বছর ধরে দলে একটা সংস্কৃতি তৈরি করা হয়েছে সেটা ভারতীয় ক্রিকেটের উন্নতির দারুণ নিদর্শন। তারকা প্রথায় নির্ভরশীল থাকা দল এখন তরুণ তারকাদের ওপর নির্ভর করেও ম্যাচ জিততে জানে।

    অস্ট্রেলিয়ার মাটিতে সেই প্রমাণ পাওয়া গিয়েছে। মানসিকতায় এখনকার ছেলেরা আগের থেকে এগিয়ে মনে করেন শাস্ত্রী। পরিস্থিতি যতই কঠিন হোক, এঁরা পজেটিভ ভাবনা মাথায় রাখতে জানে। নিজেদের দক্ষতায় বিশ্বাস রাখে। কোনও ম্যাজিক করে নয়, পরিশ্রম এবং নিষ্ঠার ফসল পাচ্ছে ভারতীয় দল পরিষ্কার করে দিয়েছেন হেড কোচ। পাশাপাশি একই সঙ্গে ইংল্যান্ড এবং শ্রীলঙ্কায় দুটো জাতীয় দল খেলছে, এটা ভারতীয় ক্রিকেটের রিজার্ভ বেঞ্চের শক্তি বোঝার পক্ষে যথেষ্ট মনে করেন তিনি।

    Published by:Rohan Chowdhury
    First published: