Home /News /sports /

চেতন, রাহুলদের লড়াকু বোলিং সত্ত্বেও নিয়মরক্ষার ম্যাচ জিতল শ্রীলঙ্কা

চেতন, রাহুলদের লড়াকু বোলিং সত্ত্বেও নিয়মরক্ষার ম্যাচ জিতল শ্রীলঙ্কা

চেতন সাকারিয়াকে অভিনন্দন জানাচ্ছেন শিখর

চেতন সাকারিয়াকে অভিনন্দন জানাচ্ছেন শিখর

এত অল্প রান নিয়ে খেলতে নেমে এত ক্যাচ গলালে ম্যাচ জেতা যায় না। ভারত জেতেওনি। ধৈর্য ধরে উইকেটে পড়ে থেকে দলকে জয়ের রাস্তায় ফিরিয়ে এনেছিলেন আবিষ্কা ফার্নান্ডো

  • Share this:

    ভারত - ২২৫

    শ্রীলঙ্কা- ২২৭/৭

    শ্রীলঙ্কা জয়ী ৩ উইকেটে

    #কলম্বো: ভারতের দেওয়া টার্গেট তাড়া করতে শ্রীলঙ্কার যে খুব বেশি সমস্যা হবে না, সেটা বুঝার জন্য ক্রিকেট পন্ডিত হওয়া দরকার ছিল না। ওপেনিংয়ে ভানুকা মাত্র ৭ রান করে ফিরে গেলেও অন্যদিকে ফার্নান্ডো নিজের স্বাভাবিক ছন্দে ব্যাটিং করছিলেন। তিন নম্বরে নামা ব্যাটসম্যান রাজাপক্ষকে সঙ্গে নিয়ে বড় পার্টনারশিপ গড়ে তুললেন ফার্নান্ডো। কিন্তু এদিন অল্প রান করলেও জঘন্য ফিল্ডিং করল ভারতীয় দল। সহজ রান আউট মিস করা থেকে শুরু করে অন্তত তিনটি সহজ ক্যাচ ফেলে দিলেন ভারতীয় ফিল্ডাররা।

    তরুণ চেতন সাকারিয়া জীবনের প্রথম আন্তর্জাতিক একদিনের ম্যাচে একটি ক্যাচ নিলেন। দুটি উইকেট নিলেন। যে বলে ধনঞ্জয়কে আউট করলেন, যত প্রশংসা করা যায় যথেষ্ট নয়। বলটা পড়ে অনেকটা উঠে এল। নিজেই ক্যাচ ধরলেন রাজস্থান রয়েলস ক্রিকেটার। যদিও এর পর আসালঙ্কা এবং অধিনায়ক শানাকাকে ফিরিয়ে দিল হার্দিক এবং রহুল চাহার, তাতেও আটকে রাখা যাচ্ছিল না লঙ্কানদের।

    রহুল চাহার দেশের হয়ে প্রথম ম্যাচে দেখালেন তিনি ভবিষ্যতের গুরুত্বপূর্ণ লেগ স্পিনার হয়ে উঠতে পারেন। রাহুলের বলে স্লিপে মেন্ডিসের সহজ ক্যাচ ফেলে দিলেন পৃথ্বী শ। ড্রেসিংরুমে রাহুল দ্রাবিড়কে হতাশায় মাথায় হাত দিতে দেখা গেল। এত অল্প রান নিয়ে খেলতে নেমে এত ক্যাচ গলালে ম্যাচ জেতা যায় না। ভারত জেতেওনি। ধৈর্য ধরে উইকেটে পড়ে থেকে দলকে জয়ের রাস্তায় ফিরিয়ে এনেছিলেন আবিষ্কা ফার্নান্ডো।

    কিন্তু সেই রহুল চাহারের বলে স্লিপে ধরা পড়লেন পৃথ্বীর হাতে। ফ্লাইট, লুপ এবং গতির হেরফের ঘটিয়ে রহুল চাহার বেশ চাপে ফেলে দিয়েছিলেন লঙ্কাকে।এরপর ফেরালেন করুনাকে।  নিলেন তিন উইকেট।হয়তো এই ম্যাচ হেরে ভারতের খুব একটা ক্ষতি হল না। কিন্তু এটাও ঠিক নিজেদের দেশের মাটিতে ভারতের বিরুদ্ধে ২০১২ সালের পর এই প্রথম একদিনের ম্যাচ জিতল লঙ্কা বাহিনী।

    কিন্তু এক ঝাঁক তরুণ ক্রিকেটারদের সুযোগ দিয়ে বিসিসিআই দেখে নিতে চাইল নিজেদের রিজার্ভ বেঞ্চ কতটা শক্তিশালী। সব সময় জয় দিয়ে সবকিছু বিচার করা যায় না। ভারত হেরে গেলেও ভবিষ্যতের পথ কতটা সহজ বা কঠিন, তার একটা আন্দাজ পাওয়া গেল। তাই এই পরীক্ষা-নিরীক্ষার একটা দাম আছে একথা অস্বীকার করার জায়গা নেই। প্রথম ম্যাচ খেলা ক্রিকেটারদের যে আত্মবিশ্বাস সঞ্চার হল, তাতে আগামী দিনে উপকৃত হবে ভারতীয় ক্রিকেট।

    Published by:Rohan Chowdhury
    First published:

    Tags: Shikhar Dhawan, Sri Lanka

    পরবর্তী খবর