corona virus btn
corona virus btn
Loading

‘ICC থেকে আগে লিখিত প্রস্তাব আসুক তারপর ভাবা যাবে...’ চার দিনের টেস্ট নিয়ে মত সৌরভের

‘ICC থেকে আগে লিখিত প্রস্তাব আসুক তারপর ভাবা যাবে...’ চার দিনের টেস্ট নিয়ে মত সৌরভের

বিরাট যখন আইসিসির প্রস্তাবকে পত্রপাঠ উড়িয়ে দিচ্ছেন, বোর্ড প্রেসিডেন্ট তখন কিছুটা সাবধানী মনোভাব দেখালেন। দিন কয়েক আগে আইসিসির তরফে ভাবনাচিন্তা শুরু হয় চার দিনের টেস্ট ম্যাচ করার ইস্যুতে।

  • Share this:

Eeron Roy Barman

#কলকাতা: আইসিসির প্রস্তাবিত চার দিনের টেস্ট ম্যাচ নিয়ে ভিন্নমত বিরাট কোহলি আর সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায়ের। বিরাট যখন আইসিসির প্রস্তাবকে পত্রপাঠ উড়িয়ে দিচ্ছেন, বোর্ড প্রেসিডেন্ট তখন কিছুটা সাবধানী মনোভাব দেখালেন। দিন কয়েক আগে আইসিসির তরফে ভাবনাচিন্তা শুরু হয় চার দিনের টেস্ট ম্যাচ করার ইস্যুতে।

২০২৩ টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপ থেকে চার দিনের টেস্ট ম্যাচ চালু করার ভাবনাচিন্তা শুরু করে ক্রিকেটের সর্বোচ্চ নিয়ামক সংস্থা। তারপর থেকেই প্রাক্তন বর্তমান ক্রিকেটাররা মুখ খুলছেন চার দিনের টেস্ট ম্যাচ ইস্যুতে। কেউ পক্ষে কেউবা বিপক্ষে বলছেন। শনিবার মুখ খুললেন ভারত অধিনায়ক বিরাট।

গুয়াহাটিতে ভারত শ্রীলঙ্কা প্রথম টি-টোয়েন্টি ম্যাচের আগে মুখ খুললেন কাপ্তান কোহলি। সাংবাদিক সম্মেলনে ভারতীয় অধিনায়ককে প্রশ্ন করা হয় প্রস্তাবিত চার দিনের টেস্ট ম্যাচের বিষয়ে। বিরাট বলেন, চার দিনের টেস্ট ম্যাচ করার কোন মানেই হয় না। টেস্ট ক্রিকেট নিয়ে অত্যাধিক বেশি কাটাছেঁড়া হচ্ছে। ইতিমধ্যেই দিন-রাতের টেস্ট ম্যাচ চালু হয়েছে। সেটাই টেস্টের সংস্করণ। আর সংস্করণের প্রয়োজন নেই। টেস্ট ক্রিকেট নিয়ে বেশি পরীক্ষা-নিরীক্ষা ঠিক নয়। এরপর কোনদিনও প্রস্তাব আসবে তিন দিনের টেস্ট ম্যাচ করার।

বিরাট এদিন আরও বলেন, হয়তো একদিন প্রস্তাব আসবে টেস্ট ক্রিকেট তুলে দেওয়ার। টেস্ট ক্রিকেটকে যেমন আছে সেরকম চলতে দেওয়া উচিত। আইসিসি যতই টেস্ট ক্রিকেটের দিন কমিয়ে আরও বেশি করে টি-টোয়েন্টি টুর্নামেন্ট করার আগ্রহ দেখাক না কেন, ভারতীয় অধিনায়কের মন্তব্য থেকেই স্পষ্ট টেস্ট ক্রিকেট নিয়ে পরীক্ষা-নিরীক্ষায় নারাজ বিরাট।

ভারতীয় অধিনায়ক যখন চরমপন্থী মনোভাব দেখাচ্ছেন আইসিসির প্রস্তাবের বিরুদ্ধে, ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ডের প্রেসিডেন্ট তখন কিছুটা সাবধানী। শনিবার এক অনুষ্ঠানে সৌরভ জানান, ‘‘এখনও এই বিষয়ে সরাসরি কিছু বলার সময় আসেনি। আইসিসি থেকে আগে লিখিত প্রস্তাব আসুক তারপর ভাবা যাবে। আমার একার নয়. বিসিসিআই একটা টিম। সচিব, কোষাধক্ষ্যরা আছেন। সবার মতামত নিয়েই সবকিছু ঠিক হয়।’’

সৌরভকে প্রশ্ন করা হয় অনেক প্রাক্তন ক্রিকেটার তো এই নিয়ে মুখ খুলছেন। উত্তরে বোর্ড প্রেসিডেন্ট বলেন, ‘‘প্রাক্তন ক্রিকেটাররা বললে সেটা ওপিনিয়ন হয়। আমি বললে সেটা স্টেটমেন্ট হয়ে যাবে। আগে প্রস্তাব আসুক। তারপর ভাবা যাবে।’’

দিন-রাতের টেস্ট ম্যাচ নিয়ে যখন বিরাটরা খেলতে রাজি ছিলেন না। তখন বোর্ড প্রেসিডেন্ট হয়েই সৌরভকে রাজি করিয়ে ফেলেন ভারতীয় অধিনায়ককে। তবে চার দিনের টেস্ট ম্যাচের বিষয়টি এখনও সেরকম পর্যায় পৌঁছয়নি। আইসিসিও সবে ভাবনাচিন্তা শুরু করেছে। চার দিনের টেস্ট ম্যাচ শুরু হলেও তা ২০২৩-এর আগে হবে না। তাই সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায় এখন থেকেই বিষয়টিকে যে গুরুত্ব দিচ্ছেন না, তা দাদার মন্তব্য থেকেই স্পষ্ট।

শনিবার ডালহৌসি ক্লাবের পক্ষ থেকে বোর্ড প্রেসিডেন্ট হওয়ার জন্য সৌরভকে সংবর্ধনা দেওয়া হয়।অনুষ্ঠানে সৌরভ নিজের ক্রিকেট কেরিয়ার নিয়ে স্মৃতিচারণ করেন। ভারতীয় জার্সিতে প্রথম দিনের অভিজ্ঞতা থেকে প্রথম সেঞ্চুরি। অকপট উত্তর দেন মহারাজ। ভারতীয় বোর্ড প্রেসিডেন্ট হিসেবে নিজের ছাপ রেখে যেতে চান সৌরভ। দু’দিনের ঝটিকা মুম্বই সফর সেরে শনিবার সন্ধ্যেবেলায় শহরে ফেরেন সৌরভ।

First published: January 4, 2020, 11:40 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर