পুরোপুরি ফিট নন, লঙ্কা সফরে নেই শ্রেয়স

লঙ্কা সফরে পাওয়া যাবে না শ্রেয়সকে

৮ এপ্রিল বাঁ কাঁধের অস্ত্রোপচার সুষ্ঠুভাবে সম্পন্ন হয়েছে। যদিও এখনও পুরোপুরি সুস্থ নন শ্রেয়স আইয়ার। ফলে শ্রীলঙ্কা সফরে তাঁর খেলার সম্ভাবনা নেই

  • Share this:

    #মুম্বই: শ্রেয়স আইয়ার আগের থেকে উন্নতি করেছেন বটে। কিন্তু ম্যাচ ফিট হতে গেলে যা দরকার, সেই পর্যায়ে নিজেকে নিয়ে যেতে পারেননি এখনও। এই প্রতিভাবান ব্যাটসম্যান সাদা বলের ক্রিকেট ভারতীয় দলের সম্পদ। অস্ট্রেলিয়ার মাটিতেও অতীতে নিজের যোগ্যতা প্রমাণ করেছেন। দিল্লির হয়ে আইপিএল খেলা হয়নি এবার। আশা করা গিয়েছিল এতদিনে তিনি সম্পূর্ণ সুস্থ হয়ে যাবেন। গত ৮ এপ্রিল বাঁ কাঁধের অস্ত্রোপচার সুষ্ঠুভাবে সম্পন্ন হয়েছে। যদিও এখনও পুরোপুরি সুস্থ নন শ্রেয়স আইয়ার। ফলে শ্রীলঙ্কা সফরে তাঁর খেলার সম্ভাবনা নেই।

    ছয় মাস পরেই টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ। তাই আগামী জুলাই মাসে শ্রীলঙ্কা যাচ্ছে ভারতের রিজার্ভ দল। শ্রেয়স সুস্থ হলে তিনিই অধিনায়কত্ব করতেন। ক্রিকেট পন্ডিতদের এমনটাই ধারণা ছিল। তবে সেটা হচ্ছে না। গত ২৩ মার্চ ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে প্রথম একদিনের ম্যাচে ফিল্ডিং করার সময় চোট পেয়েছিলেন এই মুম্বইকর। ফলে আইপিএল-এ দিল্লি ক্যাপিটালসের হয়ে মাঠে নামতে পারেননি তিনি। বিসিসিআই-এর ডাক্তারদের মতে শ্রেয়সের পুরো সুস্থ হতে অন্তত তিন মাস সময় লাগবে।

    আসন্ন টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে একেবারে সুস্থ শ্রেয়সকে চান অধিনায়ক বিরাট কোহলি। তাই কোনও ঝুঁকি নিতে রাজি নয় বোর্ড। বিরাট ও রোহিত শর্মার অবর্তমানে কে শ্রীলঙ্কা সফরে অধিনায়কত্ব করেন সেটাই দেখার। শোনা যাচ্ছে শিখর ধওয়ন, ভুবনেশ্বর ও হার্দিক পান্ডিয়ার মধ্যে যে কোনও একজন অধিনায়ক হতে পারেন। আগামী ১৩ জুলাই থেকে শুরু হবে এই দ্বিপাক্ষিক সিরিজ। চলবে ২৭ জুলাই পর্যন্ত। তিনটি একদিনের ম্যাচ ছাড়াও শ্রীলঙ্কার বিরুদ্ধে একাধিক টি-টোয়েন্টি ম্যাচ খেলবে ভারত।

    শ্রেয়স নিয়মিত রিহ্যাব করছেন। কয়েকদিনের ভিতরে সাঁতার কাটা শুরু করবেন। আসলে ভারতীয় দলের রিজার্ভ বেঞ্চ এতটাই শক্তিশালী যে একজন বা দুজন না থাকলে খুব একটা সমস্যা হয় না। কিন্তু শ্রেয়স অধিনায়ক বিরাট কোহলির অত্যন্ত প্রিয় ব্যাটসম্যান। ভাল ফিল্ডারও বটে ! আপাতত তাঁকে সময় নিয়ে সুস্থ হতে বলেছে বোর্ড। এই ছেলেটির সবচেয়ে বড় গুণ স্পিন এবং ফাস্ট বোলিং সমান দক্ষতার সঙ্গে খেলতে পারেন।

    Published by:Rohan Chowdhury
    First published: