Home /News /sports /
Ranji Trophy champion MP : রঞ্জিতে নতুন ইতিহাস রচনা মধ্য প্রদেশের! চ্যাম্পিয়ন হয়ে মুম্বইকে হারাল ৬ উইকেটে

Ranji Trophy champion MP : রঞ্জিতে নতুন ইতিহাস রচনা মধ্য প্রদেশের! চ্যাম্পিয়ন হয়ে মুম্বইকে হারাল ৬ উইকেটে

চ্যাম্পিয়ন হওয়ার পর কোচ চন্দ্রকান্ত পন্ডিতকে নিয়ে সেলিব্রেশন মধ্যপ্রদেশ ক্রিকেটারদের

চ্যাম্পিয়ন হওয়ার পর কোচ চন্দ্রকান্ত পন্ডিতকে নিয়ে সেলিব্রেশন মধ্যপ্রদেশ ক্রিকেটারদের

Madhya Pradesh made history by winning first ever Ranji trophy beating Mumbai. ইতিহাসে প্রথমবার রঞ্জি চ্যাম্পিয়ন মধ্যপ্রদেশ, চ্যাম্পিয়ন হয়ে মুম্বইকে হারাল ৬ উইকেটে

  • Share this:

    #বেঙ্গালুরু: ইতিহাস স্পর্শ করার স্পর্ধা দেখাল মধ্যপ্রদেশ। রবিবার ভারতীয় ক্রিকেটের ঘরোয়া বিভাগে সবচেয়ে বড় ট্রফি জিতল তারা। তাও ৪১ বারের চ্যাম্পিয়ন মুম্বইকে হারিয়ে। নিঃসন্দেহে কৃতিত্বের দাবি রাখে এই পারফরম্যান্স। ম্যাচের সেরা নির্বাচিত হয়েছেন মধ্যপ্রদেশের শুভম শর্মা। মুম্বইকে ৬ উইকেটে হারাল তারা।

    খাতায়কলমে বড় নাম না থাকলেও মাঠে নেমে অসাধ্যসাধন করলেন চন্দ্রকান্ত পণ্ডিতের ছেলেরা। ২৩ বছর পর দ্বিতীয় বার রঞ্জির ফাইনালে উঠে চ্যাম্পিয়ন হল মধ্যপ্রদেশ। চতুর্থ দিনের শেষে মনে হচ্ছিল, প্রথম ইনিংসের লিডে মুম্বইকে হারাবে মধ্যপ্রদেশ। কিন্তু পঞ্চম দিন প্রথম সেশনের পরে সরাসরি জয়ের সুযোগ আসে তাদের সামনে।

    চতুর্থ দিনের খেলা শেষ হওয়ার সময় মুম্বইয়ের রান ছিল ২ উইকেটে ১১৩। পঞ্চম দিন আরও ১৫৬ রান যোগ করতে পারেন পৃথ্বী শ, যশস্বী জায়সবালরা। ম্যাচে সামান্যতম সুযোগ তৈরি করতে হলে দ্রত রান করা ছাড়া মুম্বইয়ের হাতে কোনও উপায় ছিল না। সেটাই করার চেষ্টা করেন দলের ব্যাটাররা।

    দ্রুত রান উঠলেও নিয়মিত ব্যবধানে উইকেট পড়ে। মুম্বইয়ের হয়ে ভাল ব্যাট করেন সুবেদ পারকর ও সরফরাজ খান। সুবেদ ৫১ ও সরফরাজ ৪৫ রান করেন। বাকিরা তেমন রান পাননি। সেমিফাইনালে মুম্বইয়ের হয়ে দুই ইনিংসেই শতরান করা যশস্বী দ্বিতীয় ইনিংসে মাত্র এক রান করে আউট হয়ে যান।

    মধ্যপ্রদেশের হয়ে কুমার কার্তিকেয় ৪টি এবং গৌরব যাদব ও পার্থ সাহানি ২টি করে উইকেট নেন। জবাবে ব্যাট করতে নেমে শুরুতেই যশ দুবের উইকেট হারায় মধ্যপ্রদেশ। তাতে অবশ্য চাপে পড়েননি দলের বাকি ব্যাটাররা। দ্বিতীয় উইকেটে জুটি বাঁধেন হিমাংশু মন্ত্রী ও শুভম শর্মা। দু’জনে মিলে দলকে জয়ের দিকে নিয়ে যাচ্ছিলেন। ৩৭ রান করে শামস মুলানির বলে আউট হন মন্ত্রী।

    ৩০ রান করে আউট হন শুভম। তাতে অবশ্য জিততে কোনও সমস্য়া হয়নি দলের। ৬ উইকেটে ম্যাচ জেতে মধ্য়প্রদেশ। ম্যাচ শেষে কান্না চাপতে পারেননি কোচ চন্দ্রকান্ত পন্ডিত। শেষ ছয় বার ফাইনাল খেলে চারবার চ্যাম্পিয়ন হল তার দল। ব্যক্তিগতভাবে কোচ হিসেবে এই নিয়ে মোট রঞ্জি ট্রফি ছয়বার জিতলেন।

    Published by:Rohan Chowdhury
    First published:

    Tags: Ranji Trophy Final

    পরবর্তী খবর