corona virus btn
corona virus btn
Loading

হাইকোর্টে বে-লাইন স্পিডস্টার শামি ! রাজ্যের কৈফিয়ত তলব 

হাইকোর্টে বে-লাইন স্পিডস্টার শামি ! রাজ্যের কৈফিয়ত তলব 

স্ত্রী হাসিন জাহানের করা মামলায় নড়বড়ে লাগছে শামির ডিফেন্স।

  • Share this:

#কলকাতা: নিউজিল্যান্ডে সিরিজের প্রথম একদিনের ম্যাচে হার হজম করতে হয়েছে ভারতকে। কিউই ব্যাটসম্যানদের সামনে বুধবার লাইন-লেংথে বেসামাল হয়েছেন স্পিডস্টার মহম্মদ শামি। কাকতালীয়ভাবে একইদিনে কলকাতা হাইকোর্টেও বে-লাইন হয়েছে শামির আইনি যুক্তি।

স্ত্রী হাসিন জাহানের করা মামলায় নড়বড়ে লেগেছে শামির ডিফেন্স। হাইকোর্টও তাই ক্রিকোর শামিকে মামলার নোটিস ধরানোর নির্দেশ দিয়েছে বুধবার। ২০১৮ সালে যাদবপুর থানায় এফআইআর রুজু করে হাসিন জাহান। স্বামী ও শ্বশুরবাড়ির লোকজনের বিরুদ্ধে ধর্ষণ-সহ একাধিক অভিযোগ আনেন তিনি। তদন্তের পর মহম্মদ শামি এবং তাঁর ভাইয়ের বিরুদ্ধে চার্জশিট দেয় কলকাতা পুলিশ। বধূনির্যাতন ও শ্লীলতাহানির চার্জশিটে শামিকে পলাতক দেখায় পুলিশ।

আলিপুর অতিরিক্ত চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি করে। গ্রেফতারি পরোয়ানা নির্দেশকে চ্যালেঞ্জ করে আলিপুর জেলা ও দায়রা আদালতে যায় ভারতের সুপারফাস্ট। ২৯ সেপ্টেম্বর ২০১৯, দায়রা আদালত শামির গ্রেফতারি পরোয়ানা সহ নিম্ন আদালতের সমস্ত বিচার প্রক্রিয়া ওপর স্থগিতাদেশ জারি করে। তারপর থেকে শামির বিরুদ্ধে তাঁর স্ত্রী'র করা মামলা হিমঘরে । শামির গ্রেফতারির স্থগিতাদেশকে চ্যালেঞ্জ করে হাইকোর্টে মামলা ঠোকেন হাসিন।

হাসিনের আইনজীবী আশিসকুমার চৌধুরী কথায়, "আদালত বিস্ময় প্রকাশ করেছে দায়রা আদালতের নির্দেশে। গ্রেফতারি পরোয়ানায় স্থগিতাদেশের পাশাপাশি পুরো বিচার প্রক্রিয়ায় স্থগিত দেশ কীভাবে হয়, সেই নিয়ে প্রশ্ন তুলেছে আদালত।" তিনি আরও জানান,  আলিপুর জেলা ও দায়রা আদালতের এমন নির্দেশ-এর বিরোধিতা কেন করলেন না রাজ্যের সরকারি আইনজীবী ? সেই বিষয়েরও কৈফিয়ৎ চায় হাইকোর্ট। বিচারপতি জয় সেনগুপ্ত শামির নিম্ন আদালতের মামলার যাবতীয় নথি ও কেস ডায়েরি তলব করেছে। শামিকে নোটিস ধরানোরও নির্দেশ দিয়েছে হাইকোর্ট। দু’সপ্তাহ পর হাসিন জাহানের এই মামলার ফের শুনানি হবে।

Arnab Hazra

Published by: Siddhartha Sarkar
First published: February 6, 2020, 10:28 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर