তিনটে আলাদা দল তৈরির ক্ষমতা আছে ভারতের, উচ্ছ্বসিত পাক তারকা

ভারতীয় ক্রিকেটের গভীরতা দুনিয়ার সেরা বলছেন কামরান

আকমল মনে করেন একটা বা দুটো নয়, তিনটি পৃথক জাতীয় দল তৈরি করার ক্ষমতা আছে বিসিসিআইয়ের। আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে অনেকদিন পর দারুণ একটা ঘটনা ঘটতে যাচ্ছে। একই সঙ্গে দুটি দেশে খেলবে ভারতের দুটি জাতীয় দল

  • Share this:

    #করাচি: ভারতের বিপক্ষে প্রচুর ম্যাচ খেলেছেন তিনি। মারকুটে ব্যাটসম্যান এবং উইকেটরক্ষক হিসেবে খারাপ ছিলেন না। সেই কামরান আকমল বর্তমান ভারতীয় ক্রিকেট দলের শক্তি দেখে বিস্মিত। এই মুহূর্তে ক্রিকেট বিশ্বের আর কোনও দলের ভারতের মত গভীরতা নেই নিশ্চিত তিনি। আকমল মনে করেন একটা বা দুটো নয়, তিনটি পৃথক জাতীয় দল তৈরি করার ক্ষমতা আছে বিসিসিআইয়ের। আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে অনেকদিন পর দারুণ একটা ঘটনা ঘটতে যাচ্ছে। একই সঙ্গে দুটি দেশে খেলবে ভারতের দুটি জাতীয় দল।

    ইংল্যান্ড সফরে যাচ্ছে ভারতের ২০ জনের একটি দল। সব ঠিকঠাক থাকলে একই সময় আরেকটি দল যাবে শ্রীলঙ্কা সফরে। জাতীয় দলের পাইপলাইনে এখন প্রচুর ক্রিকেটার। পাকিস্তানের প্রাক্তন উইকেটকিপার-ব্যাটসম্যান কামরান আকমল মনে করেন, বিসিসিআই এখন তিনটি দল বানানোর ক্ষমতা রাখে। নিজের ইউটিউব চ্যানেলে আকমল বলেন, 'দুটি আলাদা দল একই সময় ভারতকে প্রতিনিধিত্ব করবে, এই ধারণাটাকেই কৃতিত্ব দিতে হয়। সেই দেশের ক্রিকেট কতটা শক্তিশালী হলে একই সঙ্গে দুটি নয়, তিনটি আন্তর্জাতিক মানের দল গড়ে ফেলতে পারে। এটার একমাত্র কারণ হল, তৃণমূল ক্রিকেটকে ভারত খুব বেশি গুরুত্ব দেয়। ছোটদের নিয়ে রাহুল দ্রাবিড় প্রায় সাত-আট বছর ধরে কাজ করছেন। তৃণমূল ক্রিকেটারদের উঠিয়ে এনে ভারতীয় ক্রিকেটের ভিতটা শক্ত করে দিয়েছেন রাহুল দ্রাবিড়।'

    মহেন্দ্র সিং ধোনি বা বিরাট কোহলির মতো অধিনায়কেরাও ভারতীয় ক্রিকেটকে এগিয়ে নিয়ে যাচ্ছেন বলে মন্তব্য করেন আকমল, 'অধিনায়ক হিসেবে প্রথমে ধোনি এবং এখন বিরাট কোহলির কথা বলতে হয়। খুব সুন্দরভাবে দলকে এগিয়ে নিয়ে যাচ্ছেন। এর মাঝেই আবার কোহলি যখন বিশ্রামের জন্য সরে দাঁড়ায়, তখন রোহিত শর্মা সেই দায়িত্ব নেয়। ভারতের অধিনায়কেরও অনেক বিকল্প আছে। রোহিত শর্মা কোনো কারণে চোট পেলে আছেন লোকেশ রাহুল। তাই বড় ক্রিকেটাররা খেলতে না পারলেও ভারত সমস্যায় পড়ে না।'

    কামরান মনে করেন ভারতের সঙ্গে পাকিস্তানের তুলনা এই মুহূর্তে করা উচিত নয়। যে জায়গায় ভারত এগিয়ে গিয়েছে, সেই জায়গায় পৌঁছাতে পাকিস্তানের অনেক সময় লাগবে নিশ্চিত তিনি। ইংল্যান্ড এবং অস্ট্রেলিয়ার ভবিষ্যৎ প্রজন্মের থেকেও ভারতের ভবিষ্যৎ প্রজন্ম বেশি তৈরি বলে মন্তব্য করেছেন পাকিস্তানের এই প্রাক্তন তারকা।

    Published by:Rohan Chowdhury
    First published: