• Home
  • »
  • News
  • »
  • sports
  • »
  • IPL FRANCHISEE OFFICIALS WORRIED ABOUT HOTELS AND QUARANTINE IN UAE SMJ

IPL 2021 In UAE: সামনেই আইপিএল, হোটেল আর কোয়ারেন্টাইন নিয়ে চিন্তায় ফ্র্যাঞ্চাইজি কর্তারা

দুবাইয়ে হোটেল নিয়ে চিন্তায় আইপিএল ফ্রাঞ্চাইজির কর্তারা।

দুবাইয়ে হোটেল নিয়ে চিন্তায় আইপিএল ফ্রাঞ্চাইজির কর্তারা।

  • Share this:

#দুবাই:

অসমাপ্ত আইপিএলের সূচি ঘোষণা হয়ে গিয়েছে ইতিমধ্যেই। ১৯ সেপ্টেম্বর থেকে শুরু থমকে থাকা আইপিএল। সূচি ঘোষণা হওয়ার পর থেকেই তৎপর সমস্ত ফ্র‍্যাঞ্চাইজির কর্তারা। টেনেটুনে হাতে আর মাত্র দেড় মাস সময়। ফ্র‍্যাঞ্চাইজিগুলো তাই প্রস্তুতি শুরু করে দিতে মরিয়া। একাধিক ফ্র‍্যাঞ্চাইজির কর্তারা চাইছেন আগস্টের মাঝামাঝি সংযুক্ত আরব আমিরশাহীতে পৌঁছে যেতে। টুর্নামেন্ট শুরু হওয়ার আগে এক মাস সময় প্রস্তুতির জন্য প্রয়োজন বলে মনে করছে বেশিরভাগ ফ্র‍্যাঞ্চাইজি।

এমনিতে দেশে থাকলে বর্ষার কারণে অনুশীলন করার সম্ভাবনা নেই। জুলাই, অগাস্ট মাসে দেশ জুড়ে প্রবল বর্ষা চলে। বেশ কয়েকটি জায়গায় ইতিমধ্যেই প্রবল বৃষ্টি হচ্ছে। তাই দেশে বসে অহেতুক সময় নষ্ট করার মানে হয় না বলেই মনে করেন কর্তারা। ফ্র‍্যাঞ্চাইজি গুলোর যুক্তি, ১৫ অগাস্টের মধ্যে সংযুক্ত আরব আমিরশাহী পৌঁছে যেতে পারলে কোয়ারেন্টাইনের নিয়ম কাটিয়ে অগাস্টের শেষ দিক থেকে অনুশীলন শুরু করা সম্ভব। যারা ভারতীয় দলে নেই সে সমস্ত ক্রিকেটারদের নিয়ে অনুশীলন শুরু করে দিতে চাইছেন কর্তারা। বোর্ডের সঙ্গে এই নিয়ে কথাবার্তা বলছে ফ্র্যাঞ্চাইজি গুলো। বোর্ডের সবুজ সংকেত পেলেই সংযুক্ত আরব আমিরশাহী পাড়ি দিতে পারবে দলগুলো।

শুধু অনুশীলনের সমস্যাই নয়, আইপিএলের আগে বেশ কয়েকটি বিষয় নিয়ে চিন্তিত ফ্র্যাঞ্চাইজিগুলো। অন্যতম সমস্যা হোটেল। আগস্ট মাসের প্রথম দিন থেকে শুরু হচ্ছে দুবাই এক্সপো। যার ফলে সেদেশে হোটেলের সংখ্যা এবং রুম অনেকটাই কমে গেছে। হোটেল ভাড়া অনেকটাই বেড়ে গেছে। পুরনো দামে আর হোটেল মিলছে না। অনেক ফ্র‍্যাঞ্চাইজি চাইছে, এমন হোটেল নিতে যেখানে বাকি বোর্ডারদের সঙ্গে লিফ্ট এবং যাতায়াতের জায়গা আলাদা থাকে। স্বতন্ত্র উইং আছে এরকম হোটেলই পছন্দ আট দলের কর্তাদের। হোটেলে ঢোকা এবং বেরোনোর জায়গা আলাদা না থাকায় গত বছর সমস্যায় পড়তে হয়েছিল একটি দলকে। কয়েকটি দল পরিবর্তন করেছে এই বছর। দলের কর্তারা চাইছেন সে দেশে পৌঁছে হোটেল কর্তৃপক্ষের সঙ্গে মুখোমুখি আলোচনা করে সমস্ত ব্লু প্রিন্ট তৈরি করতে। কতজন হোটেল স্টাফ দলের সঙ্গে থাকবে এবং কিভাবে দলকে আলাদা জৈব সুরক্ষা বলয়ের মধ্যে রাখা হবে তা নিয়ে হোটেল কর্তৃপক্ষের সঙ্গে আলোচনা প্রয়োজন বলে মনে করেন কর্তারা।

করোনার কারণে আইপিএলে আর বাঁধা পড়ুক তা চাইছেন না আট দলের কর্তারাই। তবে বিমান না চলায় এখনই ভারত থেকে সংযুক্ত আরব আমিরশাহীতে যাওয়ার অনুমতি নেই ফ্র্যাঞ্চাইজি কর্তাদের। হোটেল সমস্যা ছাড়াও কর্তাদের মাথাব্যাথা কোয়ারেন্টাইনের নিয়ম নিয়ে। কারণ সংযুক্ত আরব আমিরশাহীতে কোয়ারেন্টাইনের নিয়ম সব জায়গায় এক হয় না। দুবাইয়ের নিয়ম আর আবুধাবির নিয়ম আলাদা। গতবছর ফ্র্যাঞ্চাইজি গুলোকে কোয়ারেন্টাইনের নিয়ম নিয়ে সমস্যায় পড়তে হয়েছিল। ভারত থেকে যে নিয়ম জেনে গিয়েছিলেন কর্তারা। সে দেশের নামার পর দেখা যায় নিয়মে অনেক পরিবর্তন রয়েছে। তাই এই বছর সবার আগে থাকে ঠিক করেই আগস্ট মাসের মাঝামাঝি সংযুক্ত আরব আমিরশাহী পৌঁছে যেতে চাইছে আইপিএলের আটটি দল।

Published by:Suman Majumder
First published: