IPL 2021: খেলতে না এলে বিদেশি ক্রিকেটারদের টাকা কাটবে বিসিসিআই

আইপিএলের বাকি অংশে না এলে বিদেশিদের টাকা কাটবে বিসিসিআই

বিদেশি ক্রিকেটাররা আমিরশাহিতে আইপিএলের বাকি ম্যাচগুলি খেলতে না গেলে, তাঁদের বেতন কাটা যাবে। যতগুলো ম্যাচ তাঁরা ফ্র্যাঞ্চাইজির সঙ্গে কাটিয়েছেন, চুক্তি মতো সেই পরিমাণ অর্থই পাবেন তাঁরা

  • Share this:

    #দুবাই: ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ডের সভাপতি রাজীব শুক্লা আগেই জানিয়েছিলেন হঠাৎ করে বন্ধ করে দিতে হওয়া আইপিএলের বাকি অংশ আয়োজন করা হবে। ভারতীয় বোর্ডের ওপর চাপ ছিল একাধিক। ফ্র্যাঞ্চাইজিদের চাপ, স্পনসরদের চাপ, টিভি চ্যানেলের চাপ। তাই যে করেই হোক বাকি থাকা ৩১ টি ম্যাচ বোর্ড যে শেষ করবে তা স্পষ্ট ছিল। না হলে বিশাল পরিমাণ আর্থিক ক্ষতি বহন করতে হত বোর্ডকে। বায়ো-বাবল ভেঙে পড়ায় স্থগিত হয়ে যাওয়া আইপিএল পুনরায় শুরু হবে সেপ্টেম্বরে।

    এবার অবশ্য ভারতে নয়, বরং টুর্নামেন্টের বাকি ম্যাচগুলি আয়োজিত হবে আমিরশাহিতে। সেপ্টেম্বর-অক্টোবরের উইন্ডোয় আইপিএল আয়োজিত হলে বিদেশি তারকাদের টুর্নামেন্ট পাওয়া যাবে কিনা, তা নিয়ে তৈরি হয়েছে সংশয়। ইংল্যান্ড ক্রিকেট বোর্ড স্পষ্ট জানিয়ে দিয়েছে যে, তারা সেপ্টেম্বরে আইপিএলের বাকি ম্যাচগুলির জন্য ক্রিকেটারদের ছাড়বে না। এমনতেই অস্ট্রেলিয়ার ক্রিকেটারদের নিয়ে একটা সংশয় রয়েছেই, তার উপর প্যাট কামিন্সের মতো তারকা বাকি টুর্নামেন্ট খেলতে আমিরশাহি যাবেন না বলে জানিয়েছেন।

    বিসিসিআই অবশ্য এমন পরিস্থিতিতে নিজেদের নিয়মে স্থির থাকতে চায়। এক বোর্ড কর্তা InsideSport-কে জানিয়েছেন যে, বিদেশি ক্রিকেটাররা আমিরশাহিতে আইপিএলের বাকি ম্যাচগুলি খেলতে না গেলে, তাঁদের বেতন কাটা যাবে। যতগুলো ম্যাচ তাঁরা ফ্র্যাঞ্চাইজির সঙ্গে কাটিয়েছেন, চুক্তি মতো সেই পরিমাণ অর্থই পাবেন তাঁরা।  আসলে আইপিএলের চুক্তিতেই রয়েছে যে, কোনও ক্রিকেটার দলের সঙ্গে থাকাকালীন চোট পেলেও তাঁকে পুরো অর্থ মিটিয়ে দেওয়া হবে। বিসিসিআই কোনও কারণে টুর্নামেন্ট আয়োজন করতে ব্যর্থ হলেও তাঁরা চুক্তির পুরো টাকা পেয়ে যাবেন। তবে যদি ক্রিকেটাররা কোনও কারণে টুর্নামেন্ট থেকে সরে দাঁড়ান, তবে যতগুলি ম্যাচে তাঁরা দলের সঙ্গে ছিলেন, সেই অনুযায়ী তাঁদের পারিশ্রমিক দেওয়া হবে।

    সেই অনুযায়ী যদি কেকেআরের অজি পেসার প্যাট কামিন্স আইপিএল খেলতে না আসেন, তবে তিনি অর্ধেক টুর্নামেন্টে দলের সঙ্গে থাকার জন্য চুক্তির অর্ধেক টাকা পাবেন। ১৫.৫ কোটি টাকার পরিবর্তে তিনি পাবেন ৭.৭৫ কোটি টাকা। ঠিক এই ভাবেই বাকি বিদেশি ক্রিকেটার ওরা নিজেদের চুক্তি অনুযায়ী ফিরে না এলে অর্ধেক টাকা পাবেন।

    দুদিন আগে বাংলাদেশ বোর্ড পরিষ্কার করে দিয়েছিল তাঁরাও আইপিএলের বাকি অংশের জন্য ক্রিকেটারদের ছাড়বে না। ঋদ্ধিমান সাহার মতো ভারতীয় ক্রিকেটার আগেই জানিয়েছিলেন বিদেশি ছাড়া আইপিএল মানে ঘরোয়া টুর্নামেন্ট এর বেশি কিছু না। বিদেশি ছাড়া আইপিএল আবার ভাবা যায় নাকি ? এখন দেখা যাক সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায়ের বোর্ড শেষপর্যন্ত সবাইকে না পারলেও, কিছু বিদেশি আনতে পারে কিনা।

    Published by:Rohan Chowdhury
    First published: