ভারতীয় দলে হার্দিকের ভবিষ্যৎ নিশ্চিত নয় ! কেন ?

বল না করলে হার্দিকের টিকে থাকা মুশকিল

আগেই বিশ্ব টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপ ফাইনালে ভারতীয় দলে জায়গা পাননি হার্দিক পান্ডিয়া। এবার সীমিত ওভারের ক্রিকেটেও জাতীয় দল থেকে তিনি বাদ পড়তে পারেন। এমনই আশঙ্কা করছেন প্রাক্তন নির্বাচক শরণদীপ সিং

  • Share this:

    #মুম্বই: জাতীয় দলে ক্রমশ অনিশ্চিত হয়ে পড়ছেন হার্দিক পান্ডিয়া। কিন্তু কয়েক বছর আগেও যাঁকে ছাড়া টিম ইন্ডিয়া ভাবা যেত না, সেই হার্দিককে নিয়ে হঠাৎ করে আশঙ্কার কারণ কী ? উঠছে প্রশ্ন। রহস্য ঘনীভূত হচ্ছে। আগেই বিশ্ব টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপ ফাইনালে ভারতীয় দলে জায়গা পাননি হার্দিক পান্ডিয়া। এবার সীমিত ওভারের ক্রিকেটেও জাতীয় দল থেকে তিনি বাদ পড়তে পারেন। এমনই আশঙ্কা করছেন প্রাক্তন নির্বাচক শরণদীপ সিং। বেশ কয়েকটা সম্ভাবনার কথা বিচার করেই এই বক্তব্য পেশ করেছেন তিনি।

    এক সাক্ষাৎকারে তিনি বলেছেন, ‘হার্দিককে আমরা প্রথম থেকেই অলরাউন্ডার হিসেবেই ভেবে এসেছি। কিন্তু হঠাৎ করে ও বল করা বন্ধ করে দিয়েছে। সেই কারণে টেস্ট দল থেকে বাদ দেওয়া হয়েছে ওকে। হার্দিককে স্পেশালিস্ট ব্যাটসম্যান হিসেবে খেলানো সম্ভব নয়। তাতে দলের ভারসাম্য নষ্ট হবে। একজন অতিরিক্ত বোলার খেলাতে হলে সূর্যকুমার যাদবের মতো ব্যাটসম্যানকে বাদ দিতে হবে। ইংল্যান্ড, অস্ট্রেলিয়ার মতো শক্তিশালী প্রতিপক্ষের বিরুদ্ধে ওয়ান ডে কিংবা টি-২০ সিরিজে পাঁচ স্পেশালিস্ট বোলার খেলানোর পরিকল্পনা নেই ভারতীয় টিম ম্যানেজমেন্টের। তাই সীমিত ওভারের ক্রিকেটে ভারতের জার্সি গায়ে খেলা চালিয়ে যেতে হলে হার্দিককে বল করতেই হবে। একদিনের ক্রিকেটে ১০ ওভার ও টি-২০’তে চার ওভার হাত না ঘোরাতে পারলে, ওর পক্ষে টিকে থাকা মুশকিল হবে। সেক্ষেত্রে অক্ষর প্যাটেল, ওয়াশিংটন সুন্দর কিংবা রবীন্দ্র জাদেজাকে অলরাউন্ডার হিসেবে ওর জায়গায় ভাবার সুযোগ রয়েছে।’

    উল্লেখ্য, ২০১৯ সালে পিঠে অস্ত্রোপচার হয়েছিল হার্দিকের। তারপর থেকে তাঁকে খুব একটা বল করতে দেখা যায়নি। এবারের আইপিএলে মুম্বই ইন্ডিয়ান্সের জার্সি গায়ে সাতটি ম্যাচ খেলেছিলেন। কিন্তু বল করেননি। তাই প্রশ্ন উঠছে, হার্দিক কী পুরো ফিট নন ? এদিকে, ইংল্যান্ড সফরগামী ভারতীয় দলে পৃথ্বী শ না থাকায় কিছুটা বিস্মিত শরণদীপ।

    তাঁর কথায়, ‘পৃথ্বী খুবই প্রতিভাবান ক্রিকেটার। কেরিয়ারের শুরুতেই ওকে বার বার ধাক্কা খেতে হচ্ছে। এবার ঘরোয়া ক্রিকেটে দুর্দান্ত ফর্মে ছিল। ভালো খেলছিল আইপিএলেও। তাই ইংল্যান্ড সফরে ওকে দলে রাখাই যেত।’ কোভিডের বিরুদ্ধে লড়াইয়ে সামিল হয়েছেন শরণদীপ। দেশের বিভিন্ন প্রান্তে অক্সিজেন পৌঁছে দেওয়ার কাজে হাত লাগিয়েছেন তিনি। এই মহৎ কাজের জন্য সময় বের করতে রাত জেগে ওএনজিসি’র ডিউটি করছেন বলেও জানিয়েছেন শরণদীপ। তবে তিনি জানিয়েছেন হার্দিকের ব্যাপারটা একান্তই তাঁর ব্যক্তিগত মতামত।

    Published by:Rohan Chowdhury
    First published: