Gautam Gambhir: সাধারণ মানুষকে সাহায্য করে ফ্যাসাদে! দিল্লি পুলিসের নজরে গৌতম গম্ভীর

করোনা মহামারীর সময় সাধারণ মানুষকে সবরকম সহায়তা করতে চেয়েছিলেন তিনি।

করোনা মহামারীর সময় সাধারণ মানুষকে সবরকম সহায়তা করতে চেয়েছিলেন তিনি।

  • Share this:

    #নয়াদিল্লি: করোনা মহামারীর সময় সাধারণ মানুষকে সবরকম সহায়তা করতে চেয়েছিলেন তিনি। দুঃসময়ে সাধারণ মানুষের পাশে থাকতে কখনও ক্যান্টিন খুলেছেন তিনি, কখনও আবার অ্যান্টিভাইরাল ওষুধ বিলি করেছেন। তবে এবার মানুষকে সহায়তা করার জন্যই সমস্যা বাড়ল গৌতম গম্ভীরের। ভারতীয় দলের প্রাক্তন ওপেনার এখন বিজেপির সাংসদ। করোনার সময় তিনি রাত-দিন এক করে মানুষের পাশে থেকেছেন। তবে এবার মানুষের উপকার করার জন্যই দিল্লি পুলিসের নজরে গম্ভীর। সাধারণ মানুষকে বিনামূল্যে ওষুধ বিতরণ করার জন্য ফ্যাসাদে পড়েছেন বিজেপি সাংসদ।

    ২৫ এপ্রিল গম্ভীর একটি টুইট করেছিলেন। সেই টুইটে তিনি লিখেছিলেন, করোনা মহামারীর এই দুঃসময়ে আমাদের পরস্পরকে সাহায্য করতে হবে। একে অপরের হাতে হাত রেখে চলতে হবে। আমি দিল্লিবাসীদের মধ্যে বিনামূল্যে Fabiflu ওষুধ বিতরণ করব। আপনারা ২২, পুসা রোডের GGF অফিস থেকে সেই ওষুধ সংগ্রহ করতে পারবেন। সকাল দশটা থেকে বিকেল চারটে পর্যন্ত যত বেশি সম্ভব মানুষকে এই ওষুধ বিতরণ করা হবে। আপনারা আধার কার্ড ও ডাক্তারের প্রেসক্রিপশন নিয়ে আসতে পারেন। আমরা অক্সিজেন সিলিন্ডারের ব্যবস্থা করার চেষ্টা করব। এই টুইটের পর থেকেই গৌতম গম্ভীরের সমস্যা আরও বেড়ে গিয়েছে।

    তিনি মানুষের সেবা করার জন্য এমন টুইট করেছিলেন। কিন্তু দিল্লি পুলিস এখন গম্ভীরের কাছে জানতে চেয়েছে, তিনি এত ওষুধ কোথা থেকে পেয়েছিলেন! আর মহামারীর সময় এত ওষুধ তিনি মজুত করে রেখেছিলেন কেন! ইতিমধ্যে বিরোধী দলের নেতারা গম্ভীরের সমালোচনা শুরু করেছেন। বিজেপি সাংসদ অবশ্য টুইট করে লিখেছেন, অন্তত এই সময় বিরোধীদের রাজনীতি না করা উচিত। দিল্লি পুলিস আমার কাছে জবাব চেয়েছে। আমি জবাব দিয়েছি। তবে কোনও কিছুই এই সময় আমাকে মানুষের পাশে থাকার ব্যাপারে আটকাতে পারবে না।

    এই কঠিন সময় আমাদের সবাইকে মানুষের পাশে দাঁড়াতে হবে। তবেই মহামারীর এই বিপদ কাটবে।
    Published by:Suman Majumder
    First published: