corona virus btn
corona virus btn
Loading

দিনভর ভার্চুয়াল অনুষ্ঠান, লকডাউনের কলকাতা বুধে মজবে সবুজ-মেরুন ছন্দে

দিনভর ভার্চুয়াল অনুষ্ঠান, লকডাউনের কলকাতা বুধে মজবে সবুজ-মেরুন ছন্দে

সচিবের হট সিটে বসার পর প্রথম মোহনবাগান দিবস ঝলমলে করে করার পরিকল্পনা ছিল সৃঞ্জয় বোসের। বাধা হয়ে এল কোভিড আবহ।

  • Share this:

#কলকাতা: লকডাউন চলুক নিজের নিয়মে। হোক না ভার্চুয়াল। তবু বুধবার সবুজ-মেরুন ছন্দে দুলবে কলকাতা। সচিবের হট সিটে বসার পর প্রথম মোহনবাগান দিবস ঝলমলে করে করার পরিকল্পনা ছিল সৃঞ্জয় বোসের। বাধা হয়ে এল কোভিড আবহ। ২৯ জুলাই রাজ্য সরকার পূর্ণ লকডাউন ঘোষণা করার পর বাকি পরিকল্পনাও মাটি। কিন্তু দিনটা যে ২৯ জুলাই! মোহনবাগানীদের আবেগের দিন। গর্বের দিন। তাই দিনভর ঢেলে সাজানো হয়েছে রং-বেরংয়ের ভার্চুয়াল অনুষ্ঠানে।

সকাল ন'টায় সভাপতি টুটু বোসের বক্তৃতা দিয়ে দিনের শুরু। এরপর একে একে উদ্বোধনী অনুষ্ঠান, মোহনবাগান দিবসের কোলাজ ও এবারের সম্মান প্রাপকদের বার্তা ও সম্মান অর্পণের ভিডিও। বিকেল পাঁচটায় শতাব্দী পুরনো ক্লাবের আগামীর পরিকল্পনা নিয়ে সদস্য সমর্থকদের মুখোমুখি হবেন সচিব সৃঞ্জয় বোস ও অর্থ সচিব দেবাশীষ দত্ত। ক্লাবের ভবিষ্যৎ কর্মসূচির রূপরেখা ও আগামী দিনে কোন পথে ক্লাব এগোবে সেই নিয়ে নিজেদের ভাবনা কথা জানাবেন ক্লাবের দুই শীর্ষ কর্তা। সন্ধে ৫টা ৪৫ মিনিটে বাগানের ঘরের ছেলে সুব্রত ভট্টাচার্য, সত্যজিৎ চট্টোপাধ্যায় ও শিলটন পাল বলবেন ঐতিহ‍্যের ক্লাবে তাদের নানান ওঠাপড়ার অভিজ্ঞতা ও বেড়ে ওঠার কাহিনী। সন্ধ্যা সাড়ে ছয়টায় এক ফ্রেমে আসবেন বাগানের তিন আইকন ভাইচুং ভুটিয়া, হোসে রামিরেজ ব্যারেটো ও সনি নর্ডি। সঙ্গে থাকবেন হালফিলের নায়ক জোসেফ বেইতিয়া। সবুজ-মেরুন জার্সি আবারও গায়ে তোলার স্বপ্ন সফল হওয়ার কথা বলবেন প্রীতম কোটাল, প্রবীর দাস, প্রণয় হালদার ও শুভাশীস বসুর মত ফুটবলাররা।

সবশেষে বাগান সমর্থক হিসেবে পরিচিত অনিন্দ্য চট্টোপাধ্যায়, লোপামুদ্রা মিত্র, অনুপম রায়, দেবশঙ্কর হালদারদের মত সমাজের বিভিন্ন ক্ষেত্রে প্রতিষ্ঠিতরা পারফর্ম করবেন অনলাইন প্ল‍্যাটফর্মে।

অন্যবার এই দিনটায় নিয়ন আলোয় সেজে ওঠে মোহনবাগান। সানাইয়ের সুরে মোহিত হয় বটতলা। ক্লাব চত্বর গমগম করে সদস্য সমর্থকদের আনাগোনায়। কোভিড আতঙ্কে এবার গঙ্গাপাড়ের ক্লাবে সদস্য সমর্থকদের উপচে পড়াটা থাকবে না। কিন্তু সকাল থেকেই শহর যে সহজে দুলবে সবুজ মেরুন ছন্দে, সেটা হলফ করেই বলা যায়।

PARADIP GHOSH 

Published by: Siddhartha Sarkar
First published: July 28, 2020, 8:50 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर