ক্রিস্টমাসে দক্ষিণ ভারতের এই শহর অভিনব শ্রদ্ধার্ঘ্য জানাল মারাদোনাকে

দক্ষিণ ভারতের এই শহর অভিনব শ্রদ্ধার্ঘ্য জানাল মারাদোনাকে

আর্জেন্তিনাকে বিশ্বকাপ দেওয়া অধিনায়ককে অভিনব শ্রদ্ধার্ঘ্য জানাল তামিলনাড়ুর রামানাথাপুরম৷ সেখানকার এক বেকারিতে চারদিন ধরে তৈরি হল একটি ৬ ফুটের কেক৷ যা দেখলে মনে হবে যেন ঠিক মারাদোনার মূর্তি৷

  • Share this:

    #রামানাথাপুরমশিল্পীদের কখনও মৃত্যু হয় না৷ কথাটা শতকরা একশ শতাংশই সত্যি৷ কারণ শিল্পীরা বেঁচে থাকেন অনুগামীদের মনে, তাঁর সৃষ্টির মধ্যে দিয়ে৷ ফুটবল খেলা যদি শিল্প হয়ে থাকে, তাহলে তাঁর অন্যতম সেরা শিল্পী হিসেবেই এই খেলার ইতিহাসে ভাস্বর হয়ে থাকবেন দিয়েগো মারাদোনা৷

    ঠিক এক মাস দু'দিন আগেই আপামোর বিশ্বকে কাঁদিয়ে চলে গিয়েছিলেন 'ফুটবল ঈশ্বর' মারাদোনা৷ আজও তাঁর প্রয়াণের শোক কাটিয়ে উঠতে পারেননি বহু মানুষ৷ আর্জেন্তিনাকে বিশ্বকাপ দেওয়া অধিনায়ককে অভিনব শ্রদ্ধার্ঘ্য জানাল তামিলনাড়ুর রামানাথাপুরম৷ সেখানকার এক বেকারিতে চারদিন ধরে তৈরি হল একটি ৬ ফুটের কেক৷ যা দেখলে মনে হবে যেন মারাদোনার মূর্তি৷ ৬০ কেজি চিনি ও ২৭০টি ডিম ব্যবহার করা হয়েছে এই কেকটি বানাতে৷ এমনটাই রিপোর্ট সংবাদ সংস্থা এএনআই-এর৷

    রামানাথাপুরমের ওই বেকারির কর্মচারী সতীশরঙ্গনাথন জানিয়েছেন, "আমরা মারাদোনাকে শ্রদ্ধা জানাতেই এই কেক বানিয়েছি৷ উনি গত মাসে আমাদের ছেড়ে চলে গিয়েছেন৷ ঠিক যেমন ভাবে সচিন তেন্ডুলকর ক্রিকেটের জন্য, উসেইন বোল্টকে দৌড়ের জন্য, মাইক টাইসন বক্সিংয়ের জন্য মনে থাকবেন, তেমনই মারাদোনা মনে থাকবেন ফুটবলের জন্য৷ আমরা চাই তরুণ প্রজন্ম মোবাইল ফোন ও কম্পিউটার ছেড়ে মাঠে গিয়ে খেলুক৷"রামানাথাপুরমের এই বেকারিতে প্রতি বছরই ক্রিস্টমাসের সময় কেক দিয়ে সেলেব্রিটিদের মূর্তি বানানো হয়৷ শেষ কয়েক বছরে ইলাইয়ারাজা, আব্দুল কালামের মতো মানুষদের কেকের মূর্তি হয়েছে৷

    ৬০ বছর বয়সে হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে গত ২৫ নভেম্বর মারা যান মারাদোনা৷ মরেও তিনি শান্তি পাননি৷ তাঁর সম্পত্তির ভাগাভাগি নিয়ে তাঁর ছেলে-মেয়ে থেকে শুরু করে প্রাক্তন স্ত্রী-বান্ধবীরাও রয়েছেন৷ এমনকী লড়াইয়ে রয়েছেন সাংবাদিক থেকে চিত্রসাংবাদিকও৷ মনে করা হচ্ছে প্রয়াত মারাদোনার সম্পত্তির পরিমাণ ১ থেকে ৪ কোটি ডলার। আদালতে দাবি উঠেছে, প্রমাণ সংগ্রহের জন্য দরকার হলে মারাদোনাকে কবর খুঁড়ে বার করা হতে পারে৷

    Published by:Subhapam Saha
    First published: