আকর্ষণের কেন্দ্রে মেহতাব, যাদবপুর বিশ্ববিদ্যালয়ের সল্টলেক ক্যাম্পাসে জমজমাট 'ফুটবল একাদশী'

আকর্ষণের কেন্দ্রে মেহতাব, যাদবপুর বিশ্ববিদ্যালয়ের সল্টলেক ক্যাম্পাসে জমজমাট 'ফুটবল একাদশী'

বাঙালিদের চিরকালীন আবেগ বলতেই দুর্গাপুজো ও ফুটবল। এই দুটোকে মিশিয়েই বেশ কিছু বছর ধরে হয়ে আসছে ফুটবল একাদশী।

বাঙালিদের চিরকালীন আবেগ বলতেই দুর্গাপুজো ও ফুটবল। এই দুটোকে মিশিয়েই বেশ কিছু বছর ধরে হয়ে আসছে ফুটবল একাদশী।

  • Share this:

#কলকাতা:আইএসএল-এর দামামা বেজে গিয়েছে। গোয়াতে হাড্ডাহাড্ডি লড়াইয়ের জন্য তৈরি এটিকে মোহনবাগান ও কেরালা ব্লাস্টার্স প্রথমবার আইএসএল-এ ডার্বি দেখতেও মুখিয়ে আছে ফুটবলপ্রেমীরা। কলকাতায় অবশ্য পুজোর পরে পরেই ফুটবল ঘিরে উন্মাদনা ছিল চোখে পড়ার মত। সৌজন্যে 'ফুটবল একাদশী'। আদিল, সমর-সহ বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রাক্তনীদের উদ্যোগে ফুটবল উৎসব।

বাঙালিদের চিরকালীন আবেগ বলতেই দুর্গাপুজো ও ফুটবল। এই দুটোকে মিশিয়েই বেশ কিছু বছর ধরে হয়ে আসছে ফুটবল একাদশী। পুজোর সময়েই অনেকেই কলকাতায় আসেন আর তাই দশমীর পরে পরেই আয়োজন করা হয় ফুটবল একাদশীর। ফুটবল মাঠে বিজয়া সম্মেলন। করোনা সতর্কতা মেনে যাদবপুর বিশ্ববিদ্যালয়ের সল্টলেক ক্যাম্পাসে এবারও মাঠে ফুল ফোটাতে দেখা গেল বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রাক্তনীদের। কম গেল না বিশ্ববিদ্যালয়ের বর্তমান আবাসিক ছাত্ররাও। আর সেই উৎসবে শামিল হতে হাজির ছিলেন প্রাক্তন ফুটবলার অনীত ঘোষ। প্রদর্শনী ম্যাচও খেললেন চুটিয়ে , আগের মতোই ফাইটিং স্পিরিট বজায় রেখে। অনীতের কথায় ফুটবলের প্রতি যাদবপুর বিশ্ববিদ্যালয়ের আবেগ দেখেই ছুটে আসেন বারবার।

এ বছর বাড়তি আকর্ষণ ছিল প্রাক্তন ভারতীয় ফুটবলার মেহতাব হোসেনের উপস্থিতি। ছেলে জিদানের সঙ্গে ফুটবল মাঠে এত সুন্দর পরিবেশে সময় কাটিয়ে অভিভূত ময়দানের ভিকি। ব্লুজ ১ , ব্লুজ ২ , হোস্টেল টিম, স্টাফ টিম, টিকেইউ-দের হারিয়ে এবার সেরার সেরা সিএলএফসি। ফুটবল একাদশীকে আরও সফল করার ভাবনা থেকেই এ বছর থেকে শুভজিৎ দাশগুপ্তর উদ্যোগে যুক্ত হয়েছে স্পোর্টস ম্যানেজমেন্ট গ্রুপ ম্যাপল মাস্টার মাইন্ড। ফুটবলকে ঘিরে ছাত্র, শিক্ষক, প্রাক্তনীদের মিলন উৎসবের জন্য আবার এক বছরের অপেক্ষা ।

দেবপ্রিয় দত্ত মজুমদার

Published by:Siddhartha Sarkar
First published:

লেটেস্ট খবর