corona virus btn
corona virus btn
Loading

শহরের রং লাল-হলুদ, শতবর্ষ সেলিব্রেশনে মাতোয়ারা ইস্টবেঙ্গল ফ্যানরা

শহরের রং লাল-হলুদ, শতবর্ষ সেলিব্রেশনে মাতোয়ারা ইস্টবেঙ্গল ফ্যানরা
Photo -Video Grab

পায়ে পায়ে একশো। সেঞ্চুরি পূর্ণ করল ইস্টবেঙ্গল। রবিবারের সকাল থেকেই সেলিব্রেশন।

  • Share this:

#কলকাতা: শতবর্ষের সেলিব্রেশন শুরু হয়ে গেল ইস্টবেঙ্গলে। কুমারটুলি পার্ক থেকে। সাড়ে তিন ঘণ্টার লম্বা শোভাযাত্রা। সমর্থকদের হাতে হাতে মশাল পৌঁছল লাল-হলুদে। তবে সেলিব্রেশনরে দিনেও কোথাও ক্লাব-কোয়েস সম্পর্ক নিয়ে একটা খচখচানি রয়ে গেল। হাজির ছিলেন না সিনিয়র ফুটবলাররাও।

পায়ে পায়ে একশো। সেঞ্চুরি পূর্ণ করল ইস্টবেঙ্গল। রবিবারের সকাল থেকেই সেলিব্রেশন। কুমারটুলি পার্ক থেকে। লাল-হলুদের প্রথম মাঠ। প্রাক্তনদের মধ্যে সুকুমার সমাজপতি, মনোরঞ্জন ভট্টাচার্য থেকে ভাইচুং, অ্যালভিটো। এক ফ্রেমে হাজির অনেক। কুমোরটুলি পার্কেই জ্বালানো হল মশাল৷

উত্তর কলকাতা হেদুয়া, হাতিবাগান, কলেজ স্ট্রিট, ধর্মতলা হয়ে ক্লাব তাঁবুতে পৌঁছল মশাল। প্রায় সাড়ে তিন ঘণ্টা বর্ণাঢ্য শোভাযাত্রার পর। সঙ্গে ট্যাবলো, ঘোড়ার গাড়ি। আর অসংখ্য সমর্থকদের ভিড়। শহরের রঙ আজ লাল-হলুদ৷ ক্লাবে ছিলেন প্রাক্তন ফুটবলার ও ক্লাব কর্তারা। সেই মশাল থেকে জ্বালানো হল শতবর্ষের মশাল।

তবে শতবর্ষের দিনেও বিতর্ক রয়ে গেল এদিনের অনুষ্ঠানের জার্সি নিয়ে। শতবর্ষ লেখা জার্সিতে ছিল পুরোন স্পনসরের লোগো। দেখা যায়নি বিনিয়োগকারী সংস্থার লোগো। কিন্তু কোয়েসের মার্কেটিং বিভাগের বেশ কয়েকজন আধিকারিক এদিন হাজির ছিলেন। তাও প্রাক্তনীদের গায়ে কেন পুরোন জার্সি? প্রশ্ন সমর্থকদের একাংশের মনে।প্রাক্তন ফুটবলাররা থাকলেও শোভাযাত্রায় দেখা যায়নি ক্লাবের কোনও বর্তমান ফুটবলারকে। তাই শতবর্ষের সেলিব্রেশনের দিনেও ক্লাব-কোয়েসের দূরত্ব কোথাও যেন রয়েই গেল।

আরও দেখুন

First published: July 29, 2019, 12:04 AM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर