ISL Final: মুম্বইকে হারিয়ে কলকাতায় ট্রফি নিয়ে ফিরতে চায় এটিকে মোহনবাগান

ISL Final: মুম্বইকে হারিয়ে কলকাতায় ট্রফি নিয়ে ফিরতে চায় এটিকে মোহনবাগান

মুম্বইয়ের বিরুদ্ধে ফাইনালে লড়াই করতে প্রস্তুত এটিকে মোহনবাগান

সবুজ মেরুন কোচ পরিষ্কার জানিয়ে দিলেন লিগের দুটো ম্যাচের সঙ্গে এই ম্যাচের তুলনা করা ঠিক নয়

  • Share this:

    #গোয়া: লিগ পর্যায় দুবার হারতে হয়েছে মুম্বই সিটির বিরুদ্ধে। ফাইনালে শনিবার রাতে সেই মুম্বই সিটির সামনে এটিকে মোহনবাগান। দেখতে গেলে প্রতিশোধ ম্যাচ। ফাইনালের আগে চড়চড় করে পারদ চড়ছে দুই শিবিরে। একদিকে ছবির মত ফুটবল খেলতে থাকা মুম্বই যাঁরা সবুজ মেরুনকে হারিয়ে এএফসি চ্যাম্পিয়ন্স লিগে কোয়ালিফাই করে গিয়েছে, অন্যদিকে ডিফেন্স সামলে প্রতি-আক্রমণ নির্ভর ফুটবলে বিশ্বাসী অ্যান্টোনিও লোপেজ হাবাস। অন্যভাবে বলতে গেলে সুন্দর ফুটবল বনাম কার্যকরী ফুটবল।

    সবুজ মেরুন কোচ পরিষ্কার জানিয়ে দিলেন লিগের দুটো ম্যাচের সঙ্গে এই ম্যাচের তুলনা করা ঠিক নয়। ফুটবলে প্রতিটা দিন নতুন, প্রতিটা চ্যালেঞ্জ নতুন। মুম্বই সেটপিস থেকে গোল করার ব্যাপারে সিদ্ধহস্ত। আহমেদ জাহু, স্যান্টানা নিখুঁত বল বাড়াতে পারেন বক্সে যা থেকে গোল করতে মরিয়া হয়ে থাকে মুম্বইয়ের সাড়ে ছয় ফুটের ডিফেন্ডার মর্তদা ফল। সবুজ মেরুনের বিরুদ্ধে দুটো ম্যাচে গোল পেয়েছেন নাইজেরীয় স্ট্রাইকার ওগবেচে। ইংলিশ স্ট্রাইকার লা ফোন্দ্রে এবং ফরাসি মিডফিল্ডার হুগো বুমও ভয়ঙ্কর হয়ে উঠতে পারেন। হাবাস জানেন মিডফিল্ডে মুম্বইকে খেলা ধরতে দেওয়া যাবে না।

    তবে শেষ ম্যাচে নর্থইস্ট ইউনাইটেডের বিরুদ্ধে কঠিন লড়াই করে ফাইনালের টিকিট পেয়েছে সবুজ মেরুন। ডেভিড উইলিয়ামস এবং মনবির সিং গোল পেয়েছেন। দুটো অ্যাসিস্ট করেছিলেন রয় কৃষ্ণ। জাভি হার্নান্দেজ প্রচুর পরিশ্রম করেছিলেন। অর্থাৎ আক্রমণভাগ নিয়ে চিন্তার খুব বেশি প্রয়োজন নেই। মুম্বইয়ের বিরুদ্ধে ফাইনাল জিততে গেলে ডিফেন্সে সন্দেশ, তিরিদের সঙ্গে মিডফিল্ডে ম্যাক হিউ, লেনিদের বোঝাপড়া আলগা হলে চলবে না। বিপক্ষকে স্বাভাবিক ছন্দে খেলতে না দিলেই চাপে পড়ে যাবে মুম্বই। সেমিফাইনালে সেটা দেখিয়েছিল এফসি গোয়া।

    কাউন্টার অ্যাটাক থেকে সুযোগ এসে যেতে পারে কৃষ্ণ, উইলিয়ামসদের সামনে। প্রাপ্ত সুযোগ কাজে লাগাতে হবে। মুম্বই সেট পিসে দারুণ শক্তিশালী। চোদ্দো গোল করে গোয়ার স্প্যানিশ স্ট্রাইকার ইগরের সঙ্গে একই আসনে রয় কৃষ্ণ। ফাইনালে গোল পেলে সোনার বুট নিশ্চিত। কিন্তু বাগানের গোলমেশিন জানিয়ে দিলেন আসল ট্রফি জয়। সমর্থকদের জন্য নিজের শেষ রক্তবিন্দু উজাড় করে দিতে তৈরি প্রত্যেক সবুজ মেরুন ফুটবলার। দেশের বাণিজ্য রাজধানী মুম্বই নয়,ফুটবলের সেরা সম্মান শোভা পায় ফুটবলের মক্কা নামে পরিচিত কলকাতায়। হাবাস এবং তাঁর যোদ্ধারা শুধু মোহনবাগানের নয়, দেশের বুকে বাংলার সম্মান তুলে ধরতে পারে কিনা সেটাই দেখার।

    Published by:Rohan Chowdhury
    First published: