CWC 2019: বাংলাদেশের বিরুদ্ধে ধোনি যে ব্যাটিংটা করেছেন তা দলের স্বার্থেই...,হঠাৎই স্টান্স বদল সচিনের

Bangla Editor | News18 Bangla
Updated:Jul 03, 2019 08:44 PM IST
CWC 2019: বাংলাদেশের বিরুদ্ধে ধোনি যে ব্যাটিংটা করেছেন তা দলের স্বার্থেই...,হঠাৎই স্টান্স বদল সচিনের
File Photo
Bangla Editor | News18 Bangla
Updated:Jul 03, 2019 08:44 PM IST

#ডারহ্যাম: ধোনিতে ঢোঁক গিললেন সচিন। বাংলাদেশ ম্যাচের পর স্টান্স বদল মাস্টার ব্লাস্টারের। এজবাস্টন ম্যাচের পর সচিন জানিয়েছেন, বাংলাদেশের বিরুদ্ধে ধোনি ব্যাট করেছেন দলের স্বার্থেই।

আফগানিস্তান ম্যাচের পর সচিন বলেছিলেন, ‘‘ খানিকটা হতাশ হয়েছি। এই জায়গায় আমরা ভাল ব্যাট করতে পারতাম। যে ভাবে ধোনি আর কেদার ব্যাট করলেন, তাতে আমি খুশি হতে পারছি না। স্পিন বোলার বিরুদ্ধে মাত্র ১১৯ রান। এই একটি জায়গা যেখানে আমরা খুব ভাল করতে পারিনি। আরও ইতিবাচক ভূমিকা নেওয়া প্রয়োজন ছিল।’’

আর বাংলাদেশ ম্যাচের পর সচিন বলেন, ‘‘আমার মনে হয়, ওই সময় ধোনি দুরন্ত ব্যাট করেছেন। ৩৫ রান যেন ৫০ রানের সমান। মাহি পুরো ৫০ ওভারে ব্যাট করতে পারলে ম্যাচের রং আরও বদলাতে পারত। তবে দলের জন্য যা প্রয়োজন ছিল, ধোনি ওই সময় ঠিক কাজটাই করেছেন।’

সাউদাম্পটন থেকে বার্মিংহ্যাম। মাঝে শুধু চারটি ম্যাচ। তাতেই ধোনি সম্পর্কে বদলে গেল সচিনের মনোভাব। আফগানদের বিরুদ্ধে ধোনির ব্যাটিং দেখে নাক শিটকে ছিলেন ভারতীয় ক্রিকেটের গুরুদেব। বাংলাদেশ ম্যাচের পরেই মাহিতে মুগ্ধ তিনি। পরিস্থিতি কিন্তু এক। তাহলে সচিনের এই ভোলবদল কেন ? শুধু সচিন নন, এখন যাঁরা মাহির সমালোচক, তাঁরা মানতে বাধ্য সাত নম্বরে ব্যাট করতে নেমে ইংল্যান্ডের এই বাইশ গজে ধোনি যে কটি ম্যাচ খেলেছেন, প্রতিটি ম্যাচেই তাঁর অবদানকে ফেলে দেওয়া যাবে না। তাই সচিনকেও যোগ করতে হয়েছে, দেশ ও দলের স্বার্থেই ব্যাট করছেন মাহি। একদম ঠিক। সাত ম্যাচে ধোনির পাশে এই বিশ্বকাপে দুশো বাইশ রান। স্ট্রাইক রেট ৯৩। এবং সেটা সাত নম্বরে ব্যাট করতে নেমে। এবং ৩৭ বছর বয়সে। মঙ্গলবার এজবাস্টনে সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায় একটা তথ্য দিয়েছিলেন। তাঁরা যখন ইংল্যান্ডে সিরিজ খেলতে আসতেন, তখন দিন গড়ানোর সঙ্গে আরও ভয়ঙ্কর হয় বিলেতে বাইশ গজ। আর এই বিশ্বকাপে দিন গড়ানোর সঙ্গে আরও মন্থর বিলেতের বাইশ গজ।

মাহির ব্যাটিং মন্থর। সৌরভের এই তথ্যের পর কী আর প্রশ্ন উঠতে পারে ?

Loading...

তা উপলব্ধি করেই কি ধোনিতে সচিনের স্ট্যান্স বদল।

First published: 08:42:00 PM Jul 03, 2019
পুরো খবর পড়ুন
Loading...
अगली ख़बर