• Home
  • »
  • News
  • »
  • sports
  • »
  • CRICKET BLIND WORLD CUP 2018 CRICKETER NARESH TUMDA NOW WORKS AS A LABOURER IN NAVSARI TO EARN LIVELIHOOD DD

বিশ্বকাপ জয়ী দলের সদস্য ‘এই’ Cricketer এখন পেট চালানোর জন্য দিন মজুরের কাজ করেন!

blind world cup 2018 cricketer naresh tumda part of team now works as a labourer in navsari to earn livelihood

একাধিকবার তাঁর রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রীকে চিঠি লিখেও মেলেনি কোনও সদুত্তর, তাই আজ এই হাল!

  • Share this:

    #আহমেদাবাদ : আপনার মনে থাকবে ২০১৮ সালে টিম ইন্ডিয়া দৃষ্টিহীণদের বিশ্বকাপ (Blind World Cup 2018) জিতেছিল৷ এই জয়ের পর ইতিহাস তৈরি করেছিল ভারতীয় দল৷ টিম ইন্ডিয়া পাকিস্তানকে ফাইনালে হারিয়েছিল৷ সমস্ত ক্রিকেটারদের ভূয়সী প্রশংসা করা হয়েছিল৷ রাষ্ট্রপতি থেকে প্রধানমন্ত্রী সকলেই ক্রিকেটাদের প্রশংসা করেছিলেন৷ কিন্তু তার তিন বছর পেরিয়ে ছবিটা বড়ই বিবর্ণ  বেশ কিছু মানুষের জন্য৷ গুজরাতের নরেশ তুমদার (Naresh Tumda) দৃষ্টিহীণ জীবন এখনও আরও কঠিন হয়ে উঠেছে৷ পরিবারের পেট চালানোর জন্য এখন মজুরের কাজ করতে হচ্ছে তাঁকে৷

    সংবাদ সংস্থা এএনআই জানিয়েছে নরেশ তুমদা সরকারের কাছে বারবার সাহায্যের জন্য প্রার্থণা করেছেন তিনি কিন্তু কোনওভাবেই তাঁর সাহায্যের জন্য কেউ হাত বাড়িয়ে দেয়নি৷ এখন তিনি জনমজুরের কাজ করে রোজ ২৫০ টাকা করে রোজগার করেন৷ তিনি পরিষ্কার জানিয়েছেন গুজরাতের মুখ্যমন্ত্রীর কাছে তিনি সাহায্যের আবেদন করেছেন৷ তিনি চিঠিও দিয়েছেন, তবুও কোনও জবাব আসেনি৷ তিনি সরকারের কাছে আবেদন করেছেন তাঁকে কোনও চাকরি দেওয়া হোক৷ তাঁর কথা তাঁর পরিবার চালাতে চাকরি প্রয়োজন৷

    ২৯ বছরের তুমদা গত বছরে লকডাউনের সময় সবজি বিক্রি করতেন৷ কিন্তু এতে পরিবার প্রতিপালন হচ্ছে না, তাই তাঁকে মজুরের কাজ করতে হচ্ছে৷ তিনি বলেছেন, ‘‘আমার মা -বাবা বৃদ্ধ , আমার বাবা চাকরি করতে পারেন না৷ অর্থাৎ পরিবারে একমাত্র আমিই কাজ করতে পারি৷ গত বছর জামালপুর বাজারে আমি সবজি বিক্রি করতাম৷ কিন্তু তাতে বেশি রোজগার হয় না৷ ’’

    নরেশ তুমদা খুবই প্রতিভাবান ক্রিকেটার৷ মাত্র ৫ বছরে তিনি ক্রিকেট খেলতে শুরু করেছিলেন৷ শারীরিক প্রতিবন্ধকতা থাকা সত্ত্বেও তিনি ক্লাস ১২ অবধি পড়া করেছিলেন৷ পাঁচ বছর বয়সে তাঁর চোখের দৃষ্টি চলে গিয়েছিল৷ ২০১৪ সালে তাঁর নির্বাচন গুজরাত ক্রিকেট দলের জন্য হয়৷ এরপর ভারতীয় দলের হয়ে তাঁর খেলার সুযোগ হয়৷ বিশ্বকাপ ফাইনালে ভারত পাকিস্তানের বিরুদ্ধে ৩০৮ রানের লক্ষ্য ৮ উইকেটে পেয়ে যায়৷

    Published by:Debalina Datta
    First published: