• Home
  • »
  • News
  • »
  • sports
  • »
  • রুট, স্টোকসের ব্যাটে দ্বিতীয় দিনে লাঞ্চের আগেই চাপে ভারত

রুট, স্টোকসের ব্যাটে দ্বিতীয় দিনে লাঞ্চের আগেই চাপে ভারত

বেন স্টোকস দ্রুত প্রায় ওয়ানডের মেজাজে ব্যাট করে লাঞ্চ হওয়ার আগেই অপরাজিত ৬৩ রানে photo/daily mail

বেন স্টোকস দ্রুত প্রায় ওয়ানডের মেজাজে ব্যাট করে লাঞ্চ হওয়ার আগেই অপরাজিত ৬৩ রানে photo/daily mail

বেন স্টোকস দ্রুত প্রায় ওয়ানডের মেজাজে ব্যাট করে লাঞ্চ হওয়ার আগেই অপরাজিত ৬৩ রানে। রুট ১৫৬ রানে। এদিনও ভারতীয় বোলারদের সহজে খেলে গেলেন দুজনে।

  • Share this:
    লাঞ্চের আগে পর্যন্ত স্কোর ইংল্যান্ড ৩৫৫ /৩

    #চেন্নাই: চেন্নাইতে প্রথম দিন জো রুট এবং সিবলির ব্যাট শাসন করেছিল ভারতীয় বোলারদের। প্রথম দিন অশ্বিন একটি এবং বুমরাহ দুটি উইকেট ছাড়া আর উল্লেখযোগ্য সাফল্য ছিল না ভারতের ঝুলিতে। শনিবার টেস্টের দ্বিতীয় দিনে দাপট বজায় রাখল ইংল্যান্ড। রুট লাঞ্চ হওয়ার অনেক আগেই দেড়শো পেরিয়ে গেলেন। বেন স্টোকস দ্রুত প্রায় ওয়ানডের মেজাজে ব্যাট করে লাঞ্চ হওয়ার আগেই অপরাজিত ৬৩ রানে। রুট ১৫৬ রানে। এদিনও ভারতীয় বোলারদের সহজে খেলে গেলেন দুজনে। বেন স্টোকস স্পিনারদের বিরুদ্ধে সুইপ, রিভার্স সুইপ দুটোই ব্যবহার করলেন। অশ্বিনকে মাথার ওপর দিয়ে ছক্কা হাঁকালেন।

    তবে বিরাট কোহলির ভারত দুটো ভুল রিভিউ নিল। ক্যাচ ফেলল,রান আউট মিস করল। অত্যন্ত সাধারণ মানের ফিল্ডিং প্রদর্শন করল ভারতীয় দল। লাঞ্চের আগে পর্যন্ত ইশান্ত এবং নাদিম একটিও উইকেট তুলতে পারেননি। গৌতম গম্ভীর আগেরদিন জানিয়েছিলেন এই দুজনের জায়গায় সিরাজ এবং কুলদীপ যাদবকে দলে নেওয়া উচিত ছিল। দেখে মনে হচ্ছে সঠিক কথাই বলেছিলেন প্রাক্তন ভারতীয় ওপেনার। রবীন্দ্র জাদেজার পরিবর্তে অক্ষর প্যাটেলের খেলার কথা ছিল। কিন্তু শেষ মুহূর্তে হাঁটুর চোট ছিটকে দেয় তাঁকে। পরিবর্ত হিসেবে সুযোগ পান শাহবাজ নাদিম। বাঁহাতি স্পিনারদের বিরুদ্ধে ইংলিশ ব্যাটসম্যানরা বরাবর দুর্বল। কিন্তু নাদিম ডানহাতি ইংলিশ ব্যাটসম্যানদের আউট করা দূরে থাক, খুব একটা চাপেও ফেলতে পারলেন না।

    সঠিক লাইন এবং লেন্থ বজায় রাখতে পারলেন না তিনি। বেন স্টোকস বুঝিয়ে দিলেন কেন তিনি বিশ্বের সেরা অলরাউন্ডার। রুট স্বপ্নের ফর্ম বজায় রেখেছেন। ইংল্যান্ড যে গতিতে এগোচ্ছে তাতে প্রথম ইনিংসে ৫০০ রান তোলা খুব একটা কঠিন চ্যালেঞ্জ নয় তাঁদের সামনে। ভারত দ্রুত উইকেট তুলতে না পারলে কপালে দুঃখ আছে। লাঞ্চের পর তারা রান তোলার গতি বাড়াবে সন্দেহ নেই।

    Published by:Rohan Chowdhury
    First published: