অভিষেক সাইনির, সিডনিতে লাবুশানে, পুকোভস্কির ব্যাটে প্রথম দিন অস্ট্রেলিয়ার শাসন

photo/india.com

অস্ট্রেলিয়ার হয়ে লাবুশানে এবং স্মিথ উইকেটে দাঁড়িয়ে গেলেন। ধৈর্য ধরে উইকেটে পড়ে থাকার পর খারাপ বলে বাউন্ডারিও মারলেন দুজনে।

  • Share this:

    অস্ট্রেলিয়া ১৬৬/২

    #সিডনি: প্রথম টেস্টে লজ্জাজনক হার। তারপর অধিনায়ক বিরাট কোহলিকে ছাড়াই মেলবোর্নে দুরন্ত কামব্যাক। ফলে সিরিজে সমতা ফেরানো ভারত তৃতীয় টেস্টে কী করে, তা নিয়ে আগ্রহ ছিল তুঙ্গে। বর্ডার -গাভাস্কার সিরিজের তৃতীয় টেস্টে সকালে টসে জিতে ব্যাটিং করার সিদ্ধান্ত নেন অস্ট্রেলিয়ার অধিনায়ক টিম পেইন। বৃষ্টির জন্য কিছুক্ষণ বন্ধ রইল খেলা। ভারতের তৃতীয় পেসার হিসেবে অভিষেক হল নবদীপ সাইনির। অস্ট্রেলিয়ার হয়ে প্রথমবার টেস্ট খেললেন উইল পুকোভস্কি। অভিষেক ম্যাচেই জাত চেনালেন এই ব্যাটসম্যান। ৬২ রানের দুরন্ত ইনিংস এল তাঁর ব্যাট থেকে। টেস্ট সিরিজ শুরু হওয়ার আগে প্র্যাকটিস ম্যাচে কার্তিক ত্যাগির বলে মাথায় চোট পেয়েছিলেন। বুঝিয়ে দিলেন তিনি লম্বা রেসের ঘোড়া। তাঁর উইকেট অবশ্য তুলে নিলেন প্রথম টেস্টে নামা সাইনি। এলবি ডব্লিউ হয়ে ফিরলেন।

    ডেভিড ওয়ার্নার অবশ্য কিছু করতে পারলেন না। ওপেন করতে নেমে মাত্র ৫ রান করেই তাঁকে ফিরতে হয়েছে প্যাভিলিয়নে। তাঁর উইকেট তুলে নিলেন সিরাজ। স্লিপে ক্যাচ দিলেন পূজারার হাতে। কিন্তু অস্ট্রেলিয়ার হয়ে লাবুশানে এবং স্মিথ উইকেটে দাঁড়িয়ে গেলেন। ধৈর্য ধরে উইকেটে পড়ে থাকার পর খারাপ বলে বাউন্ডারিও মারলেন দুজনে। অশ্বিন বল করার সময় ফরওয়ার্ড শর্ট লেগ, সিলি মিড অন রেখে চাপ বাড়ালেন অধিনায়ক রাহানে। মেলবোর্নে ভারতের এই লেগ সাইড ফাঁদে পা দিয়ে ভুগতে হয়েছিল অস্ট্রেলিয়াকে। এ দিন কিন্তু নিজেদের হোমওয়ার্ক করে এসেছিল অজি ক্রিকেটাররা। ফলে লেগ সাইডে শট খেলার দিকে বেশি ঝুঁকি নেয়নি টিম অস্ট্রেলিয়া। লাবুশানে এ দিন অশ্বিনকে স্টেপ আউট করে মাথার ওপর দিয়ে যে বাউন্ডারি মারলেন সেটা দিনের সেরা শট।

    রোহিত শর্মা ফিরেছেন এই ম্যাচে। সিনিয়র হিসেবে প্রয়োজনে রাহানের সঙ্গে আলোচনা করতে দেখা গেল তাঁকে। কিন্তু দিনটা রইল অস্ট্রেলিয়ার। প্রথম দিনের শেষে এখনই চালকের আসনে বলা না গেলেও যথেষ্ট শক্ত জমির ওপর দাঁড়িয়ে স্মিথরা। নিজের ঘরের মাঠে স্মিথ মরিয়া থাকবেন বড় রান করে সমালোচনার জবাব দিতে। দুই অজি ব্যাটসম্যানকে ক্রমশ ভয়ঙ্কর লাগছে। ভারতের প্রথম লক্ষ্য দ্বিতীয় দিন সকালের প্রথম সেশনে এই দুটো উইকেট তুলে নেওয়া।

    Published by:Rohan Chowdhury
    First published: