Home /News /sports /
Maldah News: স্বামীর উৎসাহেই খেলাধুলো, তিনটি সোনার মেডেল জিতে পরিবারকে গর্বিত করলেন ৩৮-র তনুশ্রী

Maldah News: স্বামীর উৎসাহেই খেলাধুলো, তিনটি সোনার মেডেল জিতে পরিবারকে গর্বিত করলেন ৩৮-র তনুশ্রী

athlete woman returns home after winning 3 gold medal from West Bengal Master Athlete meet

athlete woman returns home after winning 3 gold medal from West Bengal Master Athlete meet

  • Share this:

    #মালদহ: ইচ্ছে ছিল পুলিশের চাকুরি করার। পারিবারের বাধায় হয়ে উঠেনি। তবে ছোটবেলা থেকেই খেলাধুলার প্রতি নেশা তৈরি হয়েছিল বছর ৩৮ তনুশ্রী লালার। একটু বড় হলে পরিবারের পক্ষ থেকে মাঠে যাওয়া বন্ধ করে দেয়া হয়। এখন স্বামীর সহযোগিতায় আবারো মাঠে ফিরেছেন তনুশ্রী। ৩৭তম পশ্চিমবঙ্গ মাস্টার অ্যাথলেটিকস মিট তিনটি ইভেন্টে সোনা জিতে পরিবার তথা জেলার মুখ উজ্জ্বল করলেন।

    তিনটি সোনা নিয়ে আন্তর্জাতিক মহিলা দিবস এর সকালে বাড়ি ফিরলেন তিনি। তবে সেখানেই থেমে থাকেননি, বাড়ি ফিরেই শুরু হয়েছে আগামীর প্রস্তুতি। অনূর্ধ্ব ৩৫ বিভাগের ৮০০ মিটার দৌড়, দেড় হাজার মিটার দৌড়, ও দুই কিলোমিটার হাঁটা প্রতিযোগিতা প্রথম হয়েছেন তনুশ্রী। রাজ্যস্তরে তিনটি বিভাগ এই প্রথম হয় জাতীয় স্তরে খেলার ছাড়পত্র পেয়েছেন। নদিয়ার কৃষ্ণনগরে ৩৭ তম পশ্চিমবঙ্গ মাস্টার্স অ্যাথলেটিকস মিট এর আয়োজন করা হয়। অনূর্ধ্ব ৩৫ বছরের মহিলা গ্রুপ এ তিনটি ইভেন্টে অংশগ্রহণ করেন মালদার তনুশ্রী লালা। এর আগেও জাতীয় ও রাজ্য স্তরের একাধিক পদক পেয়েছেন তিনি। সবটাই সম্ভব হয়েছে স্বামী সুব্রত লালার ইচ্ছাই। স্ত্রীকে তিনি কখনও বাধা দেননি।

    আরও পড়ুন - মাস্টার ডিগ্রি তাও মেলেনি চাকরি, সংসার চালাতে পোস্ট অফিসের বাইরের রাস্তায় আধার কার্ডের ফর্ম ফিলআপ!

    মালদহ শহরে বেসরকারি একটি সংস্থায় কাজ করেন সুব্রত লালা। স্ত্রী তনুশ্রী লালা গৃহবধূ। পরিবারে রয়েছে দুই ছেলে। তনুশ্রী লাগার বড় ছেলে বর্তমানে কলেজ ছাত্র। ছোট ছেলে নবম শ্রেণী পড়ুয়া। ছেলে দের পড়াশোনা ও সংসার সামলায় যেটুকু সময় পান মাঠে গিয়ে অনুশীলন করেন তনুশ্রী।কোন দিন সকালে কোন দিন বিকেলে। কখনো মালদা বিমানবন্দর আবার কোনদিন মালদা রেলওয়ে ময়দানে অনুসরণ করতে চলে যান তনুশ্রী লালা। এখন তার লক্ষ্য জাতীয় স্তরে সাফল্য।  তনুশ্রী লালা বলেন, ছোটবেলা থেকেই খেলাধুলার প্রতি আমার ঝোঁক। ইচ্ছে ছিল পুলিশের চাকরি করব। তবে পরিবারের সম্মতি না থাকায় তা হয়ে ওঠেনি। ছোটবেলা স্কুল স্তরে অনেক খেলাধূলা করেছি তারপর বিয়ে হয়ে যায় বন্ধ হয়ে যায় সবকিছু। পরে স্বামীর ইচ্ছায় আবার মাঠে ফিরি। নিয়মিত অনুষ্ঠান করে এখন প্রাপ্তবয়স্কদের একাধিক ইভেন্টে রাজ্য জাতীয় স্তরে অংশগ্রহণ করি। আমার আমার ভালো লাগে তাই মাঠেই থাকতে চাই।

    Harashit Singha

    Published by:Debalina Datta
    First published:

    Tags: Gold Medal, Maldah

    পরবর্তী খবর