Baruipur Housewife Kidnap: গৃহবধূকে অপহরণ প্রেমিকের, চলল গুলি! বারুইপুরে টানটান নাটক

ধৃত প্রেমিক (বাঁদিকে)৷ অপহৃত গৃহবধূকে উদ্ধার করে পুলিশ (ডানদিকে)৷

পুলিশ সূত্রে খবর, স্থানীয় এক যুবকের সঙ্গে ফেসবুকে (Facebook) আলাপ হয় বারুইপুরের বাসিন্দা ওই গৃহবধূর (Housewife)৷

  • Share this:

    #বারুইপুর: ফেসবুকে আলাপ, আর সেই সূত্রে বিবাহবহির্ভূত সম্পর্কে জড়িয়ে পড়েছিলেন গৃহবধূ৷ সেই সম্পর্ক থেকে বেরিয়ে আসতে চাইলেও রাজি হচ্ছিলেন না প্রেমিক৷ আর প্রেমিকার উপরে আক্রোশ থেকেই গৃহবধূকে অপহরণ করল প্রেমিক৷ পুলিশ উদ্ধারে গেলে চলল গুলি৷ সবমিলিয়ে গৃহবধূকে অপহরণকে কেন্দ্র করে রীতিমতো টানটান নাটক দক্ষিণ চব্বিশ পরগণার বারুইপুরে৷ শেষ পর্যন্ত অবশ্য ওই প্রেমিককে গ্রেফতার করেছে পুলিশ৷

    পুলিশ সূত্রে খবর, স্থানীয় এক যুবকের সঙ্গে ফেসবুকে আলাপ হয় বারুইপুরের বাসিন্দা ওই গৃহবধূর৷ ফেসবুকের আলাপ গড়ায় প্রেমে, ক্রমে সম্পর্ক আরও ঘনিষ্ঠ হয় দু' জনের মধ্যে৷ ওই গৃহবধূর একটি কন্যাসন্তানও রয়েছে। বেশ কিছুদিন হল ওই গৃহবধূ প্রেমের সম্পর্ক থেকে বেরিয়ে আসতে চাইছিল। কিন্তু বারুইপুরের বাসিন্দা ওই প্রেমিক তা কিছুতেই মানতে পারছিল না।

    বিবাহবহির্ভূত সম্পর্ক নিয়ে টানাপোড়েনের জেরে ওই গৃহবধূ বারুইপুরের শ্বশুরবাড়ি থেকে মাস দুয়েক আগে নরেন্দ্রপুরে বাপের বাড়িতে চলে যান। প্রেমিকের সঙ্গে সব ধরনের সম্পর্ক ছিন্ন করতে প্রেমিকের মোবাইল নম্বর ব্লক করে দেয় ওই গৃহবধূ। কয়েকদিন আগে বারুইপুর পুরসভার ১১ নম্বর ওয়ার্ডের বাসিন্দা ওই যুবক তার ফেসবুক প্রোফাইলে ওই গৃহবধূর সঙ্গে তার ঘনিষ্ঠ মুহূর্তের ছবি দিয়ে পোস্ট করে। শনিবার দুপুরে ওই গৃহবধূর শ্বশুরবাড়িতে গিয়ে শ্বশুরবাড়ির লোককে সে হুমকি দেয় বলেও অভিযোগ। শ্বশুরবাড়ির লোক গৃহবধূকে প্রেমিকের সঙ্গে যোগাযোগ করতে বলেন। তারপরে প্রেমিক গৃহবধূকে হুঁশিয়ারি দেয় যাতে তিনি প্রেমিকের বাড়িতে চলে আসে। এই হুমকি ফোন পাওয়ার পর গৃহবধূ বারুইপুর থানায় অভিযোগ করতে আসছিলেন। শনিবার সন্ধ্যায় রাজপুর বাজার থেকে প্রেমিক প্রকাশ্য রাস্তায় বন্দুক দেখিয়ে তাঁর মেয়েকে একটি গাড়িতে তুলে নিয়ে যায় বলে গৃহবধূর বাবা বারুইপুর থানায় অভিযোগ করেন।

    বারুইপুর থানার পুলিশ অভিযোগ পাওয়ার পরেই প্রেমিকের বাড়িতে যায় ওই গৃহবধূকে উদ্ধার করতে। গৃহবধূকে উদ্ধার করতে গেলে ওই যুবক প্রথমে বাধা দেওয়ার চেষ্টা করে। তার কাছে থাকা বন্দুক থেকে শূন্যে গুলি চালিয়ে পালানোর চেষ্টা করে। প্রেমিককে ধরতে গিয়ে ৩ জন পুলিশকর্মী আহত হন। সবশেষে পুলিশ প্রেমিককে গ্রেপ্তার করে ও তার কাছ থেকে কটি নাইন এমএম পিস্তল ও চার রাউন্ড তাজা কার্তুজ উদ্ধার করে। ধৃত প্রেমিককে আজ বারুইপুর মহাকুমা আদালতে তোলা হবে।

    Arpan Mondal
    Published by:Debamoy Ghosh
    First published: