বর্ধমান দক্ষিণ কেন্দ্রে বিজেপির প্রার্থী কে! জল্পনায় উঠে আসছে বিভিন্ন নাম

বর্ধমান দক্ষিণ কেন্দ্রে বিজেপির প্রার্থী কে! জল্পনায় উঠে আসছে বিভিন্ন নাম

বর্ধমান দক্ষিণ কেন্দ্রে বিজেপির প্রার্থী কে! জল্পনায় উঠে আসছে বিভিন্ন নাম

এই আসনে প্রার্থী ঘোষণা করে দিয়েছে রাজ্যের শাসক দল তৃণমূল কংগ্রেস ও সিপিএম। এখন বিজেপি প্রার্থী কে হন তা জানতে উৎসাহিত এলাকার বাসিন্দারা।

  • Share this:

#বর্ধমান: বর্ধমান দক্ষিণ বিধানসভা কেন্দ্রে বিজেপি প্রার্থী কে হবেন তা নিয়ে এলাকার বাসিন্দাদের আগ্রহ তুঙ্গে। ইতিমধ্যেই এই আসনে প্রার্থী ঘোষণা করে দিয়েছে রাজ্যের শাসক দল তৃণমূল কংগ্রেস ও সিপিএম। এখন বিজেপি প্রার্থী কে হন তা জানতে উৎসাহিত এলাকার বাসিন্দারা। কে প্রার্থী হতে পারেন তা নিয়ে জোর জল্পনাও শুরু হয়েছে বিজেপির নিচুতলার কর্মী-সমর্থক থেকে শুরু করে এলাকার বাসিন্দাদের মধ্যে।

প্রার্থী হিসেবে একাধিক নাম উঠে আসছে। শেষ পর্যন্ত দল কাকে প্রার্থী হিসেবে বেছে নেয় সেটাই দেখতে চাইছেন সকলেই। পূর্ব বর্ধমান জেলার নজরকাড়া আসনগুলির মধ্যে অন্যতম বর্ধমান দক্ষিণ বিধানসভা কেন্দ্র। মূলত জেলার সদর শহর বর্ধমান পৌরসভা নিয়ে গঠিত এই বিধানসভা কেন্দ্র। গত বিধানসভা নির্বাচনে প্রায় চল্লিশ হাজার ভোটে এই আসনে জয়ী হয়েছিলেন তৃণমূল কংগ্রেসের রবিরঞ্জন চট্টোপাধ্যায়।

কিন্তু গত লোকসভা ভোটে সেই ব্যবধান একেবারেই কমে গিয়েছে। দেখা যাচ্ছে, এই আসনে বিজেপি থেকে মাত্র দেড় হাজার ভোটে এগিয়ে রয়েছে তৃণমূল কংগ্রেস। বর্ধমান দুর্গাপুর লোকসভা কেন্দ্র বিজেপির দখলে। এখন জেলার সদর শহরের বাসিন্দারা তৃণমূল না বিজেপি কাকে বেছে নেবেন সেটাই দেখার।

তৃণমূল কংগ্রেস বর্ধমান দক্ষিণ কেন্দ্রে খোকন দাসকে প্রার্থী করেছে। এই কেন্দ্রে নিহত সিপিএম নেতা প্রদীপ তায়ের মেয়ে পৃথা তাকে প্রার্থী করেছে বামফ্রন্ট। এখন গেরুয়া শিবির কাকে প্রার্থী করে তা জানতে বাসিন্দাদের মধ্যে আগ্রহ তুঙ্গে।

বিজেপি সূত্রে জানা গিয়েছে, একাধিক নাম এই কেন্দ্রের জন্য রয়েছে। তাদের মধ্যেই একজনকে বেছে নেওয়া হবে। সদ্য প্রাক্তন সাংগঠনিক জেলা সভাপতি সন্দীপ নন্দীর নাম প্রার্থী হিসেবে শোনা যাচ্ছে। প্রবলভাবে শোনা যাচ্ছে এক চিকিৎসকের নামও। প্রার্থী হওয়ার দৌড়ে রয়েছেন বর্ধমান আদালতের এক প্রাক্তন বিচারকও।

আবার আদি বিজেপি নেতৃত্ব তাদের মধ্যে থেকে কাউকে প্রার্থী করার দাবি তুলেছেন। শেষ পর্যন্ত এই আসনে প্রার্থী হিসেবে দল কাকে বেছে নেয় তা জানতে উন্মুখ বিজেপির কর্মী নেতা সকলেই।

Saradindu Ghosh

Published by:Swaralipi Dasgupta
First published: