Home /News /south-bengal /
অভুক্ত ভবঘুরে ও সারমেয়দের মাংস-ভাত খাওয়ালো স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন, দেওয়া হল বিস্কুটের প্যাকেট

অভুক্ত ভবঘুরে ও সারমেয়দের মাংস-ভাত খাওয়ালো স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন, দেওয়া হল বিস্কুটের প্যাকেট

প্রতীকী ছবি

প্রতীকী ছবি

২৩ এপ্রিল থেকে লক ডাউনে গোটা দেশ।

  • Share this:

    #ক্যনিং: ভবঘুরে ও সারমেয়দের পেট পুরে মাংস ভাত খাওয়ালো স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন। দেওয়া হল বিস্কুট। শুধু স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন নয়, এই উদ্যোগে শামিল এক মহিলাও। রবিবার রাতে ক্যানিংয়ের বিভিন্ন এলাকায় ঘুরে ঘুরে ভবঘুরে ও সারমেয়দের পেট পুরে মাংস-ভাত খাওয়ান তাঁরা। পাশাপাশি, ভবঘুরেদের হাতে তুলে দেওয়া হয় বিস্কুটের প্যাকেট।

    গত কয়েক দিন ধরে করোনা অতঙ্কে কাঁটা দেশ। ভাইরাসের সংক্রমণ রুখতে চলছে লক ডাউন। তার ফলে ক্যানিংয়ের বিভিন্ন হোটেল রেস্তোরাঁয় বন্ধ মানুষের আনাগোনা। আর তার জেরেই  প্রায় অভুক্ত ভবঘুরেরা। এমনকি ক্যাতে পাচ্ছে না এলাকার পথ কুকুররাও। এমতাবস্থায় তাঁদের মুখের সামনে তুলে ধরা হল মাংস-ভাত। খাবার খেয়ে তৃপ্তির হাসি সকলের মুখে। এই দিন প্রায় গোটা কুড়ি ভবঘুরে, কুকুর ও বিড়ালদের নিজে হাতে বাড়িতে তৈরী করা মাংস ভাত কাইয়াঁ ওই সংগঠনের সদস্যরা।

    এদিকে হালিমা দাস নামে পশুপ্রেমি ওই মহিলা জানান, গত কয়েকদিন তিনি ক্যানিংয়ের বিভিন্ন এলাকায় ঘুরে ঘুরে কুকুর ও বিড়াল এমনকি খেতে না পাওয়ায় মানুষদের মুখে খাবার তুলে দিয়েছেন। এমনকি যারা এখনও খেতে পাচ্ছেন না অর্থের অভাবে, তাঁদের প্রয়োজনে পাশে দাড়িয়ে চাল, আলু-সহ বিভিন্ন সবজি  কিনে দেবেন। অন্যদিকে, স্বেচ্ছাসেবী সংগঠনের সদস্য জয় সর্দার জানান, এই লক ডাউনের ফলে কোনভাবে মানুষজন খেতে পারলেও, ভবঘুরে ও সারমেয়দের খাওয়াঢ় জুটছে না। তাই আমরা সবাই মিলে তাদের দু'বেলা পেট পুরে খাওয়ানো ব্যবস্থা করেছি। যতদিন এই লক ডাউন চলবে তারা দু'বেলা যাতে খাবার পান তার চেষ্টা করব।

    Published by:Shubhagata Dey
    First published:

    Tags: Canning, COVID-19, Lock Down

    পরবর্তী খবর