রাজ্যের নিরাপত্তা অধিকর্তা পদে ফিরলেন বিবেক সহায়, রাজ্য পুলিসে একাধিক রদবদল

রাজ্য পুলিসে একাধিক রদবদল।

রাজ্য পুলিসে একাধিক রদবদল।

  • Share this:

#কলকাতা: তৃতীয়বার মুখ্যমন্ত্রী পদে শপথ গ্রহণ করার পরই মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় বলেছিলেন, গত তিন মাস আইনশৃঙ্খলা ব্যবস্থা নির্বাচন কমিশনের হাতে ছিল। তবে এবার রাজ্যে শান্তি-শৃঙ্খলা বজায় রাখতে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেবেন তিনি। এর পরই রাজ্য পুলিসে একাধিক রদবদল। একাধিক জায়গায় এসপি ও আইপিএস বদল হল। নন্দীগ্রামে মুখ্যমন্ত্রী আহত হওয়ার পর রাজ্যের নিরাপত্তা অধিকর্তা বিবেক সহায়কে দায়িত্ব থেকে সরিয়ে দিয়েছিল নির্বাচন কমিশন। নন্দীগ্রামের বিরুলিয়ায় ভোট প্রচারে গিয়ে আহত হয়েছিলেন মুখ্যমন্ত্রী। পায়ে গুরুতর চোট পেয়েছিলেন তিনি। সেদিন রাতেই তাঁকে কলকাতায় নিয়ে আসা হয়েছিল। এরপর এসএসকেএমে ভর্তি ছিলেন মুখ্যমন্ত্রী।

সেই ঘটনার পরই মুখ্য সচিব ও সিইওর কাছে রিপোর্ট চেয়েছিল কমিশন। এরপর রাজ্যে দুই বিশেষ পর্যবেক্ষকের থেকেও রিপোর্ট নেয় কমিশন। তার পরই রাজ্যের নিরাপত্তা অধিকর্তা বিবেক সহায়কে অপসারণের সিদ্ধান্ত নিয়েছিল নির্বাচন কমিশন। তাঁর বিরুদ্ধে কর্তব্যে গাফিলতির অভিযোগ উঠেছিল। মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় তৃতীয়বার মুখ্যমন্ত্রী হিসেবে শপথ নেওয়ার পরই ফের পুরনো পদে ফেরানো হল বিবেক সহায়ককে। মেদিনীপুর জেলায় ফের পুলিশ সুপার হলেন ইন্দিরা মুখার্জি। পূর্ব মেদিনীপুরের পুলিস সুপার সুনীল কুমার যাদবকে কম্পালসারি ওয়েটিংয়ে পাঠানো হয়েছে। ব্যারাকপুরের সিপি হলেন মনোজ কুমার বর্মা। চন্দননগর পুলিশ কমিশনারেটের ডিআইজি গৌরব শর্মা এবার শিলিগুড়ি পুলিশ কমিশনারটের ডিআইজি পদে দায়িত্ব সামলাবেন। চন্দননগর পুলিশ কমিশনারেটে ডিআইজি হিসেবে দায়িত্বে থাকবেন অর্ণব ঘোষ। গৌরব শর্মাকে আসানসোল-দুর্গাপুরের সিপি হিসাবে দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে। কোচবিহারের পুলিশ সুপার দেবাশিস ধরকে কমপালসরি ওয়েটিংয়ে পাঠানো হয়েছে। কে কান্নান কোচবিহারের পুলিস সুপার হলেন। তিনি এই পদেই ছিলেন আগে। তাঁকে দায়িত্ব থেকে সরিয়েছিল কমিশন। বারাসাত রেঞ্জ-এর ডিআইজি মুকেশকে কম্পালসারি ওয়েটিং-এ পাঠানো হয়েছে। এছাড়াও একাধিক রদবদল হয়েছে রাজ্য পুলিসে।

Published by:Suman Majumder
First published: